বিবর্তন যশোরের ৩১ বছরপূর্তি উপলক্ষে তিন দিনব্যাপী উৎসব শুরু

18

মো: মতিয়ার রহমান ##

আন্তর্জাতিক খ্যাতি সম্পন্ন নাট্য সংগঠন বিবর্তন যশোরের ৩১বছরপূর্তি উপলক্ষে তিন দিনব্যাপী উৎসব শুরু হয়েছে। ‘সংগ্রামে সৃজণে মানুষের পাশে, মানুষের সাথে’ শ্লোগানকে সামনে রেখে ব্লাড ডোনার ব্যাংক গঠনের লক্ষ্যে রক্তদান কর্মসূচির মধ্য দিয়ে সংগঠন কার্যালয়ে শুক্রবার এ উৎসব শুরু হয়।

বিবর্তন যশোরের ৩১ বছর পূর্তি উদযাপন কমিটির উদ্যোগে করোনাকালীন বর্তমান পরিস্থিতিতে উৎসব উপলক্ষে গণমূখী কার্যক্রমের অংশ হিসেবে এ কর্মসূচি পালন করা হয়।

উদ্বোধনী এ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন সিভিল সার্জন শেখ আবু শাহিন। বিশেষ অতিথি ছিলেন যশোর ইনস্টিটিউটের সাধারণ সম্পাদক ডা. আবুল কালাম আজাদ লিটু, প্রেসক্লাব যশোরের সভাপতি জাহিদ হাসান টুকুন, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের কেন্দ্রীয় সদস্য সুকুমার দাস ও সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট যশোর জেলা শাখার ভারপ্রাপ্ত সভাপতি তরিকুল ইসলাম তারু।

শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন বিবর্তন যশোরের সাবেক সভাপতি মনিরুল ইসলাম।

সভাপতিত্ব করেন বিবর্তন যশোরের ৩১ বছর পূর্তি উপলক্ষে ব্লাড ডোনার ব্যাংক গঠনের লক্ষ্যে রক্তদান কর্মসূচি উপকমিটির আহবায়ক মামুনুর রশিদ। সঞ্চালনা করেন বিবর্তন যশোরের সাধারণ সম্পাদক আতিকুজ্জামান রনি।

উৎসব বিষয়ে বিবর্তন যশোরের ৩১ বছর পূর্তি উদযাপন কমিটির আহবায়ক নওরোজ আলম খান চপল ১২ অক্টোবর বিবর্তন যশোর ৩২তম বর্ষে পদার্পণ করছে। আর এ দিনটিকে স্মরণীয় করতে বৈশ্বিক মহামারি করোনাকালীন পরিস্থিতি বিবেচনায় সংক্ষিপ্ত এ উৎসবে রক্তদান, বৃক্ষরোপণসহ গণমূখী কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে। ১২ অক্টোবর বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বৃক্ষরোপণ করা হবে। এছাড়া ১৬ অক্টোবর উৎসবের সমাপনী দিনে জেলা শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে সন্ধ্যায় ৫জন সোনার বাংলার সোনার মানুষকে (কৃষক, শ্রমিক, গাছি, পরিচ্ছন্নকর্মী ও রেমিটেন্স যোদ্ধা) সম্মাননা জানানো হবে। একইসাথে উৎসব উপলক্ষে মঞ্চস্থ হবে নাটক ‘নকশীকাঁথা’।

বিবর্তন যশোরের ৩১ বছর পূর্তি উদযাপন কমিটির সদস্য সচিব দীপংকর বিশ্বাস জানান, মঞ্চ নাট্যচর্চায় রয়েছে নানাবিধ সংকট ও সীমাবদ্ধতা। চলমান এ সংকট মোকাবেলা করেই তিন দশক ধরে বিবর্তন যশোর তাদের পথচলা অব্যাহত রেখেছে। নাট্যচর্চার পাশাপাশি বিবর্তন যশোর বিভিন্ন গণমুখী ও সমাজকল্যাণে কাজ করে আসছে। তারই ধারাবাহিকতায় বিবর্তন যশোরের ৩১ বছর পূর্তি উপলক্ষে বৈশ্বিক মহামারি করোনাকালীন পরিস্থিতি বিবেচনায় সংক্ষিপ্ত এ উৎসব আয়োজন করা হয়েছে।