• ১৬ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ২রা আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, দুপুর ২:০৩
  • রেজিস্ট্রেশন ৪৬১

করোনাকে হারিয়ে বাড়ি ফিরলেন ধোনির বাবা-মা

bmahedi
প্রকাশিত এপ্রিল ২৯, ২০২১, ১৫:২৬ অপরাহ্ণ
করোনাকে হারিয়ে বাড়ি ফিরলেন ধোনির বাবা-মা

স্পোর্টস ডেস্ক ## অবশেষে স্বস্তি ফিরল ধোনি পরিবারে৷ করোনা যুদ্ধে জয়ী হয়ে বাড়ি ফিরলেন প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক কথা আইপিএলে চেন্নাই সুপার কিংস ক্যাপ্টেন মহেন্দ্র সিং ধোনির বাবা-মা৷ গত ২০ এপ্রিল কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়ে রাঁচির এক বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন ধোনির বাবা পান সিং এবং মা দেবকী দেবী৷ আর ২৮ এপ্রিল সুস্থ হয়ে হাসপাতাল থেকে বাড়ি ফেরেন ধোনির বাবা ও মা৷

বুধবার দিল্লির ফিরোজ শাহ কোটলায় সানরাইজার্স হায়দরাবাদের বিরুদ্ধে মাঠে নামার আগেই সুখবরটি পেয়েছিলেন ধোনি৷ বাবা ও মা দু’জনেই করোনার বিরুদ্ধে যুদ্ধে জয়ী হয়ে বাড়ি ফিরেছেন৷ দু’জনেরই করোনা টেস্টের রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। সানরাইজার্স হায়দরাবাদের বিরুদ্ধে মাঠে নামার আগে তাই ফুরফুরে মেজাজে পাওয়া গিয়েছিল ধোনিকে। ম্যাচেও সানরাইজার্সকে হেলায় হারিয়ে ফের পয়েন্ট টেবলে এক নম্বরে ওঠে৷

এক সপ্তাহের মধ্যে ধোনির বাবা ও মা সম্পূর্ণ সুস্থ হয়ে ওঠেন৷ তাঁদের কোনও শারীরিক সমস্যা নেই বলে হাসপাতালের তরফে জানানো হয়৷ দু’জনের কোভিড-১৯ টেস্টের রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে৷ করোনা টেস্টের রিপোর্ট পজিটিভ আসার পর ২০ এপ্রিল রাঁচির এক সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিলেন প্রাক্তন ভারত অধিনায়কের বাবা-মা’কে৷ মুম্বইয়ে কলকাতা নাইট রাইডার্সের বিরুদ্ধে মাঠে নামার আগে দু:সংবাদটা পেয়েছিলেন ধোনি৷

কিন্তু পরিস্থিতির কারণে রাঁচি ফিরতে পারেননি তিনি৷ আইপিএলে পরপর ম্যাচ তারপর একবার জৈব সুরক্ষা বলয় থেকে বের হলে ফের সাতদিন কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হত তাঁকে। সে কারণে দলের সঙ্গেই থেকে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন সিএসকে ক্যাপ্টেন। ফোনেই মা-বাবার চিকিৎসার ব্যবস্থা করেন মাহি। তাঁর পরিবারের পাশে দাঁড়িয়েছিল চেন্নাই সুপার কিংস কর্তৃপক্ষও।

বাবা-মা করোনা আক্রান্ত হলেও আইপিএলের ম্যাচে তার কোনও প্রভাব পড়তে দেননি ধোনি৷ প্রথম ম্যাচে দিল্লি ক্যাপিটালসের কাছে হারলেও পরের পাঁচটি ম্যাচ জিতে দারুণ ছন্দে রয়েছে সুপার কিংস৷ প্রথম ৬টি ম্যাচের পাঁচটি জিতে ১০ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবলে শীর্ষ উঠে এসেছে ধোনি অ্যান্ড কোং৷

Sharing is caring!