• ২২শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ৭ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, বিকাল ৫:৪৫
  • রেজিস্ট্রেশন ৪৬১

কারামুক্ত পরীমনি

বার্তাকন্ঠ
প্রকাশিত সেপ্টেম্বর ১, ২০২১, ১২:৫০ অপরাহ্ণ
কারামুক্ত পরীমনি

ছবি: সংগৃহীত

বিনোদন ডেস্ক ।।

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে করা মামলায় ঢাকাই চলচ্চিত্রের আলোচিত চিত্রনায়িকা পরীমনি জামিনে কারামুক্ত হয়েছেন। বুধবার (১ সেপ্টেম্বর) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে কাশিমপুর কেন্দ্রীয় মহিলা কারাগার থেকে বের হন তিনি। ১৯ দিন পর কারাজীবন থেকে মুক্তি পেয়েছেন এ নায়িকা।

কারাফটকে পরীমনিকে বহন করা গাড়িটি আসার সঙ্গে সঙ্গে ঘিরে ধরে উৎসুক জনতা। পরে গাড়ির সানরুফ খুলে দাঁড়িয়ে পড়েন পরীমনি। উৎসুক জনতার উদ্দেশে হাত নাড়তে দেখা গেছে তাকে। এ সময় হাত মেলানো এবং সেলফিও তুলেছেন পরীমনি। তার চোখে ছিল উচ্ছ্বাস, মুখে সেই চিরচেনা হাসি।

পরীমনির ডান হাতে মেহেদি দিয়ে লেখা ছিল, ‘ডোন্ট লাভ মি বিচ’। শয়তানদের দূরে থাকার কথা বলছেন পরীমনি! কারাগার থেকে বেরিয়ে এমন বার্তাই দেওয়ার চেষ্টা করেছেন ঢালিউডের এ নায়িকা।

এর আগে সকাল ৯টা ২১ মিনিটে আইনজীবী নীলাঞ্জনা রিফাত সুরভীর কাছে পরীমনিকে হস্তান্তর করেন কাশিমপুর কারা কর্তৃপক্ষ। সকাল ৯টা ৩৭ মিনিটের দিকে কারাগার থেকে বের হন এ নায়িকা। এ সময় কারাফটকে উপস্থিত ছিলেন তার খালু মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন।

৪ আগস্ট পরীমনির বাসায় অভিযান চালায় র‌্যাব। পরদিন বনানী থানায় মাদক মামলা দায়ের হয় পরীমনির নামে। ওইদিনই আদালতে তোলা হয় এ নায়িকাকে। সাত দিনের রিমান্ড চাওয়া হলে আদালত চার দিন মঞ্জুর করেন। এরপর তিন দফায় সাত দিনের রিমান্ডে ছিলেন পরীমনি।

উচ্চ আদালতের হস্তক্ষেপে মঙ্গলবার (৩১ আগস্ট) পরীমনির জামিন শুনানির দিন ধার্য করা হয়। শুনানি শেষে ৫০ হাজার টাকা মুচলেকায় পরীমনির জামিন আদেশ দেন ঢাকার মহানগর দায়রা জজ কে এম ইমরুল কায়েশ।

আদালতের রায়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন পরীমনির আইনজীবীরা। আদালত প্রাঙ্গণে পরীমনির আইনজীবী মো. মুজিবুর রহমান বলেন, ‘আপাতত পরীমনির মুক্তিতে আর কোনো বাধা নেই। আমরা আমাদের আইনি পদক্ষেপ গ্রহণ করতে সক্ষম হয়েছি। আমরা চেষ্টা করব আজকেই তাকে জেলহাজত থেকে মুক্ত করার।’

কিন্তু গতকাল সময়মতো আদেশের কপি কারাগারে না যাওয়ায় পরীমনিকে মুক্ত করতে পারেনি কারা কর্তৃপক্ষ। নিয়ম অনুযায়ী সন্ধ্যা ৬টার মধ্যে কাগজপত্র কারা কর্তৃপক্ষের কাছে যেতে হয়। আদালত থেকে নথিপত্র নিয়ে রওনা হলেও সময়মতো পৌঁছাতে পারিনি। তাই বুধবার (১ সেপ্টেম্বর) সকালে মুক্ত হয়েছেন পরীমনি।

Sharing is caring!