• ২১শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ৭ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, দুপুর ১:২৯
  • রেজিস্ট্রেশন ৪৬১

কোথায় আটকে রাখা হয়েছিল বলতে চাচ্ছেন না সোহেল তাজের ভাগ্নে

bmahedi
প্রকাশিত জুন ২০, ২০১৯, ১৬:০২ অপরাহ্ণ

কামাল হোসেন : স্টাফ রিপোর্টার ।।

সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী তানজিম আহমেদ সোহেল তাজের নিখোঁজ ভাগ্নে সৈয়দ ইফতেখার আলম ওরফে সৌরভের শারীরিক অবস্থা ভালো এবং তিনি সুস্থ আছেন। তবে ১১ দিন তাকে কোথায় আটকে রাখা হয়েছিল, নির্যাতন করা হয়েছে কিনা- এ ব্যাপারে সৌরভ কিছুই বলছেন না বলে জানান ময়মনসিংহ জেলা পুলিশ সুপার শাহ আবিদ হোসেন।

জেলা পুলিশ সুপারের কার্যালয়ের সামনে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে পুলিশ সুপার শাহ আবিদ হোসেন যুগান্তরকে জানান, কে বা কারা ভোরে চট্টগ্রামে নিখোঁজ সৈয়দ ইফতেখার আলম ওরফে সৌরভকে তারাকান্দা উপজেলার বটতলা মধুপুর এলাকার জামিল অটো রাইস মিলের সামনের রাস্তায় রেখে যায়।

ভোর ৫টা ২০ মিনিটে চট্টগ্রাম এন্টি-টেররিজম ইউনিটের ডিসি আমাকে (ময়মনসিংহের পুলিশ সুপার) ফোন করে জানান- তারাকান্দা উপজেলার বটতলা মধুপুর এলাকার জামিল অটো রাইস মিলের সামনে সৌরভকে পাওয়া গেছে।

খবর পেয়ে তারাকান্দা থানার পুলিশসহ তিনি নিজে গিয়ে সৌরভকে উদ্ধার করে ময়মনসিংহে নিয়ে আসেন। পরে তার পরিবারের সঙ্গে কথা বলে তাদের চাহিদা অনুযায়ী পুলিশ পাহারায় তাকে বনানীতে পরিবারের কাছে পাঠানো ব্যবস্থা করা হয়। সৌরভের শারীরিক অবস্থা ভালো এবং তিনি সুস্থ আছেন।

এক প্রশ্নের জবাবে পুলিশ সুপার জানান, এ মুহূর্তে সৌরভের সঙ্গে কথা বলার মতো পরিস্থিতি হয়নি। তিনি রাইস মিলে একটি চেয়ারে বসাছিলেন। তাকে নির্যাতন করা হয়েছে কিনা, এ ব্যাপারে জানতে চাইলে পুলিশ সুপার জানান, এ ব্যাপারে সৌরভ কিছুই বলেননি, বলেছে পরে কথা বলবে। ১১ দিন কোথায় ছিল, কীভাবে ছিল- এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি কিছুই বলতে পারেননি। তবে তাকে আটকে রাখা হয়েছিল এটুকুই বলেছে বলে জানান তিনি।

গত ৯ জুন চট্টগ্রামের মিমি সুপার মার্কেটের আগোরার সামনে থেকে সৌরভ অপহৃত হন। গত শনিবার নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে দেয়া এক পোস্টে সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী সোহেল তাজ এমনই অভিযোগ করেন।

একই অভিযোগ করে ভাগ্নেকে অক্ষত ও জীবিত অবস্থায় ফেরত চেয়ে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটে এক সংবাদ সম্মেলন করেন তিনি। এ সময় তার নিখোঁজ ভাগ্নের মা সৈয়দা ইয়াসমিন আরজুমান উপস্থিত ছিলেন।

Sharing is caring!