• ২রা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ১৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, রাত ৪:২৮
  • রেজিস্ট্রেশন ৪৬১

বীর মুক্তিযোদ্ধা সাদেক হোসেন খোকার স্মরণে দোয়া

বার্তাকন্ঠ
প্রকাশিত নভেম্বর ৪, ২০২১, ১৪:১৪ অপরাহ্ণ
বীর মুক্তিযোদ্ধা সাদেক হোসেন খোকার স্মরণে দোয়া

ঢাকা ব্যুরো ।।

রকার লুটেরাগোষ্টির স্বার্থ রক্ষায় এলপিজি সিলিন্ডার গ্যাসের মূল্য দফায় দফায় বৃদ্ধি করেছে, বৃদ্ধি করেছে ডিজেল ও কেরোসিনের মূল্যবৃদ্ধি মন্তব্য করে বাংলাদেশ ন্যাপ মহাসচিব এম. গোলাম মোস্তফা ভুইয়া বলেন, করোনার আক্রমনে জনজীবন বিপন্ন, বেকারত্ব, দারিদ্র্যতা বৃদ্ধি পলেও সরকারী দলের নেতা আর লুটেরা গোষ্টির লুটপাট অব্যাহত রয়েছে। এর মধ্যেই চলছে সরকারের মূল্যবৃদ্ধির আগ্রাসন। আর এসময় বীর মুক্তিযোদ্ধা সাদেক হোসেন খোকার প্রয়োজনীয়তা উপলব্ধি করছে জাতি।
বৃহস্পতিবার (৪ নভেম্বর) যাদু মিয়া মিলনায়তনে অভিক্ত ঢাকা সিটি করপোরেশনের শেষ মেয়র, বীর মুক্তিযোদ্ধা সাদেক হোসেন খোকার ২য় মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে নাগরিক স্মরণ মঞ্চ স্মরণসভা ও দোয়া অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।
তিনি বলেন, সাদেক হোসেন খোকা একজন সাহসী ও জনবান্ধব নেতা ছিলেন। রাজনীতিতে মত পার্থক্য, মতবিরোধ থাকার পরও একজন রাজনৈতিক নেতা কিংবা কর্মী তার সাথে মিসতে পারতেন খুব সহজেই। তিনি নিতেন আপন করে। দোষে-গুনেই মানুষ। রাজনীতিবিদদের অনেকের সম্পর্কেই আমরা পুরোপুরি জানি না। কোন কোন ক্ষেত্রে তা অতিমাত্রায় ধারনা ও আন্দাজের ওপর প্রতিষ্ঠিত। এই ধারনা ও আন্দাজ ভুল প্রমাণের জন্য কাউকে কাউকে মৃত্যু পর্যন্ত পৌঁছে যেতে হয়। সাদেক হোসেন খোকাও সম্পর্কেও অনেকের ধারনা ভুল ছিল তা আজ বা কাল প্রমানিত হবে।
সংগঠনের সমন্বয়কারী ও এনডিপি মহাসচিব মো. মঞ্জুর হোসেন ঈসা’র সভাপতিত্বে আলোচনায় অংশগ্রহন করেন কৃষক দল নেতা মিয়া মো. আনোয়ার, কে এম রকিবুল ইসলাম রিপন, জাতীয় মানবাধিকার সমিতির মহাসচিব এডভোকেট সাইফুল ইসলাম সেকুল, মতলব উত্তর জইরাবাদ ইউপির বিএনপি নেতা মো. সেলিম প্রধান, কৃষক দল মোক্তার আখন্দ প্রমুখ।
অনুষ্ঠানে প্রখ্যাত রাজনীতিক তরিকুল ইসলাম ও ঢাকার সাবে মেয়র সাদেক হোসেন খোকার রুহের মাগফেরাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়।
সভাপতির বক্তব্যে মো. মঞ্জুর হোসেন ঈসা বলেন, সাদেক হোসেন খোকা দেশমাতৃকার স্বাধীনতার জন্য যেমন মুক্তিযুদ্ধে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখেছেন তেমনই গণতন্ত্রের জন্যও লড়াই করেছেন। বাংলাদেশের রাজনীতিতে তিনি ছিলেন একজন ব্যতিক্রমী ব্যক্তিত্ব। অত্যাচারীর রক্তচক্ষু তার দৃঢ় মনোবলকে দুর্বল করতে পারেনি। নিজস্ব মতাদর্শে তিনি ছিলেন নির্ভয় ও অবিচল।
তিনি বলেন, সাদেক হোসেন খোকার কর্মময় জীবনের সাফল্যের মূলে ছিল আদর্শ ও উদ্যোগ। জনগণের গণতান্ত্রিক অধিকার প্রতিষ্ঠার সংগ্রামে তিনি কখনোই কোনো অগণতান্ত্রিক শক্তির কাছে মাথা নত করেননি। মুক্তিযুদ্ধ ও গণতন্ত্রের লড়্ইায়ে তার অবদান দেশবাসী চিরদিন শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করবে।

 বার্তাকণ্ঠ/এন

Sharing is caring!