• ২৩শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ৭ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, সন্ধ্যা ৬:২০
  • রেজিস্ট্রেশন ৪৬১

মাইক্রোবাসে কুবি শিক্ষার্থীকে অপহরণের প্রচেষ্টা

বার্তাকন্ঠ
প্রকাশিত অক্টোবর ১০, ২০২১, ১১:৪৭ পূর্বাহ্ণ
মাইক্রোবাসে কুবি শিক্ষার্থীকে অপহরণের প্রচেষ্টা

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের শিক্ষার্থী ইমতিয়াজ আহমেদ সুমন

কৌশিক আহমেদ, কুবি ।।

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লার পদুয়া বাজার এলাকায় ছিনতাইয়ের কবলে পড়েন কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থী। গত শুক্রবার (৮ অক্টোবর) রাত সাড়ে ৯ টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। ছিনতাইয়ের শিকার ইমতিয়াজ আহমেদ সুমন কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের ২০১৭-১৮ সেশনের শিক্ষার্থী।

এসময় শিক্ষার্থীকে মারধর করে চোখে মরিচের গুঁড়ো মেখে দিয়ে নূরজাহান হোটেলের সামনে চলন্ত মাইক্রোবাস থেকে তাকে ফেলে রেখে চলে যান।

ছিনতাইয়ের শিকার শিক্ষার্থী ইমতিয়াজ আহমেদ সুমনের সাথে কথা বলে জানা যায়, শুক্রবার জরুরী প্রয়োজনে তিনি কুমিল্লা থেকে ঢাকা যাওয়ার উদ্দেশ্যে কুমিল্লার পদুয়ারবাজার থেকে একটি মাইক্রোবাসে উঠেন। মাইক্রোবাসটি কোটবাড়ি বিশ্বরোড অতিক্রম করে আবার চট্টগ্রাম অভিমুখী চলতে শুরু করলেই গাড়িতে থাকা যাত্রীবেশী পাঁচজন লোক তার হাত-পা বেঁধে নির্যাতন করে। এসময় তার পরিবার থেকে ১ লক্ষ টাকা দাবি করা হয়।

সুমন বলেন, ‘নির্যাতনের একপর্যায়ে আমার সাথে থাকা মোবাইল ফোন নিয়ে যায় তারা। আর আমার মানিব্যাগে ১০ হাজার টাকা পেয়ে আমাকে পদুয়ার বাজারে নূরজাহান রেস্টুরেন্টের পাশে ফেলে রেখে যায়। এবং ফেলে দেওয়ার আগে আমার চোখে মরিচের গুড়া মেখে দেয়।

এ ঘটনার পর সুমন চোখে পানি দিয়ে একটি অটোতে করে বাসায় চলে যান। বাসায় গিয়ে ৯৯৯ নাম্বারে কল করে সদর দক্ষিণ উপজেলা পুলিশের কাছে অভিযোগ করেন।

সদর দক্ষিণ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা দেবাশীষ চৌধূরী বলেন, বিষয়টি যেহেতু আমাদের থানার এরিয়া। লিখিত অভিযোগ দিলে আমরা আইনানুগ ব্যবস্থা নিব।

এ বিষয়ে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. কাজী মোহাম্মদ কামাল উদ্দিন বলেন, ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী লিখিত অভিযোগ দিলে আমরা পুলিশ প্রশাসন কে বলে দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণ করব। বর্তমানে ওই শিক্ষার্থী ঢাকার একটি বেসরকারি হাসপাতালে চোখের চিকিৎসা নিচ্ছেন।

Sharing is caring!