• ৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, রাত ৪:৫৮
  • রেজিস্ট্রেশন ৪৬১

রূপগঞ্জে সন্ত্রাস বিরোধী অভিযানে ককটেল ও দেশীয় অস্ত্রসহ গ্রেফতার ৩

বার্তাকন্ঠ
প্রকাশিত নভেম্বর ১৮, ২০২১, ২০:৫১ অপরাহ্ণ
রূপগঞ্জে সন্ত্রাস বিরোধী অভিযানে ককটেল ও দেশীয় অস্ত্রসহ গ্রেফতার ৩
রূপগঞ্জ প্রতিনিধি ।। 
নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে আইন শৃংখলা বাহিনী সন্ত্রাস বিরোধী অভিযান চালিয়ে চালিয়ে ২ টি ককটেল, বিপুল পরিমান দেশীয় অস্ত্রসহ ৩ সন্ত্রাসীকে গ্রেফতার করেছে। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত র‍্যাব, পুলিশ ও জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ যৌথ ভাবে উপজেলার কাঞ্চন পৌরসভার কেন্দুয়া ও কাঞ্চন উত্তরপাড়া আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদকের বাড়ীতে সাড়াশী অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে।
ভোলাব তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ ইন্সপেক্টর মিজানুর রহমান জানান, গত কয়েকদিন ধরে এলাকায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে কাঞ্চন পৌর মেয়র রফিকুল ইসলামের লোকজনের সাথে পৌর আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক গোলাম রসুল কলি ও তার লোকজন সন্ত্রাসী কর্মকান্ড করে আসছে। প্রতিদিন উভয়পক্ষের লোকজন দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে বাজারে পেশী শক্তি প্রদর্শন করে আসছে।
এতে কাঞ্চন বাজারের ব্যবসায়ীরা আতংক ও লুটপাটের ভয়ে দোকানপাট বন্ধ করে দিয়েছে। মানুষ ভয়ে বাজারে আসা প্রায় বন্ধ করে দিয়েছে। পুরো এলাকায় আতংক বিরাজ করছে। এদিকে বৃহস্পতিবার সকালে নারায়ণগঞ্জ জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার( ক্রাইম) মোস্তাফিজুর রহমানের নেতৃত্বে র‍্যাব, ডিবি পুলিশ ও রূপগঞ্জ থানার পুলিশ একত্রিত হয়ে কাঞ্চন পৌরসভার কেন্দুয়া পৌর মেয়েরের বাড়ীতে ও আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক কলির বাড়ীতে যৌথ অভিযান চালায়। অভিযানে কেন্দুয়া আবুলের বাড়ীর সামনে থেকে দেশী অস্ত্র ও কাঞ্চন উত্তরপাড়া এলাকায় কলির বাড়ী থেকে ২ টি ককটেল, বিপুল পরিমান দেশীয় অস্ত্রসহ তার সহযোগী আনোয়ার হোসেন ও আফজাল হোসেনকে এবং কালাদী আমতলা থেকে দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র লোহা শাহীনকে গ্রেফতার করে।
এব্যাপারে রূপগঞ্জ থানার ওসি এএফএম সায়েদ বলেন, কাঞ্চন পৌর এলাকায় দীর্ঘ দিন ধরে দুটি পক্ষ এলাকায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে সন্ত্রাসী কর্মকান্ড করে আসছিল। এতে পুরো কাঞ্চন এলাকায় সাধারন মানুষ আতংকে রয়েছে। আমরা সন্ত্রাস নির্মূলে সর্বদা সোচ্চার। সন্ত্রাস মুক্ত করতে আমাদের এ অভিযান। অভিযানে আমরা বিপুল পরিমান দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র ও স্কসটেপ মোড়ানো ককটেল সাদৃশ্য দুটি বস্তু উদ্ধার করেছি। আমাদের এ অভিযান অব্যাহত থাকবে।
 বার্তাকণ্ঠ /এন

Sharing is caring!