• ৬ই ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ২১শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, দুপুর ২:৩০
  • রেজিস্ট্রেশন ৪৬১

সাংবাদিক সুরক্ষা আইন প্রণয়নের দাবিতে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি প্রদান

বার্তাকন্ঠ
প্রকাশিত অক্টোবর ১৯, ২০২১, ১৬:২৫ অপরাহ্ণ
সাংবাদিক সুরক্ষা আইন প্রণয়নের দাবিতে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি প্রদান
এম ওসমান, শার্শা (যশোর)।। 
বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম (বিএমএসএফ) এর আহবানে সাড়া দিয়ে যশোরের শার্শা উপজেলা সাংবাদিক মহলের পক্ষ হতে সাংবাদিক সুরক্ষা আইন প্রণয়নের দাবিতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার মাধ্যমে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান করা হয়েছে।
১৯ অক্টোবর মঙ্গলবার দুপুরে যশোরের শার্শা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মীর আলিফ রেজা’র নিকট উক্ত সাংবাদিক সুরক্ষা আইন প্রণয়ন দাবীর স্মারকলিপি পত্রটি তুলে দেওয়া হয়।
বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম (বিএমএসএফ) এর সাধারণ সম্পাদক আহমেদ আবু জাফর এর নেতৃত্ব আহবানে সাড়া দিয়ে সারাদেশের বিভিন্ন জেলা-উপজেলার তৃনমুল মফস্বল সাংবাদিক মহলের পক্ষ হতে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করা হয়েছে।
সেই পরিপেক্ষিতেই উক্ত শার্শা উপজেলা হতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করা হয়। পত্র প্রদানের সময় উপস্থিত ছিলেন, শার্শা উপজেলা সদরের মফস্বল সংবাদকর্মী উপজেলা প্রেসক্লাবের সাংগঠনিক সম্পাদক ওসমান গনি,  খোরশেদ আলম, মেহেদী হাসান, ইকরামুল ইসলাম, এস এম আব্দুল্লাহ, আশরাফুল সরদার ও মোঃ টিটু মিলনসহ আরো অনেকে।
উল্লেখ্যঃ সাংবাদিকদের অধিকার, দাবী, সুরক্ষা এবং মর্যাদা রক্ষার আন্দোলনে বিএমএসএফ কাজ করে আসছে। সাংবাদিকরা প্রতিনিয়ত নানামুখী সমস্যায় পড়ছেই। তাই পেশাটির সাথে সংশ্লিষ্ট সাংবাদিকদের জন্য সুরক্ষা আইনটি খুবই জরুরী। তারই ধারাবাহিতায় আইনটি প্রনয়নের দাবীতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বরাবরে সারাদেশ থেকে স্মারকলিপি পাঠানো হয়েছে। আমরা আশা করছি তিনি (প্রধানমন্ত্রী) “সাংবাদিক সুরক্ষা আইন”টি প্রণয়নে উদ্যোগী হবেন। তিনি আরো বলেন, সাংবাদিক সুরক্ষা আইনটি প্রণয়ন করা হলে সারাদেশের সাংবাদিকদের পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রীকে ‘মাদার অব মিডিয়া’ উপাধিতে ভুষিত করা হবে।
ইতিমধ্যে দেশের বিভিন্ন জেলা ও উপজেলা সমূহের বিএমএসএফ এবং সাংবাদিক নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি, প্রেসক্লাবসহ সাংবাদিক সংগঠনের পক্ষ থেকে স্মারকলিপি পাঠানো হয়। এই দাবিতে বিএমএসএফ’র পক্ষ থেকে আন্দোলন অব্যাহত রাখারও ঘোষণা দেয় সংগঠনটির নেতৃবৃন্দ।
  বার্তাকণ্ঠ /এন

Sharing is caring!