বুধবার, ২২ মে ২০২৪, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মৌলভীবাজারে ছেলেধরা সন্দেহে গনপিটুনিতে শিকার একজন।

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি::

ছেলেধরা সন্দেহে  রিকশা চালককে গণপিটুনি দিয়েছে মৌলভীবাজার শহরের স্থানীয় সাধারণ জনতা।
রোববার (২১ জুলাই) দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে মৌলভীবাজার শহরের চাঁদনীঘাট ব্রীজের পাশের ফরেস্ট অফিস সড়কের মুখে রিকশা চালক ঐ যুবককে ছেলেধরা সন্দেহ হলে স্থানীয় পথচারীরা গণপিটুনি দিয়ে গুরুতর গুরুতর করে।
গণপিটুনির শিকার ঐ যুবকের নাম চন্দন পাল, সে শ্রীমঙ্গলের ভূনবির এলাকার কালিপদ পাল এর ছেলে বলে জানা গেছে।
খবর পেয়ে মৌলভীবাজার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ আলমঙ্গীর হোসেন এর নেতৃত্বে ঘটনাস্থল থেকে আহত অবস্থায় ঐ যুবককে পুলিশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

মৌলভীবাজার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ আলমঙ্গীর হোসেন জানান আহত যুবক পেশায় রিকশা চালক, সে শ্রীমঙ্গল শহরে রিকশা চালায়। তিনি বলেন মৌলভীবাজার শহরে তার পর্ব পরিচিত এক লোকের সন্ধানে স্থানীয় চাঁদনীঘাট এলাকায় খুঁজাখুঁজি অবস্থায় সন্দেহ হলে সে জনতার রোষানলে পরে গণপিটুনির শিকার হয়।

আপনার মন্তব্য লিখুন

লেখকের সম্পর্কে

Shahriar Hossain

মৌলভীবাজারে ছেলেধরা সন্দেহে গনপিটুনিতে শিকার একজন।

প্রকাশের সময় : ০৬:১২:০৬ অপরাহ্ন, রবিবার, ২১ জুলাই ২০১৯

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি::

ছেলেধরা সন্দেহে  রিকশা চালককে গণপিটুনি দিয়েছে মৌলভীবাজার শহরের স্থানীয় সাধারণ জনতা।
রোববার (২১ জুলাই) দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে মৌলভীবাজার শহরের চাঁদনীঘাট ব্রীজের পাশের ফরেস্ট অফিস সড়কের মুখে রিকশা চালক ঐ যুবককে ছেলেধরা সন্দেহ হলে স্থানীয় পথচারীরা গণপিটুনি দিয়ে গুরুতর গুরুতর করে।
গণপিটুনির শিকার ঐ যুবকের নাম চন্দন পাল, সে শ্রীমঙ্গলের ভূনবির এলাকার কালিপদ পাল এর ছেলে বলে জানা গেছে।
খবর পেয়ে মৌলভীবাজার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ আলমঙ্গীর হোসেন এর নেতৃত্বে ঘটনাস্থল থেকে আহত অবস্থায় ঐ যুবককে পুলিশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

মৌলভীবাজার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ আলমঙ্গীর হোসেন জানান আহত যুবক পেশায় রিকশা চালক, সে শ্রীমঙ্গল শহরে রিকশা চালায়। তিনি বলেন মৌলভীবাজার শহরে তার পর্ব পরিচিত এক লোকের সন্ধানে স্থানীয় চাঁদনীঘাট এলাকায় খুঁজাখুঁজি অবস্থায় সন্দেহ হলে সে জনতার রোষানলে পরে গণপিটুনির শিকার হয়।