বৃহস্পতিবার, ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

বেনাপোলে বিজিবি’র অভিযানে ৪০ হাজার ৪’শ  মার্কিন ডলার ও ১৩ লক্ষ ভারতীয় রুপী সহ এক আন্তর্জাতিক  নারী হুন্ডি ব্যবসায়ী আটক

মো: ইদ্রিস আলী।।
বেনাপোল’র আমড়াখালী এলাকা থেকে শনিবার রাতে বিপুল ৪০ হাজার ৪’শ মার্কিন ডলার, ও ১৩ লক্ষ  ভারতীয় রুপি সহ এক আন্তর্জাতিক নারী হুন্ডি ব্যবসায়ীকে আটক করেছে যশোর ব্যাটালিয়ন (৪৯ বিজিবি) এর বিশেষ দল।

যশোর ৪৯ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেঃ কর্নেল মোঃ সেলিম রেজা, পিএসসি জানান, ঈদের লম্বা ছুটিতে ভারতে ভ্রমন শেষে বাংলাদেশী নাগরিকগণ দেশে প্রত্যাবর্তনের সময় সৃষ্ট ভিড়ের আড়ালে অসাধু চোরাকারবারীরা হুন্ডি, মাদক ও স্বর্ণ পাচার করতে পারে এই ধারনা থেকে বিজিবি’র বিশেষ পরিকল্পনা অনুযায়ী গোয়েন্দা তৎপরতাসহ অভিযান জোরদার করা হয়েছে।

যার ফলশ্রুতিতে গতকাল ১৭ আগস্ট  রাত দশটায় আমড়াখালী চেকপোষ্টে কর্মরত নাঃ সুবেঃ মোঃ শাহীন মিয়ার নের্তৃত্বে একটি তল্লাশি অভিযান পরিচালনা করা হয়। উক্ত অভিযানে আমড়াখালী চেকপোষ্টের সামনে বেনাপোল হতে ঢাকাগামী দেশ ট্রাভেলস এর একটি যাত্রীবাহী বাসে (ঢাকা মেট্রো-ব-১৪-৮৮১৬) তল্লাশি করে ৪০ হাজার ৪০০ মার্কিন ডলার ও  ১৩ লক্ষ ভারতীয় রুপিসহ ০১ জন মহিলা হুন্ডি ব্যবসায়ীকে আটক করা হয়।

আটককৃত ডলার এবং ভারতীয় রুপির মূল্য বাংলাদেশী ৪৯ লক্ষ ,৯৪, হাজার টাকা।

আটককৃত আসামী সুরাইয়া বেগম (৫০), স্বামী-মোঃ শাহ আলম, ঠিকানা-হাউজ নং ৪১, রোড নং ৯, তুরাগ, উত্তরা, ঢাকা। আটককৃত হুন্ডিসহ আসামীর  বিরুদ্ধে মামলা দিয়ে বেনাপোল পোর্ট থানায় সোপর্দ করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, আটককৃত আসামীকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় যে, সুরাইয়া বেগম নিয়মিত ভারত, মালয়েশিয়া, সিংগাপুর এবং সৌদি আরবে যাতায়াত করে। ইতিমধ্যেই তিনি ভারতে প্রায় ১২ বার, মালয়েশিয়ায় ৭-৮ বার, সিংগাপুরে ৬-৭ বার এবং সৌদি আরবে ২-৩ বার যাতায়াত করেছেন। তিনি মূলতঃ স্বর্ণ পাচারের সাথে জড়িত। তিনি ভারতে স্বর্ণ পাচার করে পেমেন্ট নিয়ে বাংলাদেশে আসার সময় বিজিবি’র অভিযানে ধৃত হন।

 

 

আপনার মন্তব্য লিখুন

লেখকের সম্পর্কে

Shahriar Hossain

অবশেষে জল্পনা সত্যি! মা হচ্ছেন দীপিকা

বেনাপোলে বিজিবি’র অভিযানে ৪০ হাজার ৪’শ  মার্কিন ডলার ও ১৩ লক্ষ ভারতীয় রুপী সহ এক আন্তর্জাতিক  নারী হুন্ডি ব্যবসায়ী আটক

প্রকাশের সময় : ০৭:২৯:৩৭ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৮ অগাস্ট ২০১৯

মো: ইদ্রিস আলী।।
বেনাপোল’র আমড়াখালী এলাকা থেকে শনিবার রাতে বিপুল ৪০ হাজার ৪’শ মার্কিন ডলার, ও ১৩ লক্ষ  ভারতীয় রুপি সহ এক আন্তর্জাতিক নারী হুন্ডি ব্যবসায়ীকে আটক করেছে যশোর ব্যাটালিয়ন (৪৯ বিজিবি) এর বিশেষ দল।

যশোর ৪৯ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেঃ কর্নেল মোঃ সেলিম রেজা, পিএসসি জানান, ঈদের লম্বা ছুটিতে ভারতে ভ্রমন শেষে বাংলাদেশী নাগরিকগণ দেশে প্রত্যাবর্তনের সময় সৃষ্ট ভিড়ের আড়ালে অসাধু চোরাকারবারীরা হুন্ডি, মাদক ও স্বর্ণ পাচার করতে পারে এই ধারনা থেকে বিজিবি’র বিশেষ পরিকল্পনা অনুযায়ী গোয়েন্দা তৎপরতাসহ অভিযান জোরদার করা হয়েছে।

যার ফলশ্রুতিতে গতকাল ১৭ আগস্ট  রাত দশটায় আমড়াখালী চেকপোষ্টে কর্মরত নাঃ সুবেঃ মোঃ শাহীন মিয়ার নের্তৃত্বে একটি তল্লাশি অভিযান পরিচালনা করা হয়। উক্ত অভিযানে আমড়াখালী চেকপোষ্টের সামনে বেনাপোল হতে ঢাকাগামী দেশ ট্রাভেলস এর একটি যাত্রীবাহী বাসে (ঢাকা মেট্রো-ব-১৪-৮৮১৬) তল্লাশি করে ৪০ হাজার ৪০০ মার্কিন ডলার ও  ১৩ লক্ষ ভারতীয় রুপিসহ ০১ জন মহিলা হুন্ডি ব্যবসায়ীকে আটক করা হয়।

আটককৃত ডলার এবং ভারতীয় রুপির মূল্য বাংলাদেশী ৪৯ লক্ষ ,৯৪, হাজার টাকা।

আটককৃত আসামী সুরাইয়া বেগম (৫০), স্বামী-মোঃ শাহ আলম, ঠিকানা-হাউজ নং ৪১, রোড নং ৯, তুরাগ, উত্তরা, ঢাকা। আটককৃত হুন্ডিসহ আসামীর  বিরুদ্ধে মামলা দিয়ে বেনাপোল পোর্ট থানায় সোপর্দ করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, আটককৃত আসামীকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় যে, সুরাইয়া বেগম নিয়মিত ভারত, মালয়েশিয়া, সিংগাপুর এবং সৌদি আরবে যাতায়াত করে। ইতিমধ্যেই তিনি ভারতে প্রায় ১২ বার, মালয়েশিয়ায় ৭-৮ বার, সিংগাপুরে ৬-৭ বার এবং সৌদি আরবে ২-৩ বার যাতায়াত করেছেন। তিনি মূলতঃ স্বর্ণ পাচারের সাথে জড়িত। তিনি ভারতে স্বর্ণ পাচার করে পেমেন্ট নিয়ে বাংলাদেশে আসার সময় বিজিবি’র অভিযানে ধৃত হন।