সোমবার, ৩০ জানুয়ারী ২০২৩, ১৬ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ঘুমেই মৃত্যু ঘটার কারণ জানুন

মনিরুল আলম মিশর ।। 

মৃত্যু কখনো বলে আসে না, যখন তখনই হতে পারে। এই মৃত্যু দিনের আলোতে যেমন হতে পারে, ঠিক একইভাবে রাতে ঘুমের মধ্যেও হতে পারে। তবে প্রাচীন কাল থেকে অনেকেই মনে করেন, ঘুমের মধ্যে মৃত্যু নাকি ‘শান্তির’। নীরবে চলে যাওয়া যায়। তবে এই ধারণা কিন্তু একদমই সঠিক নয়। তবে কিছু কারণ আছে, ঘুমের মধ্যে মৃত্যু ঘটার। চলুন তা জেনে নেই-

অনেক সময় দেহের মাত্রাতিরিক্ত ওজন, শ্বাসযন্ত্রের সমস্যা, ঠান্ডা লেগে নাক বন্ধ হয়ে যাওয়াসহ অন্যান্য কিছু কারণে নাক ডাকা সমস্যা দেখা দিতে পারে। এছাড়া স্লিপ অ্যাপনিয়ার কারণেও নাক ডাকার সমস্যা হতে পারে। তবে জানলে অবাক হবেন, এর ফলে হঠাৎ অকাল মৃত্যু ঘটতে পারে।

একটি গবেষণায় দেখা গেছে, স্লিপ ডিসঅর্ডারের ফলে হৃদপিণ্ডের ডান এবং বাম দিকের ভেন্ট্রিকুলারের মারাত্মক ক্ষতি হয়। সম্প্রতি করা আরও একটি গবেষণায় উঠে এসেছে, শুধু যুক্তরাষ্ট্রেরই প্রায় ৩ কোটি মানুষ স্লিপ অ্যাপনিয়ায় আক্রান্ত।

এছাড়াও ঘুমের মধ্যে মৃত্যু অনেক কারণেই হতে পারে। যেমন, হৃগরোগে আক্রান্ত হয়ে, দম আটকে যাওয়ার ফলে। এছাড়া স্ট্রোক ও ঘুমের মধ্যে বাজে স্বপ্ন দেখলেও মৃত্যু হয়। ঘরে কার্বন মনোক্সাইডের প্রভাবেও অনেক সময় ঘুমের মধ্যে মৃত্যু হতে পারে। আর এই ধরণের কোনো সমস্যা থাকলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।

আপনার মন্তব্য লিখুন

লেখকের সম্পর্কে

Shahriar Hossain

দীর্ঘ ২৪ বছর পর একই মঞ্চে লতিফ সিদ্দিকী ও কাদের সিদ্দিকী

রাহুল-আথিয়া সাত পাকে বাঁধা পড়লেন

জাতীর জনক বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন ছিল দেশকে সোনার বাংলা করা -শেখ আফিল উদ্দিন, এমপি

ঘুমেই মৃত্যু ঘটার কারণ জানুন

প্রকাশের সময় : ১০:৪৭:১৮ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৯ অগাস্ট ২০১৯
মনিরুল আলম মিশর ।। 

মৃত্যু কখনো বলে আসে না, যখন তখনই হতে পারে। এই মৃত্যু দিনের আলোতে যেমন হতে পারে, ঠিক একইভাবে রাতে ঘুমের মধ্যেও হতে পারে। তবে প্রাচীন কাল থেকে অনেকেই মনে করেন, ঘুমের মধ্যে মৃত্যু নাকি ‘শান্তির’। নীরবে চলে যাওয়া যায়। তবে এই ধারণা কিন্তু একদমই সঠিক নয়। তবে কিছু কারণ আছে, ঘুমের মধ্যে মৃত্যু ঘটার। চলুন তা জেনে নেই-

অনেক সময় দেহের মাত্রাতিরিক্ত ওজন, শ্বাসযন্ত্রের সমস্যা, ঠান্ডা লেগে নাক বন্ধ হয়ে যাওয়াসহ অন্যান্য কিছু কারণে নাক ডাকা সমস্যা দেখা দিতে পারে। এছাড়া স্লিপ অ্যাপনিয়ার কারণেও নাক ডাকার সমস্যা হতে পারে। তবে জানলে অবাক হবেন, এর ফলে হঠাৎ অকাল মৃত্যু ঘটতে পারে।

একটি গবেষণায় দেখা গেছে, স্লিপ ডিসঅর্ডারের ফলে হৃদপিণ্ডের ডান এবং বাম দিকের ভেন্ট্রিকুলারের মারাত্মক ক্ষতি হয়। সম্প্রতি করা আরও একটি গবেষণায় উঠে এসেছে, শুধু যুক্তরাষ্ট্রেরই প্রায় ৩ কোটি মানুষ স্লিপ অ্যাপনিয়ায় আক্রান্ত।

এছাড়াও ঘুমের মধ্যে মৃত্যু অনেক কারণেই হতে পারে। যেমন, হৃগরোগে আক্রান্ত হয়ে, দম আটকে যাওয়ার ফলে। এছাড়া স্ট্রোক ও ঘুমের মধ্যে বাজে স্বপ্ন দেখলেও মৃত্যু হয়। ঘরে কার্বন মনোক্সাইডের প্রভাবেও অনেক সময় ঘুমের মধ্যে মৃত্যু হতে পারে। আর এই ধরণের কোনো সমস্যা থাকলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।