রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২৩ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

মোদি ভারতের অর্থনীতিকে ধ্বংস’র দ্বারপ্রান্তে নিয়ে গেছেন: রাহুল গান্ধী

সাজ্জাদুল ইসলাম সৌরভ :=

ভারতের প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেসের নেতা রাহুল গান্ধী বলেছেন, দেশের অর্থনীতি রসাতলে গেল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির হঠকারী সব সিদ্ধান্তের কারণে। কিন্তু এ ব্যাপারে তিনি একেবারেই নির্বিকার! মহারাষ্ট্রে বিধানসভা নির্বাচন উপলক্ষে রোববার লাতুরে দলীয় এক সমাবেশে তিনি ওই মন্তব্য করেন। খবর এনডিটিভির।

মোদির নেতৃত্বাধীন কেন্দ্রীয় সরকারের তীব্র সমালোচনা করে রাহুল গান্ধী বলেন, দেশে বেকারত্ব বাড়ছে। অর্থনীতি অতল গহ্বরে চলে গেছে। কিন্তু প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে কোনো বিবৃতি আসে না! দেশের কৃষকদের অবস্থা অত্যন্ত খারাপ। যুবকদের কী কর্মসংস্থান হচ্ছে? কৃষকরা কী ফসলের সঠিক দাম পাচ্ছেন? ঋণ মাফ হয়েছে?

দেশের পরিস্থিতি খুব খারাপ বলেও রাহুল গান্ধী মন্তব্য করেন। রাহুল বলেন, কংগ্রেস ক্ষমতায় থাকতে মনমোহন সিংজি (কংগ্রেসের সিনিয়র নেতা ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী) দেশের অর্থনীতিকে শক্তিশালী করার জন্য কাজ করেছিলেন কিন্তু এই সরকার অর্থনীতিকে ধ্বংস করে দিয়েছে।

এ কারণেই নির্বাচনে তারা কখনও কাশ্মীর নিয়ে কথা বলবে, কখনও ৩৭০ ধারা নিয়ে কথা বলবে, আবার কখনও চাঁদ নিয়ে কথা বলবে। কিন্তু আসল ইস্যুতে তাদের মুখ থেকে একটি শব্দও বের হবে না।’ রাহুল বলেন, আপনারা কী গণমাধ্যমে কখনও শুনেছেন- মহারাষ্ট্রের কৃষকদের ঋণ মওকুফ করে দেয়া হয়েছে? মোদি ও অমিত শাহের কাজ আসল বিষয়গুলো থেকে করবেট পার্ক, চাঁদ, চীন, জাপান, কোরিয়ার দিকে আপনার দৃষ্টি আকর্ষণ করতে।’

রাহুল বলেন, গত ৪০ বছরের মধ্যে এখন সর্বোচ্চ বেকারত্ব। দুই হাজার কারখানা বন্ধ হয়ে গেছে। অটোমোবাইল সেক্টর ধ্বংস হয়ে গেছে। গুজরাটে হীরে ও বস্ত্রশিল্প শেষ। কিন্তু গণমাধ্যমে এসব নিয়ে একটি কথাও নেই।

আপনার মন্তব্য লিখুন

লেখকের সম্পর্কে

Shahriar Hossain

দীর্ঘ ২৪ বছর পর একই মঞ্চে লতিফ সিদ্দিকী ও কাদের সিদ্দিকী

রাহুল-আথিয়া সাত পাকে বাঁধা পড়লেন

গ্রন্থাগার দিবসের প্রতিপাদ্য ‘স্মার্ট গ্রন্থাগার, স্মার্ট বাংলাদেশ : মতিয়া চৌধুরী

মোদি ভারতের অর্থনীতিকে ধ্বংস’র দ্বারপ্রান্তে নিয়ে গেছেন: রাহুল গান্ধী

প্রকাশের সময় : ১১:০৪:৪৬ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৪ অক্টোবর ২০১৯
সাজ্জাদুল ইসলাম সৌরভ :=

ভারতের প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেসের নেতা রাহুল গান্ধী বলেছেন, দেশের অর্থনীতি রসাতলে গেল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির হঠকারী সব সিদ্ধান্তের কারণে। কিন্তু এ ব্যাপারে তিনি একেবারেই নির্বিকার! মহারাষ্ট্রে বিধানসভা নির্বাচন উপলক্ষে রোববার লাতুরে দলীয় এক সমাবেশে তিনি ওই মন্তব্য করেন। খবর এনডিটিভির।

মোদির নেতৃত্বাধীন কেন্দ্রীয় সরকারের তীব্র সমালোচনা করে রাহুল গান্ধী বলেন, দেশে বেকারত্ব বাড়ছে। অর্থনীতি অতল গহ্বরে চলে গেছে। কিন্তু প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে কোনো বিবৃতি আসে না! দেশের কৃষকদের অবস্থা অত্যন্ত খারাপ। যুবকদের কী কর্মসংস্থান হচ্ছে? কৃষকরা কী ফসলের সঠিক দাম পাচ্ছেন? ঋণ মাফ হয়েছে?

দেশের পরিস্থিতি খুব খারাপ বলেও রাহুল গান্ধী মন্তব্য করেন। রাহুল বলেন, কংগ্রেস ক্ষমতায় থাকতে মনমোহন সিংজি (কংগ্রেসের সিনিয়র নেতা ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী) দেশের অর্থনীতিকে শক্তিশালী করার জন্য কাজ করেছিলেন কিন্তু এই সরকার অর্থনীতিকে ধ্বংস করে দিয়েছে।

এ কারণেই নির্বাচনে তারা কখনও কাশ্মীর নিয়ে কথা বলবে, কখনও ৩৭০ ধারা নিয়ে কথা বলবে, আবার কখনও চাঁদ নিয়ে কথা বলবে। কিন্তু আসল ইস্যুতে তাদের মুখ থেকে একটি শব্দও বের হবে না।’ রাহুল বলেন, আপনারা কী গণমাধ্যমে কখনও শুনেছেন- মহারাষ্ট্রের কৃষকদের ঋণ মওকুফ করে দেয়া হয়েছে? মোদি ও অমিত শাহের কাজ আসল বিষয়গুলো থেকে করবেট পার্ক, চাঁদ, চীন, জাপান, কোরিয়ার দিকে আপনার দৃষ্টি আকর্ষণ করতে।’

রাহুল বলেন, গত ৪০ বছরের মধ্যে এখন সর্বোচ্চ বেকারত্ব। দুই হাজার কারখানা বন্ধ হয়ে গেছে। অটোমোবাইল সেক্টর ধ্বংস হয়ে গেছে। গুজরাটে হীরে ও বস্ত্রশিল্প শেষ। কিন্তু গণমাধ্যমে এসব নিয়ে একটি কথাও নেই।