মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩, ১৭ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

এবার জাপানের প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফর বাতিল

সাজেদুর রহমান :=

নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন নিয়ে চলমান বিক্ষোভের পরিপ্রেক্ষিতে ভারত সফর বাতিল করেছেন জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে। আগামী সপ্তাহে তার ভারত ভ্রমণের কথা ছিল। আজ শুক্রবার এনডিটিভি অনলাইন ও আনন্দবাজার পত্রিকার প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়।ভারতের বিদেশ মন্ত্রকের মুখপাত্র রভীশ কুমার বৃহস্পতিবার (১২ ডিসেম্বর) টুইট পোস্টে জানান, এই সফরের দিনক্ষণ নতুন করে নির্ধারণ করা হবে।

এর আগে ভারত সফর বাতিল করেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আবদুল মোমেন এবং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি বলছে, ১৫ থেকে ১৭ ডিসেম্বর ভারতের প্রধানমন্ত্রী মোদি এবং অ্যাবের মধ্যে সংলাপ অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। একটি জাপানি গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সহিংস আন্দোলনের মধ্যে এই সফর বাতিল করা হয়ে থাকতে পারে।

জাপানের প্রধানমন্ত্রীর সফরসূচি অনুযায়ী আসাম রাজ্যের রাজধানী গুয়াহাটিতে তার ও ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বৈঠক করার কথা।নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন নিয়ে এখন বিক্ষোভে উত্তাল আসাম। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির আশ্বাস ও অন্যান্য কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর অনুরোধ সত্ত্বেও আসামের আগুন জ্বলছে। বিক্ষোভ সামাল দিতে নামানো হয়েছে সেনাবাহিনী। জারি করা হয়েছে কারফিউ। সবকিছু অগ্রাহ্য করে রাজ্যটির শহরে শহরে হাজারো মানুষ রাস্তায় নেমেছেন। আগুন জ্বেলে সড়ক ও রেলপথে অবরোধ সৃষ্টি করা হয়েছে।ক্ষমতাসীন বিজেপির এক এমপির বাড়ি জ্বালিয়ে দেওয়া হয়েছে। ভাঙচুর করা হয়েছে চারটি রেলস্টেশন ও রাষ্ট্রীয় স্বয়ং সেবক সংঘের একটা কার্যালয়। রাজ্যের রাজধানী গুয়াহাটিতে পুলিশের গুলিতে নিহত হয়েছেন অন্তত তিনজন। আহত হয়েছেন আরও কয়েকজন।

আপনার মন্তব্য লিখুন

লেখকের সম্পর্কে

Shahriar Hossain

দীর্ঘ ২৪ বছর পর একই মঞ্চে লতিফ সিদ্দিকী ও কাদের সিদ্দিকী

রাহুল-আথিয়া সাত পাকে বাঁধা পড়লেন

বেনাপোল নোম্যান্সল্যান্ডে বসবে দুই বাংলার ভাষা প্রেমীদের মিলন মেলা -শেখ আফিল উদ্দিন, এমপি

এবার জাপানের প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফর বাতিল

প্রকাশের সময় : ০৭:২৫:৩৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯
সাজেদুর রহমান :=

নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন নিয়ে চলমান বিক্ষোভের পরিপ্রেক্ষিতে ভারত সফর বাতিল করেছেন জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে। আগামী সপ্তাহে তার ভারত ভ্রমণের কথা ছিল। আজ শুক্রবার এনডিটিভি অনলাইন ও আনন্দবাজার পত্রিকার প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়।ভারতের বিদেশ মন্ত্রকের মুখপাত্র রভীশ কুমার বৃহস্পতিবার (১২ ডিসেম্বর) টুইট পোস্টে জানান, এই সফরের দিনক্ষণ নতুন করে নির্ধারণ করা হবে।

এর আগে ভারত সফর বাতিল করেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আবদুল মোমেন এবং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি বলছে, ১৫ থেকে ১৭ ডিসেম্বর ভারতের প্রধানমন্ত্রী মোদি এবং অ্যাবের মধ্যে সংলাপ অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। একটি জাপানি গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সহিংস আন্দোলনের মধ্যে এই সফর বাতিল করা হয়ে থাকতে পারে।

জাপানের প্রধানমন্ত্রীর সফরসূচি অনুযায়ী আসাম রাজ্যের রাজধানী গুয়াহাটিতে তার ও ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বৈঠক করার কথা।নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন নিয়ে এখন বিক্ষোভে উত্তাল আসাম। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির আশ্বাস ও অন্যান্য কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর অনুরোধ সত্ত্বেও আসামের আগুন জ্বলছে। বিক্ষোভ সামাল দিতে নামানো হয়েছে সেনাবাহিনী। জারি করা হয়েছে কারফিউ। সবকিছু অগ্রাহ্য করে রাজ্যটির শহরে শহরে হাজারো মানুষ রাস্তায় নেমেছেন। আগুন জ্বেলে সড়ক ও রেলপথে অবরোধ সৃষ্টি করা হয়েছে।ক্ষমতাসীন বিজেপির এক এমপির বাড়ি জ্বালিয়ে দেওয়া হয়েছে। ভাঙচুর করা হয়েছে চারটি রেলস্টেশন ও রাষ্ট্রীয় স্বয়ং সেবক সংঘের একটা কার্যালয়। রাজ্যের রাজধানী গুয়াহাটিতে পুলিশের গুলিতে নিহত হয়েছেন অন্তত তিনজন। আহত হয়েছেন আরও কয়েকজন।