রবিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৩, ১৬ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

হাতীবান্ধায় নাট বল্টুর জন্য   স্ত্রীকে কোপালো স্বামী

মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তাফা : জেলা প্রতিনিধি লালমনিরহাট:

জেলার  হাতীবান্ধায় খাটের নাট বল্টু হারিয়ে ফেলায় গৃহবধূ শরিফা বেগমকে ধারালো ছুরি দিয়ে মাথায় কুপিয়েছে পাষণ্ড স্বামী নূর হোসেন। ওই গৃহবধূ বর্তমানে হাতীবান্ধা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন।
এ ঘটনায় রবিবার দুপুরে শ্বশুর-শাশুড়ি, স্বামী ও তার দেবরের নাম উল্লেখ করে থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন ওই গৃহবধূ।

এর আগে শুক্রবার বিকেলে উপজেলার দক্ষিণ গোতামারী গ্রামে এই ঘটনাটি ঘটেছে। গৃহবধূ শরিফা বেগম উপজেলার দক্ষিণ গোতামারী গ্রামের নূর হোসেনের স্ত্রী। তিনি উপজেলার উত্তর বিছনদই এলাকার আব্দুর রশিদের কন্যা।

অভিযুক্তরা হলো, উপজেলার দক্ষিণ গোতামারী গ্রামের আবুল হোসেন, তার স্ত্রী মহুরন নেছা, পুত্র নূর হোসেন, নুরুজ্জামান ও নুরুল হক।
অভিযুক্ত নূর হোসেন বলে, ’খাটের নাট-বল্টু হারিয়ে গেছে। সে জন্য গালমন্দ করা হয়েছে। তবে মারধর করা হয়নি। তাকে সামান্য ধাক্কা দিলে খাটে লেগে মাথা ফেটে গেছে। আমরাই তাকে হাসপাতালে ভর্তি করেছি।’
হাতীবান্ধা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) ওমর ফারুক বলেন, ‘লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে। তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

আপনার মন্তব্য লিখুন

লেখকের সম্পর্কে

Shahriar Hossain

দীর্ঘ ২৪ বছর পর একই মঞ্চে লতিফ সিদ্দিকী ও কাদের সিদ্দিকী

রাহুল-আথিয়া সাত পাকে বাঁধা পড়লেন

জাতীর জনক বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন ছিল দেশকে সোনার বাংলা করা -শেখ আফিল উদ্দিন, এমপি

হাতীবান্ধায় নাট বল্টুর জন্য   স্ত্রীকে কোপালো স্বামী

প্রকাশের সময় : ১০:২৪:৪১ অপরাহ্ন, সোমবার, ৩০ ডিসেম্বর ২০১৯
মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তাফা : জেলা প্রতিনিধি লালমনিরহাট:

জেলার  হাতীবান্ধায় খাটের নাট বল্টু হারিয়ে ফেলায় গৃহবধূ শরিফা বেগমকে ধারালো ছুরি দিয়ে মাথায় কুপিয়েছে পাষণ্ড স্বামী নূর হোসেন। ওই গৃহবধূ বর্তমানে হাতীবান্ধা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন।
এ ঘটনায় রবিবার দুপুরে শ্বশুর-শাশুড়ি, স্বামী ও তার দেবরের নাম উল্লেখ করে থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন ওই গৃহবধূ।

এর আগে শুক্রবার বিকেলে উপজেলার দক্ষিণ গোতামারী গ্রামে এই ঘটনাটি ঘটেছে। গৃহবধূ শরিফা বেগম উপজেলার দক্ষিণ গোতামারী গ্রামের নূর হোসেনের স্ত্রী। তিনি উপজেলার উত্তর বিছনদই এলাকার আব্দুর রশিদের কন্যা।

অভিযুক্তরা হলো, উপজেলার দক্ষিণ গোতামারী গ্রামের আবুল হোসেন, তার স্ত্রী মহুরন নেছা, পুত্র নূর হোসেন, নুরুজ্জামান ও নুরুল হক।
অভিযুক্ত নূর হোসেন বলে, ’খাটের নাট-বল্টু হারিয়ে গেছে। সে জন্য গালমন্দ করা হয়েছে। তবে মারধর করা হয়নি। তাকে সামান্য ধাক্কা দিলে খাটে লেগে মাথা ফেটে গেছে। আমরাই তাকে হাসপাতালে ভর্তি করেছি।’
হাতীবান্ধা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) ওমর ফারুক বলেন, ‘লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে। তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।