শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ২৯ চৈত্র ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

গণমাধ্যমের ওপর চটেছেন চিত্রনায়িকা শাবনূর

মশিয়ার রহমান কাজল ।। 

বাংলা চলচ্চিত্রের একসময়ের জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা শাবনূর অস্ট্রেলিয়ায় ঘরবন্দি জীবনযাপন করছেন। ঘরবন্দি থাকার ফলে তার বাসার মজুত রাখা খাবার শেষ হয়েছে, বর্তমানে খাবার সংকটে আছেন তিনি, এমন সংবাদ গণমাধ্যমে আসে। আর এ খবরে বেশ চটেছেন ‘দুই নয়নের আলো’ খ্যাত এ চিত্রনায়িকা। 
অস্ট্রেলিয়া থেকে সময় সংবাদের কাছে প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন শাবনূর। তিনি বলেন, ইউটিউবে মানুষ যা ইচ্ছা করছেন, আর সেটা নিয়েই গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ করা হচ্ছে। আমি বিব্রত, কারণ সংবাদটি করার আগে আমার সাথে যোগাযোগ করা উচিত ছিল। আমাকে না জানিয়ে সংবাদ পরিবেশন করার কোনো মানেই হয় না। যারা এ সংবাদটি করছেন তাদের বোঝা উচিত ছিল যে কি করছি। তথ্য ঠিক আছে কি না? তা যাচাই করা প্রয়োজন ছিল।

শাবনূর বলেন, বর্তমানে অস্ট্রেলিয়াতে মা, ছোটবোন এবং আমার ছেলেসহ সবাই একসঙ্গে আছি। আমরাও একপ্রকার লকডাউনের মধ্যেই আছি। সবাই এক সঙ্গে গল্পগুজব করে দিন কাটাচ্ছি। তাছাড়া সময় পেলে ঘুরেও বেড়াচ্ছি। কয়েকদিন আগেই পরিবারের সকলে মিলেই বাসার কাছেই আপেল বাগান থেকে ঘুরে আসলাম।

দর্শকদের উদ্দেশে শাবনূর বলেন, করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে দেশের জনগণ ও আমার ভক্তদের বলব তারা প্রত্যেকেই যেন সরকারি নিয়ম মেনে চলাচল করি। করোনাভাইরাস ঠেকাতে সামাজিক দূরত্ব বজায় থাকার পাশাপাশি অতি জরুরি প্রয়োজন ছাড়া যেন ঘর থেকে বের না হই। দয়া করে আপনারা ঘরে থাকুন নিরাপদে থাকুন। নিজে নিরাপদে থাকুন, অন্যকে নিরাপদে রাখুন।

আপনার মন্তব্য লিখুন

লেখকের সম্পর্কে

Shahriar Hossain

ব্রায়ান লারার অপরাজিত ৪০০ রানের রেকর্ড, দু’দশক আজ

গণমাধ্যমের ওপর চটেছেন চিত্রনায়িকা শাবনূর

প্রকাশের সময় : ০৭:২৯:০২ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৩ এপ্রিল ২০২০

মশিয়ার রহমান কাজল ।। 

বাংলা চলচ্চিত্রের একসময়ের জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা শাবনূর অস্ট্রেলিয়ায় ঘরবন্দি জীবনযাপন করছেন। ঘরবন্দি থাকার ফলে তার বাসার মজুত রাখা খাবার শেষ হয়েছে, বর্তমানে খাবার সংকটে আছেন তিনি, এমন সংবাদ গণমাধ্যমে আসে। আর এ খবরে বেশ চটেছেন ‘দুই নয়নের আলো’ খ্যাত এ চিত্রনায়িকা। 
অস্ট্রেলিয়া থেকে সময় সংবাদের কাছে প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন শাবনূর। তিনি বলেন, ইউটিউবে মানুষ যা ইচ্ছা করছেন, আর সেটা নিয়েই গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ করা হচ্ছে। আমি বিব্রত, কারণ সংবাদটি করার আগে আমার সাথে যোগাযোগ করা উচিত ছিল। আমাকে না জানিয়ে সংবাদ পরিবেশন করার কোনো মানেই হয় না। যারা এ সংবাদটি করছেন তাদের বোঝা উচিত ছিল যে কি করছি। তথ্য ঠিক আছে কি না? তা যাচাই করা প্রয়োজন ছিল।

শাবনূর বলেন, বর্তমানে অস্ট্রেলিয়াতে মা, ছোটবোন এবং আমার ছেলেসহ সবাই একসঙ্গে আছি। আমরাও একপ্রকার লকডাউনের মধ্যেই আছি। সবাই এক সঙ্গে গল্পগুজব করে দিন কাটাচ্ছি। তাছাড়া সময় পেলে ঘুরেও বেড়াচ্ছি। কয়েকদিন আগেই পরিবারের সকলে মিলেই বাসার কাছেই আপেল বাগান থেকে ঘুরে আসলাম।

দর্শকদের উদ্দেশে শাবনূর বলেন, করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে দেশের জনগণ ও আমার ভক্তদের বলব তারা প্রত্যেকেই যেন সরকারি নিয়ম মেনে চলাচল করি। করোনাভাইরাস ঠেকাতে সামাজিক দূরত্ব বজায় থাকার পাশাপাশি অতি জরুরি প্রয়োজন ছাড়া যেন ঘর থেকে বের না হই। দয়া করে আপনারা ঘরে থাকুন নিরাপদে থাকুন। নিজে নিরাপদে থাকুন, অন্যকে নিরাপদে রাখুন।