শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ৬ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আর্থসামাজিক প্রেক্ষাপটে আগামী ৭ দিন দেশে কি ঘটতে যাচ্ছে ?

সাজ্জাদুল ইসলাম সৌরভ:/=

বাংলাদেশের আর্থসামাজিক প্রেক্ষাপটে আগামী ৭ দিন খুবই গুরুত্বপূর্ণ। বিশেষ করে করোনা সংক্রমণে যখন আতঙ্ক-উৎকণ্ঠা, সেই সময়ে আগামী ৭ দিন কি ঘটতে যাচ্ছে তাঁর উপরে নির্ভর করছে অনেক কিছু বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা। বাংলাদেশের বিশ্বের অন্যতম দেশ যারা করোনার সর্বোচ্চ ঝুঁকির মধ্যে সবকিছু খুলে দিয়েছে এবং করোনা সংক্রমণ যখন সর্বোচ্চ সীমা স্পর্শ করছিল, তখন সীমিত আকারে সবকিছু খুলে দিয়ে অর্থনীতির উপরে গুরুত্ব আরোপ করেছে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা স্পষ্টভাবে বলেছেন যে, যতদিন পর্যন্ত ভ্যাকসিন আবিষ্কার না হবে, ততদিন পর্যন্ত করোনা যাওয়ার নয়। কাজেই করোনার সঙ্গে আমাদের বসবাস করতে হবে এবং সবকিছু দীর্ঘদিন বন্ধ রাখা সম্ভব না। বাংলাদেশের মতো দেশের জন্য তো নয়ই। আর এই বাস্তবতায় আগামী ৭ দিন বাংলাদেশের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা। কী ঘটতে যাচ্ছে আগামী ৭ দিন?

১. কেমন হবে বাজেট?

আগামী ৭ দিনের মধ্যে সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হচ্ছে জাতীয় বাজেট। একটি বাজেট হলো যেকোন দেশের অর্থনীতির অবয়ব, অর্থনীতির আয়না এবং এবারের বাজেট আরো গুরুত্বপূর্ণ এই কারণে যে, এই বাজেট দেওয়া হচ্ছে করোনা সঙ্কট মাথায় রেখে। সরকার প্রধান ভালো করেই জানেন এবং তিনি তাঁর বক্তৃতায় এটা বলেছেন যে, আমাদের অর্থনীতির উপরে একটি বড় চাপ পড়েছে, অর্থনীতির গতি শ্লথ হয়েছে- এই বাস্তবতায় এবারের বাজেট অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এই বাজেটের উপর নির্ভর করছে করোনার অর্থনৈতিক সঙ্কট বাংলাদেশ কিভাবে কাটিয়ে উঠতে পারবে, এই বাজেটে নব্য দরিদ্র হয়ে যাওয়া মানুষদের কিভাবে অন্তর্ভুক্ত করা হবে, অতি দরিদ্র মানুষদের কি হবে এবং কর্মসংস্থানসহ শিল্প-রপ্তানি বাণিজ্যের কি হবে। একইসাথে স্বাস্থ্যক্ষেত্রে কি বরাদ্দ দেওয়া হবে তা গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা। তাই বাজেটটি যদি ভালো হয় এবং বাজেটে যদি অর্থনৈতিক সঙ্কট উত্তরণের পথনির্দেশনা থাকে তাহলে জনগণ যেমন আশ্বস্ত হবে, তেমনি সরকারও পরিস্থিতি মোকাবেলা করতে পারবে বলে মনে করা হচ্ছে।

আপনার মন্তব্য লিখুন

লেখকের সম্পর্কে

Shahriar Hossain

আর্থসামাজিক প্রেক্ষাপটে আগামী ৭ দিন দেশে কি ঘটতে যাচ্ছে ?

প্রকাশের সময় : ০৮:১৭:২৮ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৪ জুন ২০২০

সাজ্জাদুল ইসলাম সৌরভ:/=

বাংলাদেশের আর্থসামাজিক প্রেক্ষাপটে আগামী ৭ দিন খুবই গুরুত্বপূর্ণ। বিশেষ করে করোনা সংক্রমণে যখন আতঙ্ক-উৎকণ্ঠা, সেই সময়ে আগামী ৭ দিন কি ঘটতে যাচ্ছে তাঁর উপরে নির্ভর করছে অনেক কিছু বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা। বাংলাদেশের বিশ্বের অন্যতম দেশ যারা করোনার সর্বোচ্চ ঝুঁকির মধ্যে সবকিছু খুলে দিয়েছে এবং করোনা সংক্রমণ যখন সর্বোচ্চ সীমা স্পর্শ করছিল, তখন সীমিত আকারে সবকিছু খুলে দিয়ে অর্থনীতির উপরে গুরুত্ব আরোপ করেছে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা স্পষ্টভাবে বলেছেন যে, যতদিন পর্যন্ত ভ্যাকসিন আবিষ্কার না হবে, ততদিন পর্যন্ত করোনা যাওয়ার নয়। কাজেই করোনার সঙ্গে আমাদের বসবাস করতে হবে এবং সবকিছু দীর্ঘদিন বন্ধ রাখা সম্ভব না। বাংলাদেশের মতো দেশের জন্য তো নয়ই। আর এই বাস্তবতায় আগামী ৭ দিন বাংলাদেশের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা। কী ঘটতে যাচ্ছে আগামী ৭ দিন?

১. কেমন হবে বাজেট?

আগামী ৭ দিনের মধ্যে সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হচ্ছে জাতীয় বাজেট। একটি বাজেট হলো যেকোন দেশের অর্থনীতির অবয়ব, অর্থনীতির আয়না এবং এবারের বাজেট আরো গুরুত্বপূর্ণ এই কারণে যে, এই বাজেট দেওয়া হচ্ছে করোনা সঙ্কট মাথায় রেখে। সরকার প্রধান ভালো করেই জানেন এবং তিনি তাঁর বক্তৃতায় এটা বলেছেন যে, আমাদের অর্থনীতির উপরে একটি বড় চাপ পড়েছে, অর্থনীতির গতি শ্লথ হয়েছে- এই বাস্তবতায় এবারের বাজেট অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এই বাজেটের উপর নির্ভর করছে করোনার অর্থনৈতিক সঙ্কট বাংলাদেশ কিভাবে কাটিয়ে উঠতে পারবে, এই বাজেটে নব্য দরিদ্র হয়ে যাওয়া মানুষদের কিভাবে অন্তর্ভুক্ত করা হবে, অতি দরিদ্র মানুষদের কি হবে এবং কর্মসংস্থানসহ শিল্প-রপ্তানি বাণিজ্যের কি হবে। একইসাথে স্বাস্থ্যক্ষেত্রে কি বরাদ্দ দেওয়া হবে তা গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা। তাই বাজেটটি যদি ভালো হয় এবং বাজেটে যদি অর্থনৈতিক সঙ্কট উত্তরণের পথনির্দেশনা থাকে তাহলে জনগণ যেমন আশ্বস্ত হবে, তেমনি সরকারও পরিস্থিতি মোকাবেলা করতে পারবে বলে মনে করা হচ্ছে।