সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সুনামগঞ্জের তাহিরপুরে যাদুকাটা নদীর পাড় কেটে বালু উত্তোলন, আটক -১১

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি:/=
সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার বাদাঘাট ইউনিয়নের যাদুকাটা নদী ঘাগটিয়া আদর্শ গ্রামস্থ বর টেকের উত্তর পাশে একটি ভূমিখেকো চক্র পাড় কেটে স্ট্রীলবডি নৌকায় বালু বোঝাই করে নিয়ে যাওয়ার পথে পুলিশের অভিযানে ১১জন চোরা কারবারীসহ ২টি স্ট্রীলবডি নৌকা আটক করা হয়েছে। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ৫/৭জন চোরাকারবারী নদী সাতরিয়ে পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়।
আটককৃতরা হলেন,জেলার বিশ্বম্ভরপুর উপজেলার আমড়িয়া মিয়ারচর গ্রামের মৃত হানিফ মিয়ার ছেলে বিল্লাল মিয়া(২০,একই গ্রামের মৃত ধন মিয়ার ছেলে জুলহাস মিয়া(২২),মুসলিম মিয়ার ছেলে হযরত আলী(২৬),হারুণ মিয়ার ছেলে সাহেল মিয়া(২৬), মৃত নুনু মিয়ার ছেলে ফালান মিয়া(৩২),মুসলিম মিয়ার ছেলে মরম আলী(৪০),হারুণ মিয়ার ছেলে সোহেল মিয়া(২২),মৃমোতালিব মিয়ার ছেলে মোঃ রমজান আলী(৩০),সিরাজপুর বাঘগাওঁ গ্রামের মৃত আব্দুল খালেকের ছেলে মোঃ নুরুজ্জামান(৩২),ফালান মিয়ার ছেলে সেলিম হাসান জনি,লামাশ্রম গ্রামের আমীর আলীর ছেলে মোঃ মোক্তার হোসেন(২২),তাহিরপুর উপজেলার বিন্নাকুলি গ্রামের মৃত সোনা মিয়ার ছেলে মোঃ শাহাব উদ্দিন(৩০) প্রমুখ।
বুধবার ভোররাতে তাহিরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আতিকুল ইসলামের নেতৃত্বে এস আই দিপংঙ্কর বিশ্বাস,এস আই জহর লাল দত্ত,এস আই বিল্লাল হোসেন ,সুমন মজুমদার,মতিউর ও বিধান সহ পুলিশের একটি দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে যাদুকাটা নদীতে অভিযান চালিয়ে নদীর পাড় কাটা ভূমিখেকো চক্রের ১১জন সদস্যসহ ২টি বালু বোঝাই স্ট্রীলবডি নৌকা আটক করে।
এ ঘটনায় সকালে থানার এস আই দিপংঙ্কর বিশ্বাস বাদি হয়ে আটককৃত ১১জনসহ আরো অজ্ঞাতনামা ৮/১০কে আসামী করে তাহিরপুর থানায় একটি জিডি এন্ট্রি করা হয়। জিডি নং ৩০৬।
এ ব্যাপারে তাহিরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আতিকুল ইসলাম আটকের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান,আইন শৃংখলা বাহিনীর চোখ ফাকিঁ দিয়ে কেহ যদি নদীর পাড় কেটে বালু উত্তোলনের মাধ্যমে গ্রামের পর গ্রামকে হুমকির মুখে পেলে দিতে চায় তাদের বিরুদ্ধে পুলিশী অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে ও তিনি জানান।

আপনার মন্তব্য লিখুন

লেখকের সম্পর্কে

Shahriar Hossain

বিএনপির নেতাকর্মীদের কারাগারে প্রেরণ সরকারের প্রধান কর্মসূচি -মির্জা ফখরুল

সুনামগঞ্জের তাহিরপুরে যাদুকাটা নদীর পাড় কেটে বালু উত্তোলন, আটক -১১

প্রকাশের সময় : ০৭:২১:০৭ অপরাহ্ন, বুধবার, ১০ জুন ২০২০
সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি:/=
সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার বাদাঘাট ইউনিয়নের যাদুকাটা নদী ঘাগটিয়া আদর্শ গ্রামস্থ বর টেকের উত্তর পাশে একটি ভূমিখেকো চক্র পাড় কেটে স্ট্রীলবডি নৌকায় বালু বোঝাই করে নিয়ে যাওয়ার পথে পুলিশের অভিযানে ১১জন চোরা কারবারীসহ ২টি স্ট্রীলবডি নৌকা আটক করা হয়েছে। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ৫/৭জন চোরাকারবারী নদী সাতরিয়ে পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়।
আটককৃতরা হলেন,জেলার বিশ্বম্ভরপুর উপজেলার আমড়িয়া মিয়ারচর গ্রামের মৃত হানিফ মিয়ার ছেলে বিল্লাল মিয়া(২০,একই গ্রামের মৃত ধন মিয়ার ছেলে জুলহাস মিয়া(২২),মুসলিম মিয়ার ছেলে হযরত আলী(২৬),হারুণ মিয়ার ছেলে সাহেল মিয়া(২৬), মৃত নুনু মিয়ার ছেলে ফালান মিয়া(৩২),মুসলিম মিয়ার ছেলে মরম আলী(৪০),হারুণ মিয়ার ছেলে সোহেল মিয়া(২২),মৃমোতালিব মিয়ার ছেলে মোঃ রমজান আলী(৩০),সিরাজপুর বাঘগাওঁ গ্রামের মৃত আব্দুল খালেকের ছেলে মোঃ নুরুজ্জামান(৩২),ফালান মিয়ার ছেলে সেলিম হাসান জনি,লামাশ্রম গ্রামের আমীর আলীর ছেলে মোঃ মোক্তার হোসেন(২২),তাহিরপুর উপজেলার বিন্নাকুলি গ্রামের মৃত সোনা মিয়ার ছেলে মোঃ শাহাব উদ্দিন(৩০) প্রমুখ।
বুধবার ভোররাতে তাহিরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আতিকুল ইসলামের নেতৃত্বে এস আই দিপংঙ্কর বিশ্বাস,এস আই জহর লাল দত্ত,এস আই বিল্লাল হোসেন ,সুমন মজুমদার,মতিউর ও বিধান সহ পুলিশের একটি দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে যাদুকাটা নদীতে অভিযান চালিয়ে নদীর পাড় কাটা ভূমিখেকো চক্রের ১১জন সদস্যসহ ২টি বালু বোঝাই স্ট্রীলবডি নৌকা আটক করে।
এ ঘটনায় সকালে থানার এস আই দিপংঙ্কর বিশ্বাস বাদি হয়ে আটককৃত ১১জনসহ আরো অজ্ঞাতনামা ৮/১০কে আসামী করে তাহিরপুর থানায় একটি জিডি এন্ট্রি করা হয়। জিডি নং ৩০৬।
এ ব্যাপারে তাহিরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আতিকুল ইসলাম আটকের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান,আইন শৃংখলা বাহিনীর চোখ ফাকিঁ দিয়ে কেহ যদি নদীর পাড় কেটে বালু উত্তোলনের মাধ্যমে গ্রামের পর গ্রামকে হুমকির মুখে পেলে দিতে চায় তাদের বিরুদ্ধে পুলিশী অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে ও তিনি জানান।