রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪, ১ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মঙ্গলগ্রহে বরফের গর্ত, পানি ও প্রাণের অস্তিত্বের সুখবর বিজ্ঞানীদের

প্রফেসর জিন্নাত আলী:/=

মহাকাশ গবেষকরা জোর কদমে পৃথিবীর বাইরে প্রাণের খোঁজ চালিয়ে যাচ্ছেন। ২০২০ সালটা পৃথিবীবাসীর কাছে বড়ই কষ্টকর। তারই মধ্যে ভিনগ্রহে প্রাণের সন্ধানে নতুন সভ্যতার তত্ত্বের খোঁজ। এই সম্মিলিত গবেষণায় মিলল একটি সুখবর। খবরটি একটি ভিডিওকে ঘিরে।

ভিডিওটি প্রকাশ করেছে ইউরোপিয়ান স্পেস এজেন্সি। যা মঙ্গল গ্রহে প্রাণের সম্ভাবনাকে আরো উজ্জ্বল করছে। ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে, মঙ্গলগ্রহে একটি বরফের হ্রদ। লালগ্রহে ওই বরফ-হ্রদই ফের প্রাণের আশা জাগাচ্ছে। গবেষকদের আশা, জলের উত্স রয়েছে মঙ্গলগ্রহে।

ইএসএ’র মার্স এক্সপ্রেস এই ছবিটি তুলেছে। ৮২ কিমি প্রস্থ ও ১.৮ কিমি গভীর ওই গর্ত আসলে নন-পোলার বরফের বিরাট একটি রিজার্ভয়ার বা আধার। ইউরোপিয়ান স্পেস এজেন্সি জানাচ্ছে, এর আগের বিভিন্ন গবেষণায় মঙ্গলগ্রহের কোনও কোনও জায়গায় হঠাৎ জল প্রবাহের ইঙ্গিত পাওয়া গেলেও এই প্রথম সেখানে স্থায়ী জলাধারের অস্তিত্ব পাওয়ার কথা বলা হচ্ছে।

বাতাসের ঘনত্ব কম হওয়ার কারণে ঠান্ডায় জলাধারটি বরফের নীচে আটকা পড়েছে বলে মনে করছেন বিজ্ঞানীরা। মার্স এক্সপ্রেস নামে যে মহাকাশযান মঙ্গলের কক্ষপথে আবর্তন করছে, তার ভেতরে মারসিস নামে একটি রেডার মঙ্গলের ওই বরফ-আধারের ভিডিও ধারণ করে…

আপনার মন্তব্য লিখুন

লেখকের সম্পর্কে

Shahriar Hossain

বিএনপি সাম্প্রদায়িকতার বিশ্বস্ত ঠিকানা, জঙ্গিবাদের পৃষ্ঠপোষক–সেতুমন্ত্রী 

মঙ্গলগ্রহে বরফের গর্ত, পানি ও প্রাণের অস্তিত্বের সুখবর বিজ্ঞানীদের

প্রকাশের সময় : ০৭:৩৪:৩৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৭ জুলাই ২০২০

প্রফেসর জিন্নাত আলী:/=

মহাকাশ গবেষকরা জোর কদমে পৃথিবীর বাইরে প্রাণের খোঁজ চালিয়ে যাচ্ছেন। ২০২০ সালটা পৃথিবীবাসীর কাছে বড়ই কষ্টকর। তারই মধ্যে ভিনগ্রহে প্রাণের সন্ধানে নতুন সভ্যতার তত্ত্বের খোঁজ। এই সম্মিলিত গবেষণায় মিলল একটি সুখবর। খবরটি একটি ভিডিওকে ঘিরে।

ভিডিওটি প্রকাশ করেছে ইউরোপিয়ান স্পেস এজেন্সি। যা মঙ্গল গ্রহে প্রাণের সম্ভাবনাকে আরো উজ্জ্বল করছে। ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে, মঙ্গলগ্রহে একটি বরফের হ্রদ। লালগ্রহে ওই বরফ-হ্রদই ফের প্রাণের আশা জাগাচ্ছে। গবেষকদের আশা, জলের উত্স রয়েছে মঙ্গলগ্রহে।

ইএসএ’র মার্স এক্সপ্রেস এই ছবিটি তুলেছে। ৮২ কিমি প্রস্থ ও ১.৮ কিমি গভীর ওই গর্ত আসলে নন-পোলার বরফের বিরাট একটি রিজার্ভয়ার বা আধার। ইউরোপিয়ান স্পেস এজেন্সি জানাচ্ছে, এর আগের বিভিন্ন গবেষণায় মঙ্গলগ্রহের কোনও কোনও জায়গায় হঠাৎ জল প্রবাহের ইঙ্গিত পাওয়া গেলেও এই প্রথম সেখানে স্থায়ী জলাধারের অস্তিত্ব পাওয়ার কথা বলা হচ্ছে।

বাতাসের ঘনত্ব কম হওয়ার কারণে ঠান্ডায় জলাধারটি বরফের নীচে আটকা পড়েছে বলে মনে করছেন বিজ্ঞানীরা। মার্স এক্সপ্রেস নামে যে মহাকাশযান মঙ্গলের কক্ষপথে আবর্তন করছে, তার ভেতরে মারসিস নামে একটি রেডার মঙ্গলের ওই বরফ-আধারের ভিডিও ধারণ করে…