রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৩ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ধাওয়া করে ট্রাক আটক : টায়ারে পাওয়া গেল ফেনসিডিল !

যশোর ব্যুরো #

সোমবার রাত আনুমানিক ১২টা।  যশোর-বেনাপোল সড়কের গাজীর দরগাহ এলাকায় চেকপোস্ট বসায় যশোর ডিবি পুলিশের একটি টিম। রাত পৌনে ১টার দিকে সেখানে একটি ট্রাককে দাঁড়ানোর জন্য সিগন্যাল দেয় পুলিশ। কিন্তু সেই নির্দেশ উপেক্ষা করে চালক আরও  দ্রুত গতিতে ট্রাকটি চালিয়ে পালাবার চেষ্টা করেন। পুলিশ সদস্যরাও ছাড়ার পাত্র নন। তারা  ধাওয়া করেন ট্রাকটিকে।

একপর্যায়ে যশোর-ঝিনাইদহ সড়কের নতুন খয়েরতলা এলাকায় গিয়ে রাস্তায় ব্যারিকেট দিয়ে তারা ধরে ফেলেন ট্রাকসহ চালককে। যার নাম আজিজুর রহমান। এরপরই জানাযায় কেন তিনি  পুলিশের সিগন্যাল উপেক্ষা করে দ্রুত গতিতে পালানোর চেষ্টা করেন। আজিজ নিজেই স্বীকার করেন তার ট্রাকে ফেনসিডিল আছে। তারপর পুলিশ তার দেখানো স্থান থেকেই উদ্ধার করে ২৯৩ বোতল ফেনসিডিল। যা কিনা রাখা হয়েছিল ট্রাকের অতিরিক্ত টায়ারের ভেতরে বিশেষ কায়দায়।

আজ দুপুরে নিজ কার্যালয়ে এক ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান যশোরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সালাউদ্দিন শিকদার। তিনি বলেন, তারা গোপনে সংবাদ পান একটি ট্রাকে করে ফেনসিডিল পাচার করা হবে। এরপর  রাত ১২টার দিকে যশোর-বেনাপোল সড়কের গাজীর দরগাহ এলাকায় চেকপোস্ট বসায় ডিবি পুলিশের একটি টিম। রাত পৌনে একটার দিকে একটি ট্রাককে দাঁড়ানোর সিগন্যাল দিলে চালক দ্রুতগতিতে পালানোর চেষ্টা করেন। করেন তার শেষ রক্ষা হয়নি। তাকে আটক করা হয়।
আটক আজিজুর রহমান বেনাপোলের সাদীপুর গ্রামের মৃত নূর ইসলামের ছেলে। এ ঘটনায় দুই জনকে আসামি করে কোতোয়ালি থানায় মামলা করা হয়েছে।

আপনার মন্তব্য লিখুন

লেখকের সম্পর্কে

Shahriar Hossain

ধাওয়া করে ট্রাক আটক : টায়ারে পাওয়া গেল ফেনসিডিল !

প্রকাশের সময় : ১১:৩৪:১৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২০

যশোর ব্যুরো #

সোমবার রাত আনুমানিক ১২টা।  যশোর-বেনাপোল সড়কের গাজীর দরগাহ এলাকায় চেকপোস্ট বসায় যশোর ডিবি পুলিশের একটি টিম। রাত পৌনে ১টার দিকে সেখানে একটি ট্রাককে দাঁড়ানোর জন্য সিগন্যাল দেয় পুলিশ। কিন্তু সেই নির্দেশ উপেক্ষা করে চালক আরও  দ্রুত গতিতে ট্রাকটি চালিয়ে পালাবার চেষ্টা করেন। পুলিশ সদস্যরাও ছাড়ার পাত্র নন। তারা  ধাওয়া করেন ট্রাকটিকে।

একপর্যায়ে যশোর-ঝিনাইদহ সড়কের নতুন খয়েরতলা এলাকায় গিয়ে রাস্তায় ব্যারিকেট দিয়ে তারা ধরে ফেলেন ট্রাকসহ চালককে। যার নাম আজিজুর রহমান। এরপরই জানাযায় কেন তিনি  পুলিশের সিগন্যাল উপেক্ষা করে দ্রুত গতিতে পালানোর চেষ্টা করেন। আজিজ নিজেই স্বীকার করেন তার ট্রাকে ফেনসিডিল আছে। তারপর পুলিশ তার দেখানো স্থান থেকেই উদ্ধার করে ২৯৩ বোতল ফেনসিডিল। যা কিনা রাখা হয়েছিল ট্রাকের অতিরিক্ত টায়ারের ভেতরে বিশেষ কায়দায়।

আজ দুপুরে নিজ কার্যালয়ে এক ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান যশোরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সালাউদ্দিন শিকদার। তিনি বলেন, তারা গোপনে সংবাদ পান একটি ট্রাকে করে ফেনসিডিল পাচার করা হবে। এরপর  রাত ১২টার দিকে যশোর-বেনাপোল সড়কের গাজীর দরগাহ এলাকায় চেকপোস্ট বসায় ডিবি পুলিশের একটি টিম। রাত পৌনে একটার দিকে একটি ট্রাককে দাঁড়ানোর সিগন্যাল দিলে চালক দ্রুতগতিতে পালানোর চেষ্টা করেন। করেন তার শেষ রক্ষা হয়নি। তাকে আটক করা হয়।
আটক আজিজুর রহমান বেনাপোলের সাদীপুর গ্রামের মৃত নূর ইসলামের ছেলে। এ ঘটনায় দুই জনকে আসামি করে কোতোয়ালি থানায় মামলা করা হয়েছে।