মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩, ১৭ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

গুঞ্জন টলিউডে,যশের প্রেমে নুসরাত

সেলিম হোসেন আশা ##

কলকাতার সাংসদ নুসরাত জাহান তার এক সহশিল্পীর প্রেমে পড়েছেন বলে গুঞ্জন ছড়িয়েছে। সেই সহশিল্পীর নাম যশ দাশগুপ্ত। একসঙ্গে ছবিতে কাজ করেছেন। সেখান থেকেই একে অপরের প্রেমে পড়েন তারা। এমনটাই গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে। তবে দুজনের কেউ আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দেননি। নায়িকা হওয়ার পাশাপাশি নুসরাত তৃণমূলের সাংসদও বটে। নায়িকা নুসরাতের ব্যক্তিগত জীবনের রদবদল তার রাজনৈতিক ভাবমূর্তিকে ক্ষুণ্ণ করতে পারে- এই আশঙ্কা তাকে আরও সাবধানী করে তুলেছে বলে মনে করছেন টলিপাড়ার অনেকে। তাদের মতে, ২০২১-এর বিধানসভা ভোটের আগে তাই সম্পর্কের কথা প্রকাশ্যে আনতে দ্বিধাগ্রস্ত নুসরাত।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ‘নিয়ম না মানা’-র কথা বলেও তাই প্রকাশ্যে সে পথে হাঁটতে পিছপা অভিনেত্রী। আবার যশও ফোন ধরছেন না। ফলে সম্প্রতি গুঞ্জন আরও বেড়েছে। শোনা যাচ্ছে ‘এসওএস কলকাতা’র শ্যুটিং থেকেই অনস্ক্রিন নায়কের প্রেমে পড়েন নুসরাত। অতঃপর দু’জনে একসঙ্গে সময় কাটাতে শুরু করেন। রাজস্থানে একসঙ্গে ছুটি কাটাতে যাওয়ার খবর রটলে সেই গুঞ্জন নিশ্চিত খবরে পরিণত হয়।

ইনস্টাগ্রাম বলছে, এই মুহূর্তে নুসরাত রাজস্থানে। অন্যদিকে, যশের প্রোফাইল ‘স্টক’ করলে দেখা যাচ্ছে, ধূ-ধূ মরুপ্রান্তরের পটভূমিকায় বেশ কয়েকটি ছবি শেয়ার করেছেন তিনি। তবে নুসরাতের মতো নিজের কোনও পোস্টেই ‘চেক ইন’ দেননি নায়ক। তা হলে কি আপাতত সম্পর্কের কথা গোপন রাখতে চাইছেন তিনি? যদিও দু’য়ে-দু’য়ে চার করলে বাকি অঙ্কটা বুঝে নিতে অসুবিধা হচ্ছে না টলিউডের। সোশ্যাল মিডিয়াতেও নেটাগরিকদের নজর এড়িয়ে যায়নি নায়ক-নায়িকার ‘পিডিএ’।

গত ১৯ ডিসেম্বর নুসরাতের একটি ভিডিয়োতে ‘ইঙ্গিতপূর্ণ’ কমেন্ট করেছেন যশ। আমেরিকান গায়িকা রেচেল প্লাটেনের ‘ইফ ইওর উইংস আর ব্রোকেন’ গানের দু’টি লাইন উদ্ধৃত করে নুসরাতকে বুঝিয়ে দেন, সব পরিস্থিতিতেই নায়ককে পাশে পাবেন নায়িকা। চুপ করে থাকতে পারেননি নুসরাতও। সেই একই গানের একটি লাইনের মাধ্যমে উত্তর দিয়েছেন নুসরাত। যার সারমর্ম, ‘স্বর্গের ঠিকানা তুমি যদি না খুঁজে পাও, তোমার সঙ্গে নরকে যেতেও রাজি’। তাদের এই কমেন্ট-কমেন্ট খেলায় অন্য গন্ধ খুঁজে পাচ্ছেন নুসরাতের ‘বোনুয়া’ মিমি চক্রবর্তী। জুড়িকে প্রশ্ন করেছেন, দু’জনের মধ্যে এমন রসায়ন কীভাবে তৈরি হল? প্রত্যুত্তরে যশ লিখেছেন, তিনি এবং নুসরাত আসলে ‘ম্যাচ মেড ইন হেল’।

নুসরাতের ইনস্টা-প্রোফাইল খুঁটিয়ে দেখলেই বোঝা যায় তার জীবনের আচমকা পরিবর্তিত লেখচিত্র। বিবাহ-পরবর্তী সময় থেকে স্বামী নিখিল জৈনের সঙ্গে ঘন ঘন ছবি শেয়ার করে তার প্রতি অগাধ ভালবাসা বোঝাতেন নুসরাত। ২০১৯-এর ১৯ জুন বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হওয়ার পর থেকে প্রায় প্রত্যেক মাসে নিখিলের সঙ্গে একাধিক ছবি পোস্ট করতেন নুসরাত। গত বছরের জুন থেকে নুসরাত স্বামীর সঙ্গে খুব একটা ছবি আপলোড করেননি । ২০২০ সালের ৩ আগস্ট নুসরাতের প্রোফাইলে শেষ দেখা মিলেছে নিখিলের। নুসরাতের ইনস্টাগ্রাম প্রায় ছ’মাস ধরে নিখিল-হীন থাকলেও নিখিলের সোশ্যাল কিন্তু অন্য গল্প বলছে।

নুসরাতের সঙ্গে তার শেষ পোস্ট গত ২০ নভেম্বর। যা দেখেশুনে টলিপাড়ার অভিজ্ঞরা বলছেন, সম্পর্কের বাঁধন আলগা হলেও পুরোপুরি ছিঁড়ে যায়নি। নিখিলের আপাত গতিবিধি অন্তত তেমনটাই বলছে। ঘটনাচক্রে, ৮ জানুয়ারি নুসরাতের জন্মদিন। বিশেষ দিনে কি বিশেষ মানুষের আরও কাছাকাছি হবেন নুসরাত? নিখিল-যশ-নুসরতের ত্রিকোণ কাহিনি কি নতুন কোনও মোড় নেবে?

আপনার মন্তব্য লিখুন

লেখকের সম্পর্কে

Shahriar Hossain

দীর্ঘ ২৪ বছর পর একই মঞ্চে লতিফ সিদ্দিকী ও কাদের সিদ্দিকী

রাহুল-আথিয়া সাত পাকে বাঁধা পড়লেন

বেনাপোল নোম্যান্সল্যান্ডে বসবে দুই বাংলার ভাষা প্রেমীদের মিলন মেলা -শেখ আফিল উদ্দিন, এমপি

গুঞ্জন টলিউডে,যশের প্রেমে নুসরাত

প্রকাশের সময় : ০৭:৪৩:০২ অপরাহ্ন, বুধবার, ৬ জানুয়ারী ২০২১

সেলিম হোসেন আশা ##

কলকাতার সাংসদ নুসরাত জাহান তার এক সহশিল্পীর প্রেমে পড়েছেন বলে গুঞ্জন ছড়িয়েছে। সেই সহশিল্পীর নাম যশ দাশগুপ্ত। একসঙ্গে ছবিতে কাজ করেছেন। সেখান থেকেই একে অপরের প্রেমে পড়েন তারা। এমনটাই গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে। তবে দুজনের কেউ আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দেননি। নায়িকা হওয়ার পাশাপাশি নুসরাত তৃণমূলের সাংসদও বটে। নায়িকা নুসরাতের ব্যক্তিগত জীবনের রদবদল তার রাজনৈতিক ভাবমূর্তিকে ক্ষুণ্ণ করতে পারে- এই আশঙ্কা তাকে আরও সাবধানী করে তুলেছে বলে মনে করছেন টলিপাড়ার অনেকে। তাদের মতে, ২০২১-এর বিধানসভা ভোটের আগে তাই সম্পর্কের কথা প্রকাশ্যে আনতে দ্বিধাগ্রস্ত নুসরাত।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ‘নিয়ম না মানা’-র কথা বলেও তাই প্রকাশ্যে সে পথে হাঁটতে পিছপা অভিনেত্রী। আবার যশও ফোন ধরছেন না। ফলে সম্প্রতি গুঞ্জন আরও বেড়েছে। শোনা যাচ্ছে ‘এসওএস কলকাতা’র শ্যুটিং থেকেই অনস্ক্রিন নায়কের প্রেমে পড়েন নুসরাত। অতঃপর দু’জনে একসঙ্গে সময় কাটাতে শুরু করেন। রাজস্থানে একসঙ্গে ছুটি কাটাতে যাওয়ার খবর রটলে সেই গুঞ্জন নিশ্চিত খবরে পরিণত হয়।

ইনস্টাগ্রাম বলছে, এই মুহূর্তে নুসরাত রাজস্থানে। অন্যদিকে, যশের প্রোফাইল ‘স্টক’ করলে দেখা যাচ্ছে, ধূ-ধূ মরুপ্রান্তরের পটভূমিকায় বেশ কয়েকটি ছবি শেয়ার করেছেন তিনি। তবে নুসরাতের মতো নিজের কোনও পোস্টেই ‘চেক ইন’ দেননি নায়ক। তা হলে কি আপাতত সম্পর্কের কথা গোপন রাখতে চাইছেন তিনি? যদিও দু’য়ে-দু’য়ে চার করলে বাকি অঙ্কটা বুঝে নিতে অসুবিধা হচ্ছে না টলিউডের। সোশ্যাল মিডিয়াতেও নেটাগরিকদের নজর এড়িয়ে যায়নি নায়ক-নায়িকার ‘পিডিএ’।

গত ১৯ ডিসেম্বর নুসরাতের একটি ভিডিয়োতে ‘ইঙ্গিতপূর্ণ’ কমেন্ট করেছেন যশ। আমেরিকান গায়িকা রেচেল প্লাটেনের ‘ইফ ইওর উইংস আর ব্রোকেন’ গানের দু’টি লাইন উদ্ধৃত করে নুসরাতকে বুঝিয়ে দেন, সব পরিস্থিতিতেই নায়ককে পাশে পাবেন নায়িকা। চুপ করে থাকতে পারেননি নুসরাতও। সেই একই গানের একটি লাইনের মাধ্যমে উত্তর দিয়েছেন নুসরাত। যার সারমর্ম, ‘স্বর্গের ঠিকানা তুমি যদি না খুঁজে পাও, তোমার সঙ্গে নরকে যেতেও রাজি’। তাদের এই কমেন্ট-কমেন্ট খেলায় অন্য গন্ধ খুঁজে পাচ্ছেন নুসরাতের ‘বোনুয়া’ মিমি চক্রবর্তী। জুড়িকে প্রশ্ন করেছেন, দু’জনের মধ্যে এমন রসায়ন কীভাবে তৈরি হল? প্রত্যুত্তরে যশ লিখেছেন, তিনি এবং নুসরাত আসলে ‘ম্যাচ মেড ইন হেল’।

নুসরাতের ইনস্টা-প্রোফাইল খুঁটিয়ে দেখলেই বোঝা যায় তার জীবনের আচমকা পরিবর্তিত লেখচিত্র। বিবাহ-পরবর্তী সময় থেকে স্বামী নিখিল জৈনের সঙ্গে ঘন ঘন ছবি শেয়ার করে তার প্রতি অগাধ ভালবাসা বোঝাতেন নুসরাত। ২০১৯-এর ১৯ জুন বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হওয়ার পর থেকে প্রায় প্রত্যেক মাসে নিখিলের সঙ্গে একাধিক ছবি পোস্ট করতেন নুসরাত। গত বছরের জুন থেকে নুসরাত স্বামীর সঙ্গে খুব একটা ছবি আপলোড করেননি । ২০২০ সালের ৩ আগস্ট নুসরাতের প্রোফাইলে শেষ দেখা মিলেছে নিখিলের। নুসরাতের ইনস্টাগ্রাম প্রায় ছ’মাস ধরে নিখিল-হীন থাকলেও নিখিলের সোশ্যাল কিন্তু অন্য গল্প বলছে।

নুসরাতের সঙ্গে তার শেষ পোস্ট গত ২০ নভেম্বর। যা দেখেশুনে টলিপাড়ার অভিজ্ঞরা বলছেন, সম্পর্কের বাঁধন আলগা হলেও পুরোপুরি ছিঁড়ে যায়নি। নিখিলের আপাত গতিবিধি অন্তত তেমনটাই বলছে। ঘটনাচক্রে, ৮ জানুয়ারি নুসরাতের জন্মদিন। বিশেষ দিনে কি বিশেষ মানুষের আরও কাছাকাছি হবেন নুসরাত? নিখিল-যশ-নুসরতের ত্রিকোণ কাহিনি কি নতুন কোনও মোড় নেবে?