বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৬ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

মার্কিন বাহিনীতে বাড়ছে আত্মহত্যা , উদ্বেগে পেন্টাগন

বিদেশ ডেস্ক।। মার্কিন বাহিনীতে কর্মরত সেনা সদস্যদের আত্মহত্যার পরিমাণ উদ্বেগজনক হারে বাড়ছে। সোমবার আলাস্কার ইয়েলসন বিমান ঘাঁটি পরিদর্শনের সময় এনিয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম গার্ডিয়ানের প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।
মার্কিন প্রতিরক্ষা দফতর পেন্টাগনের হিসেব অনুযায়ী ২০২০ সালে সামরিক বাহিনীতে কর্মরত অবস্থায় ৩৮৫ জন সেনা সদস্য আত্মহত্যা করেছেন। ২০১৮ সালে এই পরিমাণ ছিলো ৩২৬ জন। গত ৩০ ডিসেম্বর থেকে এই পর্যন্ত আলাস্কায় আত্মহত্যা করেছেন ছয় জন।
সোমবার আলাস্কা সফরে গিয়ে প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন বলেন, ‘কেবল এখানে নয় বরং পুরো বাহিনীতে আত্মহত্যার হারে আমি গভীরভাবে উদ্বিগ্ন।’ তিনি বলেন, ‘আত্মহত্যায় একটা প্রাণ হারানোয় অনেক ক্ষতি। এই সমস্যা মোকাবিলায় আমরা কঠোর পরিশ্রম করছি, আরও অনেক কিছুই করতে হবে।’
মার্কিন প্রতিরক্ষা দফতরের তথ্য অনুযায়ী, সেনা সদস্যদের আত্মহত্যার নেপথ্যে চাপের অনেকগুলো ফ্যাক্টর কাজ করে থাকে। অন্যান্য ফ্যাক্টরের মধ্যে সামরিক বাহিনীতে অনিশ্চিত জীবন, চীনা প্রভাব মোকাবিলায় কমান্ডারদের অতিরিক্ত সেনা চাইতে থাকাও রয়েছে।
আলাস্কায় মোতায়েন করা মার্কিন সেনারা কঠিন আবহাওয়া, ভূতাত্ত্বিক অবস্থান এবং সামাজিক বিচ্ছিন্নতার মধ্যে থাকেন। এছাড়া প্রতিনিয়ত প্রশিক্ষণ এবং স্থান পরিবর্তনের মধ্য দিয়ে যেতে হয় তাদের। এছাড়া যেসব সেনা সদস্য সাধারণ মানুষের বসবাসের এলাকায় থাকেন তাদেরও জীবন যাত্রায় ব্যয় অনেক বেশি।
মার্কিন বাহিনীর আলাস্কা কমান্ডার মেজর জেনারেল পিটার অ্যান্ড্রিসিয়াক জানিয়েছেন, তাদের বাহিনীতে কিছু পরিবর্তন আনা ইতোমধ্যে শুরু হয়েছে। এসব পরিবর্তনের মধ্যে রয়েছে শীতের মৌসুমে সেনা সদস্যদের পরিবহন আরও বেশি সহজ করাসহ নানা পদক্ষেপ।

মার্কিন বাহিনীতে বাড়ছে আত্মহত্যা , উদ্বেগে পেন্টাগন

প্রকাশের সময় : ১০:০৪:৩১ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৭ জুলাই ২০২১
বিদেশ ডেস্ক।। মার্কিন বাহিনীতে কর্মরত সেনা সদস্যদের আত্মহত্যার পরিমাণ উদ্বেগজনক হারে বাড়ছে। সোমবার আলাস্কার ইয়েলসন বিমান ঘাঁটি পরিদর্শনের সময় এনিয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম গার্ডিয়ানের প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।
মার্কিন প্রতিরক্ষা দফতর পেন্টাগনের হিসেব অনুযায়ী ২০২০ সালে সামরিক বাহিনীতে কর্মরত অবস্থায় ৩৮৫ জন সেনা সদস্য আত্মহত্যা করেছেন। ২০১৮ সালে এই পরিমাণ ছিলো ৩২৬ জন। গত ৩০ ডিসেম্বর থেকে এই পর্যন্ত আলাস্কায় আত্মহত্যা করেছেন ছয় জন।
সোমবার আলাস্কা সফরে গিয়ে প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন বলেন, ‘কেবল এখানে নয় বরং পুরো বাহিনীতে আত্মহত্যার হারে আমি গভীরভাবে উদ্বিগ্ন।’ তিনি বলেন, ‘আত্মহত্যায় একটা প্রাণ হারানোয় অনেক ক্ষতি। এই সমস্যা মোকাবিলায় আমরা কঠোর পরিশ্রম করছি, আরও অনেক কিছুই করতে হবে।’
মার্কিন প্রতিরক্ষা দফতরের তথ্য অনুযায়ী, সেনা সদস্যদের আত্মহত্যার নেপথ্যে চাপের অনেকগুলো ফ্যাক্টর কাজ করে থাকে। অন্যান্য ফ্যাক্টরের মধ্যে সামরিক বাহিনীতে অনিশ্চিত জীবন, চীনা প্রভাব মোকাবিলায় কমান্ডারদের অতিরিক্ত সেনা চাইতে থাকাও রয়েছে।
আলাস্কায় মোতায়েন করা মার্কিন সেনারা কঠিন আবহাওয়া, ভূতাত্ত্বিক অবস্থান এবং সামাজিক বিচ্ছিন্নতার মধ্যে থাকেন। এছাড়া প্রতিনিয়ত প্রশিক্ষণ এবং স্থান পরিবর্তনের মধ্য দিয়ে যেতে হয় তাদের। এছাড়া যেসব সেনা সদস্য সাধারণ মানুষের বসবাসের এলাকায় থাকেন তাদেরও জীবন যাত্রায় ব্যয় অনেক বেশি।
মার্কিন বাহিনীর আলাস্কা কমান্ডার মেজর জেনারেল পিটার অ্যান্ড্রিসিয়াক জানিয়েছেন, তাদের বাহিনীতে কিছু পরিবর্তন আনা ইতোমধ্যে শুরু হয়েছে। এসব পরিবর্তনের মধ্যে রয়েছে শীতের মৌসুমে সেনা সদস্যদের পরিবহন আরও বেশি সহজ করাসহ নানা পদক্ষেপ।