শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বকশীগঞ্জে ইউএনও’র হস্তক্ষেপে বাল্যবিয়ে পন্ড 

আল মোজাহিদ বাবু, বকশীগঞ্জ( জামালপুর)।। 
জামালপুর বকশীগঞ্জে  প্রশাসনের হস্তক্ষেপে বাল্যবিবাহ পন্ডু করে দিয়েছে প্রশাসন। ১০ সেপ্টেম্বর শুক্রবার রাতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বিয়ে আয়োজনকারী উভয়পক্ষকে তার  মুচলেকা নিয়ে এটি ভেঙ্গে দেন। এসময় স্থানীয় গণমান্য ব্যক্তি  উপস্থিত ছিলেন।
জানা গেছে, আগামীকাল শুক্রবারে দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার মাদারচর গ্রামের খোরশেদ আলীর ছেলে হাবিবুল্লাহ মুরাদ এর সাথে বকশীগঞ্জ পৌর এলাকার চরকাউরিয়া সীমারপাড়ের নাবালিকা এক মেয়ের সঙ্গে   বিয়ের  আয়োজন করা হয়। কিন্তু অভিযোগ ওঠে মেয়েটি প্রাপ্ত বয়স্ক নয়। এর প্রেক্ষিতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শুক্রবার ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালন করেন । পরে ওইদিন মেয়ের বাড়িতে বিয়ের আয়োজনে  বর ও কনে পক্ষকে  ডেকে বাল্যবিয়ে না দেয়ার জন্যে মুচলেকা নেন তিনি।
এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুনমুন জাহান লিজা  বলেন, প্রাপ্ত বয়স্ক না হওয়া পর্যন্ত এই বিয়ে দেয়া হবে না বলে তারা মুচলেকা দিয়েছে এবং পরে  বিয়ে পন্ডু করে দেয়া হয়।

বকশীগঞ্জে ইউএনও’র হস্তক্ষেপে বাল্যবিয়ে পন্ড 

প্রকাশের সময় : ১০:৪২:১৬ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১১ সেপ্টেম্বর ২০২১
আল মোজাহিদ বাবু, বকশীগঞ্জ( জামালপুর)।। 
জামালপুর বকশীগঞ্জে  প্রশাসনের হস্তক্ষেপে বাল্যবিবাহ পন্ডু করে দিয়েছে প্রশাসন। ১০ সেপ্টেম্বর শুক্রবার রাতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বিয়ে আয়োজনকারী উভয়পক্ষকে তার  মুচলেকা নিয়ে এটি ভেঙ্গে দেন। এসময় স্থানীয় গণমান্য ব্যক্তি  উপস্থিত ছিলেন।
জানা গেছে, আগামীকাল শুক্রবারে দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার মাদারচর গ্রামের খোরশেদ আলীর ছেলে হাবিবুল্লাহ মুরাদ এর সাথে বকশীগঞ্জ পৌর এলাকার চরকাউরিয়া সীমারপাড়ের নাবালিকা এক মেয়ের সঙ্গে   বিয়ের  আয়োজন করা হয়। কিন্তু অভিযোগ ওঠে মেয়েটি প্রাপ্ত বয়স্ক নয়। এর প্রেক্ষিতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শুক্রবার ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালন করেন । পরে ওইদিন মেয়ের বাড়িতে বিয়ের আয়োজনে  বর ও কনে পক্ষকে  ডেকে বাল্যবিয়ে না দেয়ার জন্যে মুচলেকা নেন তিনি।
এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুনমুন জাহান লিজা  বলেন, প্রাপ্ত বয়স্ক না হওয়া পর্যন্ত এই বিয়ে দেয়া হবে না বলে তারা মুচলেকা দিয়েছে এবং পরে  বিয়ে পন্ডু করে দেয়া হয়।