রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৩ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ভারতে ইলিশ রফতানি বন্ধ

সংগৃহীত

বেনাপোল প্রতিনিধি ।।
বন্ধ হয়ে গেল ভারতে ইলিশ রফতানি। গতকাল রবিবার (৩ অক্টোবর) পর্য্যন্ত সরকার অনুমোদিত চার ভাগের একভাগ ইলিশ রফতানি হয়েছে ভারতে। চলতি ইলিশের মৌসুমে পর্যাপ্ত  পরিমান ইলিশ ধরা না পড়ায় এ বছর রফতানি কমে হয়েছে বলে মনে করছেন রফতানিকারকরা।
ভারতের পশ্চিমবাংলায় আসন্ন দুর্গাপূজা  উপলক্ষ্যে সরকারের বিশেষ অনুমতিতে ১১৫ জন আমদানীকারক প্রতিষ্ঠানকে ৪ হাজার ৬শ মেঃ টন ইলিশ রফতানির অনুমতি পায়। বাজারে মাছ সংকট এবং উচ্চ মুল্যের কারনে ৫১ টি প্রতিষ্ঠান গতকাল রোববার পর্য্যন্ত ১ হাজার ১শ ৮ মেঃ টন ইলিশ ভারতে রফতানি করতে সক্ষম হয়। অনুমোদন প্রাপ্ত বেশির ভাগ  রফতানি কারক প্রতিষ্ঠান এ বছর বরাদ্ধের  ৪০ লাখ কেজির অনুমোদন নিয়েও এককেজি ইলিশও রফতানি করতে পারেননি। বেনাপোলের রফতানিকারক বিশ্বাস এন্টারপ্রাইজের মালিক মোতালেব বিশ্বাস বলেনন, এ বছর চাহিদার তুলনায় অনেক কম পরিমান ইলিশ ধরা পড়েছে। তাছাড়া দেশের বাজারের তুলনায় ভারতে রফতানি মুল্য কম হওয়ায়  উচ্চমুল্যে বাজার থেকে ইলিশ কিনে তা রফতানি করা সম্ভব হয়নি।
২০১২ সাল থেকে ভারতে ইলিশ রফতানি বন্ধের পর থেকে প্রতিবছর দুর্গাপূজাকে ঘিরে সরকার বিশেষ অনুমতি পত্রে ভারতে ইলিশ রফতানির সুযোগ দিয়ে আসছে।  এবছর ভারতে ইলিশ রফতানি শুরু হয় গত ২২ সেপ্টেম্বর। প্রথমদিনে রফতানি হয় প্রায় ৮০ মেঃটন। বেনাপোল মৎস পরিদর্শন ও মান নিয়ন্ত্রন কর্মকর্তা মাহবুবুর  রহমান বলেন,৪ হাজার ৬শ মেঃ টনের বিপরীতে রোববার পর্য্যন্ত ভারতে রফতানি হয়েছে মাত্র ১ হাজার ১০৮ মেঃটন। উল্লেখিত পরিমান ইলিশ রফতানি করে ১১লাখ ২২ হাজার ৮ শ মাঃ ডলার বৈদেশিক মুদ্রা আয় হয়েছে যা বাংলাদেশী টাকায় ৯ কোটি ৫৪ লাখ ৩৮ হাজার টাকা।

ভারতে ইলিশ রফতানি বন্ধ

প্রকাশের সময় : ০১:৫৯:৪০ অপরাহ্ন, সোমবার, ৪ অক্টোবর ২০২১

বেনাপোল প্রতিনিধি ।।
বন্ধ হয়ে গেল ভারতে ইলিশ রফতানি। গতকাল রবিবার (৩ অক্টোবর) পর্য্যন্ত সরকার অনুমোদিত চার ভাগের একভাগ ইলিশ রফতানি হয়েছে ভারতে। চলতি ইলিশের মৌসুমে পর্যাপ্ত  পরিমান ইলিশ ধরা না পড়ায় এ বছর রফতানি কমে হয়েছে বলে মনে করছেন রফতানিকারকরা।
ভারতের পশ্চিমবাংলায় আসন্ন দুর্গাপূজা  উপলক্ষ্যে সরকারের বিশেষ অনুমতিতে ১১৫ জন আমদানীকারক প্রতিষ্ঠানকে ৪ হাজার ৬শ মেঃ টন ইলিশ রফতানির অনুমতি পায়। বাজারে মাছ সংকট এবং উচ্চ মুল্যের কারনে ৫১ টি প্রতিষ্ঠান গতকাল রোববার পর্য্যন্ত ১ হাজার ১শ ৮ মেঃ টন ইলিশ ভারতে রফতানি করতে সক্ষম হয়। অনুমোদন প্রাপ্ত বেশির ভাগ  রফতানি কারক প্রতিষ্ঠান এ বছর বরাদ্ধের  ৪০ লাখ কেজির অনুমোদন নিয়েও এককেজি ইলিশও রফতানি করতে পারেননি। বেনাপোলের রফতানিকারক বিশ্বাস এন্টারপ্রাইজের মালিক মোতালেব বিশ্বাস বলেনন, এ বছর চাহিদার তুলনায় অনেক কম পরিমান ইলিশ ধরা পড়েছে। তাছাড়া দেশের বাজারের তুলনায় ভারতে রফতানি মুল্য কম হওয়ায়  উচ্চমুল্যে বাজার থেকে ইলিশ কিনে তা রফতানি করা সম্ভব হয়নি।
২০১২ সাল থেকে ভারতে ইলিশ রফতানি বন্ধের পর থেকে প্রতিবছর দুর্গাপূজাকে ঘিরে সরকার বিশেষ অনুমতি পত্রে ভারতে ইলিশ রফতানির সুযোগ দিয়ে আসছে।  এবছর ভারতে ইলিশ রফতানি শুরু হয় গত ২২ সেপ্টেম্বর। প্রথমদিনে রফতানি হয় প্রায় ৮০ মেঃটন। বেনাপোল মৎস পরিদর্শন ও মান নিয়ন্ত্রন কর্মকর্তা মাহবুবুর  রহমান বলেন,৪ হাজার ৬শ মেঃ টনের বিপরীতে রোববার পর্য্যন্ত ভারতে রফতানি হয়েছে মাত্র ১ হাজার ১০৮ মেঃটন। উল্লেখিত পরিমান ইলিশ রফতানি করে ১১লাখ ২২ হাজার ৮ শ মাঃ ডলার বৈদেশিক মুদ্রা আয় হয়েছে যা বাংলাদেশী টাকায় ৯ কোটি ৫৪ লাখ ৩৮ হাজার টাকা।