Barta Kontho
নিবন্ধন নম্বর: ৪৬১বৃহস্পতিবার , ১০ ফেব্রুয়ারি ২০২২
  1. 1st Lead
  2. 2nd Lead
  3. অপরাধ
  4. আইটি বিশ্ব
  5. আইন ও আদালত
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আবহাওয়া
  8. ইসলাম
  9. খেলাধুলা
  10. চাকুরি
  11. ছবি ঘর
  12. জাতীয়
  13. জেলার খবর
  14. ট্রাভেল
  15. নির্বাচন

মহা দুর্নীতির জয়জয়কার চলছে: রুহুল কবির রিজভী

ডেস্ক রিপোর্ট
ফেব্রুয়ারি ১০, ২০২২ ৩:৫৪ অপরাহ্ণ
Link Copied!

অবৈধ আওয়ামী লীগ সরকারেই এখন উন্নয়নের নামে মহা দুর্নীতির জয়জয়কার চলছে। গণমাধ্যম বা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম খুললেই দেখা যায় ক্ষমতাসীনদের লুটপাটের মহোৎসবের খবর; বলেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

বৃহস্পতিবার (১০ফেব্রুয়ারি) দুপুরে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

সম্প্রতি সোস্যাল মিডিয়ায় সরকারের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের ফাঁস হওয়া ফোনালাপের কথোপকথনের উদ্ধৃতি দিয়ে, প্রধানমন্ত্রীর পুত্র সজীব ওয়াজেদ জয়ের কোম্পানিকে কাজ পাইয়ে দিচ্ছেন মন্ত্রীরা বলে এঅভিযোগ করে করেন রিজভী। তিনি বলেন, আনিসুল হক আর সালমান এফ রহমান এই দুই ব্যক্তিই নয়, দুর্নীতিবাজ চক্রের সঙ্গে মোস্তফা জব্বার নামে বিনাভোটের আরেক মন্ত্রীর নামও উঠে এসেছে। এই তিন ব্যক্তিই কোনো নিয়ম নীতি না মেনেই প্রধানমন্ত্রীর পুত্র সজীব ওয়াজেদ জয়ের কোম্পানিকে কাজ পাইয়ে দিতে একাট্টা হয়েছেন।

সম্প্রতি সোস্যাল মিডিয়ায় ফাঁস হওয়া ফোনালাপ প্রসঙ্গে রুহুল কবির বলেন, সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় নিশিরাতের সরকারের দুই গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তির ফোনালাপ ফাঁস হয়েছে। এই হাইভোল্টেজ আলাপনই এখন ‘টক অব দ্য ইউনিভার্স’। একজন হলেন সরকারের আইনমন্ত্রী আনিসুল হক অপরজন হলেন নিশিরাতের সরকারের প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান। কথিত ডিজিটালাইজড করার নামে দেশে দুর্নীতির যে রমরমা বাণিজ্য চলছে এই দুই ব্যক্তির কথায় সেটি দৃশ্যত প্রমাণিত।

‘কোনো টেন্ডার লাগবেনা, এটাতো জয়ের প্রজেক্ট’ ফোনালাপে কথোপকথনের কিছু অংশ তুলে ধরে রিজভী বলেন, যেহেতু জয়ের প্রজেক্ট সেহেতু প্রজেক্ট যেভাবে এসেছে সেভাবেই রিলিজ করে দেওয়ার কথাও আনিসুল হককে জানিয়ে দেন দরবেশ নামে পরিচিত সালমান এফ রহমান। জয় যেভাবে চেয়েছে তিনি সেভাবেই করে দিয়েছেন, উত্তরে আনিসুল হক এটাই বলেছেন। সালমান এফ রহমান ও আনিসুল হকের ফোনালাপ ফাঁসের খবরে দেশজুড়ে তোলপাড় চলছে বলেও যোগ করেন তিনি।

আড়িপাতা যন্ত্র ব্যবহার করে ভিন্নমতের মানুষদের গণতান্ত্রিক অধিকারকে হরণ করছে এ অবৈধ সরকার দাবি করে রিজভী বলেন, ‘বর্তমান ভোটারবিহীন সরকার বিতর্কিত আড়িপাতা যন্ত্র কিনে বছরের পর বছর ধরে বিরোধী দল কিংবা ভিন্নমতের মানুষের ব্যক্তিগত ফোনালাপ রেকর্ড করে আসছে। এরপর নিজেদের হীন স্বার্থ চরিতার্থ করতে অবৈধভাবে রেকর্ড করা ফোনালাপ সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে দিয়ে তার ভিত্তিতে কাউকে গ্রেপ্তার কিংবা মিডিয়া ট্রায়াল করে সরকার। তবে এইবার নিজেদের পাতা ফাঁদে নিজেরাই ধরা পড়েছে বলেন তিনি।

রাষ্ট্রকে চালাচ্ছে, সেটি নিয়ে জনমনে বড় প্রশ্ন দেখা দিয়েছে উল্লেখ করে রিজভী বলেন, ফাঁস হওয়া ফোনালাপে, নিশিরাতের সরকারের দুই মন্ত্রী আর দুই উপদেষ্টার দুর্নীতির সঙ্গে সরাসরি জড়িত থাকার প্রমাণ গোটা দেশের জনগনের সামনে স্পষ্ট। উপদেষ্টা ও মন্ত্রীর ফোনালাপ দুর্নীতির সামান্য নমুনা মাত্র। তারা সংঘবদ্ধভাবে দুর্নীতি ও লুটপাট করে দেশটাকে ফোকলা করে দিয়েছে।’

দি কানাডিয়ান হিউম্যান রাইটস ইন্টারন্যাশনাল অর্গানাইজেশন এর পক্ষ থেকে খালেদা জিয়ার ‘ডেমোক্র্যাসি হিরো’ উপাধি সম্পর্কে তথ্য মন্ত্রীর মন্তব্যের উত্তরে রিজভী বলেন, ‘আন্তর্জাতিক বিশ্ব থেকে খালেদা জিয়াকে সম্মান দেওয়ায় হাছান মাহমুদরা চরম আত্মপীড়ণ ও মনোকষ্টে ভুগছেন। এ কারণে হাছান মাহমুদ বলেছেন, এই অ্যাওয়ার্ড নাকি টাকা দিয়ে কেনা হয়েছে। তার এই মন্তব্য শুনে একটা বাংলা প্রবাদ মনে পড়ছে, পাগলে কিনা বলে….কিনা খায়।’

বিএনপি নেতা আরও বলেন, ‘কিনে পদক পাওয়ার সংস্কৃতি তো আওয়ামী লীগ নেত্রী বর্তমান প্রধানমন্ত্রীর। পদক কিনে বস্তা ভরার ইতিহাস তো আপনাদেরই। ক্ষমতাসীন হলেই আপনাদের কাছে বানের স্রোতের মতো পদক আসে। আপনার বক্তব্যে প্রমাণ হলো, অতীতে আপনারাই পদক কিনেছেন।’

সংবাদ সম্মেলনে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আবুল খায়ের ভূঁইয়া, যুগ্ম মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সালাম আজাদ, সহ দপ্তর সম্পাদক মুহাম্মদ মুনির হোসেন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।