Barta Kontho
নিবন্ধন নম্বর: ৪৬১বৃহস্পতিবার , ১০ ফেব্রুয়ারি ২০২২
  1. 1st Lead
  2. 2nd Lead
  3. অপরাধ
  4. আইটি বিশ্ব
  5. আইন ও আদালত
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আবহাওয়া
  8. ইসলাম
  9. খেলাধুলা
  10. চাকুরি
  11. ছবি ঘর
  12. জাতীয়
  13. জেলার খবর
  14. ট্রাভেল
  15. নির্বাচন

রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশে বিষয়ক জবিতে সেমিনার

জবি সংবাদদাতা॥
ফেব্রুয়ারি ১০, ২০২২ ১১:১১ অপরাহ্ণ
Link Copied!

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) ভূগোল ও পরিবেশ বিভাগে পিএইচডি’র দ্বিতীয় উন্মুক্ত সেমিনার বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় বিভাগের ১১৩ নম্বর কক্ষে অনুষ্ঠিত হয়েছে। বিষয় ছিল ‘Determining the Impact of Forced Rohingya Migration in Tourism at Cox’s Bazar, Bangladesh’। গবেষক ছিলেন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মো. মহিউদ্দিন। এসময় গবেষক বলেন, কক্সবাজার বাংলাদেশের অন্যতম পর্যটন কেন্দ্র। এই অঞ্চলের অনেক মানুষের অর্থনৈতিক ও সামজিক অবস্থা প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে পর্যটন শিল্পের উপর নির্ভরশীল। ২০১৭ সালে মায়ানমার থেকে জোরপূর্বক অভিগমন হওয়া রোহিঙ্গা শরণার্থীরা আসার কারণে কক্সবাজার জেলার পর্যটন শিল্পের উপর ব্যাপক প্রভাব পড়েছে। বিশেষ করে পরিবেশগত ও আর্থ-সামাজিক প্রভাব অনেক বেশি।
বিশেষ করে বন উজাড়, পানি দূষণ ও বর্জ্য সমস্যা। অর্থনৈতিক প্রভাব বিশেষ করে দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধি, পর্যটন শিল্পে স্থানীয়দের কর্মসংস্থান হারানো অন্যতম। এছাড়া সামাজিক প্রভাব, নিরাপত্তা সংকট, মাদক ব্যবসা, অপহরণসহ অন্যান্য প্রভাব, যা পর্যটন শিল্পের উপর হুমকি।
তিনি আরও বলেন, আমার গবেষণার বিষয় হলো রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশের ফলে কক্সবাজার এলাকায় পর্যটন শিল্পের উপর কী ধরনের প্রভাব পড়েছে, তার একটি সমীক্ষা করা এবং দেশের পলিসি মেকারদের একটি সাজেশন্স দেওয়া, যাতে তারা রোহিঙ্গাদের ব্যাপারে সঠিক কূটনৈতিক সিদ্ধান্ত নিতে পারেন। আমাদের গবেষণায় প্রাথমিক ও গৌণ উভয় ধরনের তথ্যই ব্যবহার করা হবে। এসময় তিনি বিভিন্ন গবেষক ও অভিজ্ঞ শিক্ষকদের পরামর্শ ও প্রশ্নের উত্তর লিপিবদ্ধ করেন, যা গবেষণাকে সমৃদ্ধ করবে।
সেমিনারে তত্বাবধায়ক অধ্যাপক ড. মল্লিক আকরাম হোসেন বলেন, রোহিঙ্গাদের কারণে শুধু স্থানীয় পর্যায়ে পর্যটনের পরিবেশ বিপর্যয় এবং অর্থনৈতিক ও সামাজিক বিপর্যয় হচ্ছে এমন নয়। এটি সামগ্রিক রাষ্ট্রের জন্যও ঝুঁকি।
সেমিনারে বিভাগের চেয়ারম্যান সহযোগী অধ্যাপক মোহাম্মাদ আব্দুল কাদেরের সভাপতিত্বে অনলাইনে উপস্থিত ছিলেন পিএইচডির তত্বাবধায়ক অধ্যাপক ড. মল্লিক আকরাম হোসেন, লাইফ অ্যান্ড আর্থ সায়েন্স এর ডিন অধ্যাপক ড. খন্দকার মনিরুজ্জামান, পরিসংখ্যান বিভাগের সিনিয়র অধ্যাপক মো. আশরাফ-উল-আলম, সহযোগী অধ্যাপক ড. আতিকুল ইসলাম, সহকারী অধ্যাপক আইরিন সুলতানা। পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের সিনিয়র অধ্যাপক ড. পরিমল বালা।
এছাড়াও সেমিনারে উপস্থিত ছিলেন ভূগোল ও পরিবেশ বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. নিগার সুলতানা, নাহরিন জান্নাত, সহকারী অধ্যাপক এন.এম. রিফাত নাসের, মো. আব্দুল মালেক, মো. আশ্রাফ উদ্দীন, শাহানা সুলতানা, রিফফাত মাহমুদ, সহকারী প্রক্টর আব্দুল্লাহ মাহফুজ, কাজী নূর হোসেন মুকুল, নিউটন হাওলাদার, শাহনাজ হক ও কাজী ফারুক হোসেনসহ অন্য গবেষকরা।
বার্তা/এন

বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।