Barta Kontho
নিবন্ধন নম্বর: ৪৬১শনিবার , ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২২
  1. 1st Lead
  2. 2nd Lead
  3. অপরাধ
  4. আইটি বিশ্ব
  5. আইন ও আদালত
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আবহাওয়া
  8. ইসলাম
  9. খেলাধুলা
  10. চাকুরি
  11. ছবি ঘর
  12. জাতীয়
  13. জেলার খবর
  14. ট্রাভেল
  15. নির্বাচন

বাংলাদেশ ডাব্লিউএইচওর লক্ষ্যমাত্রা অতিক্রম করেছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

ডেস্ক রিপোর্ট
ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০২২ ৬:৩১ অপরাহ্ণ
Link Copied!

করোনাভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে টিকা প্রয়োগে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার দেওয়া লক্ষ্যমাত্রা বাংলাদেশ অতিক্রম করেছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী জাহিদ মালেক। তিনি বলেন, আজ এক কোটিরও বেশি মানুষকে টিকা দেওয়া হয়েছে। এ নিয়ে আমরা ১২ কোটি মানুষকে টিকার আওতায় আনতে পেরেছি।

শনিবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে গণটিকা কার্যক্রম পরবর্তী করণীয় প্রসঙ্গে এক ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার যে লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে, আমরা সেটি পিছনে ফেলে দিয়েছি। তারা জানিয়েছিল আমরা দেশের মোট জনসংখ্যার ৭০ শতাংশ মানুষকে যেন টিকার আওতায় আনি। সে হিসেবে আমাদের সাড়ে ১১ কোটি মানুষকে টিকার আওতায় আনার কথা থাকলেও আমরা ১২ কোটি মানুষকে টিকার প্রথম ডোজ দেওয়া সম্পন্ন করে ফেলেছি। এটি আমাদের জন্য অনেক বড় সফলতা।

একদিনে এক কোটি টিকা দেওয়ার কার্যক্রম চলছে আজ (শনিবার) সকাল থেকে। এ কার্যক্রম সফলতার সঙ্গে চলছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

তিনি বলেন, বিপুল সংখ্যক লোক লোক টিকা নিতে এসেছে। সব কেন্দ্রগুলোই লোকারণ্য। কোথাও কোনো সমস্যার কথা জানতে পারিনি। নিটা নেওয়ার আগ্রহ দেখে আমরা অভিভূত। পৃথিবীতে টিকা নেওয়ার অনীহা থাকলেও আমাদের দেশের মানুষ টিকাবান্ধব।

মন্ত্রী বলেন, টিকা দেওয়ার সংখ্যার দিকে ১০ম স্থানে আছি। বড় বড় রাষ্ট্রসহ ১৯০টি দেশ আমাদের চেয়ে পিছিয়ে আছে। রাশিয়া, তুরস্কসহ আরও অনেকের থেকে আমরা এগিয়ে আছি টিকাদানের ক্ষেত্রে।

এদিকে, প্রথম ডোজের টিকা কার্যক্রম আজকের পরও চলমান থাকবে। দ্বিতীয় ও বুস্টার ডোজের সাথে প্রথম ডোজের টিকা প্রয়োগও চলবে। চলমান গণটিকা কর্মসূচি আরও দুইদিন বৃদ্ধি করা হয়েছে।

বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।