Barta Kontho
নিবন্ধন নম্বর: ৪৬১রবিবার , ৩১ জুলাই ২০২২
  1. 1st Lead
  2. 2nd Lead
  3. অপরাধ
  4. আইটি বিশ্ব
  5. আইন ও আদালত
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আবহাওয়া
  8. ইসলাম
  9. খেলাধুলা
  10. চাকুরি
  11. ছবি ঘর
  12. জাতীয়
  13. জেলার খবর
  14. ট্রাভেল
  15. নির্বাচন

যৌথভাবে মৈত্রী তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র উদ্বোধন করবেন হাসিনা-মোদি

ডেস্ক রিপোর্ট
জুলাই ৩১, ২০২২ ৬:০৪ অপরাহ্ণ
Link Copied!

১ হাজার ৩২০ মেগাওয়াটের মৈত্রী সুপার তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

সেপ্টেম্বরের প্রথম সপ্তাহে ভারত সফরের কথা রয়েছে শেখ হাসিনার। দুই বন্ধুপ্রতীম দেশের শীর্ষ নেতারা তখনই যৌথভাবে এই বিদ্যুৎকেন্দ্র উদ্বোধন করবেন।

রোববার (৩১ জুলাই) ভারতীয় সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্থান টাইমস এমন খবর দিয়েছে। এতে বলা হয়, আগামী পাঁচ থেকে সাত সেপ্টেম্বরের মধ্যে শেখ হাসিনার ভারত সফরের কথা রয়েছে। দুই কিংবা তিনদিনের জন্য এ সফর হতে পারে। বাংলাদেশ ভারতের সবেচেয়ে ঘনিষ্ঠ মিত্র হওয়ায় এই সফরকে মোদি সরকার সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিচ্ছে বলে ভারতীয় সূত্র থেকে বলা হচ্ছে।

বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্রটি স্থাপন করেছে ভারত-বাংলাদেশ ফ্রেন্ডশিপ কোম্পানি লিমিটেড। ভারতের ন্যাশনাল থার্মাল পাওয়ার কর্পোরেশন লিমিটেড- এনটিপিসি ও বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডের যৌথ মালিকানায় নির্মিত হচ্ছে এই বিদ্যুৎকেন্দ্রটি। প্রকল্পটির মূল্য হবে দেড়শ’ কোটি মার্কিন ডলার।

এদিকে বাণিজ্যে বাংলাদেশের চট্টগ্রাম ও মোংলা বন্দর ব্যবহার বিষয়ক চুক্তি পূর্ণাঙ্গভাবে বাস্তবায়নে ৪টি ট্রায়াল রানের প্রথমটি শুরু করেছে ভারতের কলকাতা বন্দর। শনিবার এ ট্রায়াল রান শুরু হয়।

ভারত-বাংলা প্রোটোকল রুটে অভ্যন্তরীণ জলপথ ব্যবহার করে ব্যবসায়িক গতি বাড়ানোর লক্ষ্যে এই উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। মোংলা থেকে তামাবিল, তামাবিল থেকে চট্টগ্রাম, চট্টগ্রাম থেকে শেওলা (স্থল সীমান্ত) এবং মোংলা থেকে বিবিরবাজার রুটে এসব ট্রায়াল চলবে।

ভারত-বাংলাদেশ প্রোটোকল রুটের মাধ্যমে কলকাতা বন্দর থেকে ভারতের উত্তর-পূর্ব রাজ্যগুলোতে কার্গো চলাচল ট্রানজিট শুধু ব্যয় ও সময়ই কমাবে না, অর্থনীতির বিকাশেও সাহায্য করবে।

ভারত থেকে পণ্য পরিবহনের জন্য চট্টগ্রাম ও মোংলা বন্দর ব্যবহার সংক্রান্ত একটি চুক্তি এবং স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং পদ্ধতি দুই দেশের মধ্যে স্বাক্ষরিত হয়েছে।

মার্চ মাসে অনুষ্ঠিত ১৩তম ভারত-বাংলাদেশ জয়েন্ট গ্রুপ অফ কাস্টমস (জেএসসি) বৈঠকের পর ট্রায়াল রান পরিচালনার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।