Barta Kontho
নিবন্ধন নম্বর: ৪৬১বুধবার , ৩ আগস্ট ২০২২
  1. 1st Lead
  2. 2nd Lead
  3. অপরাধ
  4. আইটি বিশ্ব
  5. আইন ও আদালত
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আবহাওয়া
  8. ইসলাম
  9. খেলাধুলা
  10. চাকুরি
  11. ছবি ঘর
  12. জাতীয়
  13. জেলার খবর
  14. ট্রাভেল
  15. নির্বাচন

‘যুক্তরাষ্ট্র আঞ্চলিক শান্তি বিনষ্টকারী হয়ে উঠেছে’

ডেস্ক রিপোর্ট
আগস্ট ৩, ২০২২ ৫:৪২ অপরাহ্ণ
Link Copied!

চীনের স্টেট কাউন্সিলর ও পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই বলেছেন, মার্কিন প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি নির্লজ্জভাবে চীনের তাইওয়ান অঞ্চলে সফরে গেছেন। এই পদক্ষেপ গুরুতরভাবে ‘এক-চীন’ নীতি লঙ্ঘন করে। এতে চীনের সার্বভৌমত্ব লঙ্ঘন ও রাজনৈতিক উসকানি স্পষ্ট হয়েছে, যা চীনের জনগণের মধ্যে তীব্র ক্ষোভ ও আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের ব্যাপক বিরোধিতার জন্ম দিয়েছে।

চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, এটি আবারও প্রমাণ করে যে কিছু মার্কিন রাজনীতিবিদ চীন-মার্কিন সম্পর্কের ‘সমস্যা সৃষ্টিকারী’ হয়ে উঠেছে এবং তাইওয়ানকে কেন্দ্র করে আঞ্চলিক স্থিতিশীলতা ও শান্তি বিনষ্টকারী হয়ে উঠেছে যুক্তরাষ্ট্র।

ওয়াং ই বলেন, “চীনের পুনর্মিলনে যুক্তরাষ্ট্রের বাধা দেয়ার স্বপ্ন দেখা উচিত নয়। তাইওয়ান চীনের একটি অংশ। চীনের সম্পূর্ণ পুনর্মিলন সময়ের ব্যাপার মাত্র এবং এটিই ইতিহাসের অনিবার্যতা। আমরা ‘তাইওয়ানের স্বাধীনতা’ বাহিনী এবং বহিরাগতদের হস্তক্ষেপের জন্য কোনো সুযোগ দেব না।”

তিনি আরও বলেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ‘তাইওয়ানের স্বাধীনতা’ বাহিনীকে যেভাবে সমর্থন বা সহযোগিতা করুক না কেন, সবই বৃথা হবে। যুক্তরাষ্ট্র ইতিহাসে অন্যান্য দেশের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে স্থূল হস্তক্ষেপের জন্য আরও কুৎসিত রেকর্ড রেখে যাবে।

চীনের উন্নয়ন ও পুনরুজ্জীবনকে যুক্তরাষ্ট্রের খাটো করে দেখা উচিত নয় জানিয়ে ওয়াং ই বলেন, চীন তার নিজস্ব জাতীয় অবস্থার সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে সঠিক উন্নয়নের পথ খুঁজে পেয়েছে। চীনের কমিউনিস্ট পার্টির নেতৃত্বে ১৪০ কোটি চীনা জনগণ চীনা ধাঁচের আধুনিকীকরণের দিকে অগ্রসর হচ্ছে।
ওয়াং ই আরও বলেন, আমরা আমাদের দেশ ও জাতির উন্নয়নকে আমাদের নিজস্ব শক্তির ভিত্তিতে রাখি, এবং শান্তিপূর্ণভাবে সহাবস্থান করতে এবং অন্যান্য দেশের সঙ্গে একত্রে উন্নয়ন করতে ইচ্ছুক। তবে আমরা কখনোই কোনো দেশকে চীনের স্থিতিশীলতা ও উন্নয়নকে ক্ষুণ্ন করতে দেব না।

তার মতে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ভূ-রাজনৈতিক খেলায় হেরফের করার কল্পনা করা উচিত নয়। শান্তি, স্থিতিশীলতা, উন্নয়ন এবং জয়জয়কার সহযোগিতা আঞ্চলিক দেশগুলোর অভিন্ন আকাঙ্ক্ষা।

প্রসঙ্গত, তাইওয়ানকে নিজেদের অবিচ্ছেদ্য অংশ হিসেবে দাবি করে চীন। অপরদিকে নিজেদের একটি স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে দীর্ঘদিন থেকে দাবি করে আসছে তাইওয়ান।

বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।