Barta Kontho
নিবন্ধন নম্বর: ৪৬১রবিবার , ৪ সেপ্টেম্বর ২০২২
  1. 1st Lead
  2. 2nd Lead
  3. অপরাধ
  4. আইটি বিশ্ব
  5. আইন ও আদালত
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আবহাওয়া
  8. ইসলাম
  9. খেলাধুলা
  10. চাকুরি
  11. ছবি ঘর
  12. জাতীয়
  13. জেলার খবর
  14. ট্রাভেল
  15. নির্বাচন

নায়িকা পরীমনির বিরুদ্ধে পরবর্তী সাক্ষ্যগ্রহণ ১৩ অক্টোবর

বার্তাকন্ঠ
সেপ্টেম্বর ৪, ২০২২ ৭:৩৬ অপরাহ্ণ
Link Copied!

বিনোদন ডেস্ক ।। রাজধানীর বনানী থানার মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের মামলায় নায়িকা পরীমনিসহ তিনজনের বিরুদ্ধে করা মামলার বাদী মজিবুর রহমানের সাক্ষ্যগ্রহণ শেষ হয়েছে।

রোববার (৪ সেপ্টেম্বর) ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-১০ এর বিচারক মোহাম্মদ নজরুল ইসলামের আদালতে মামলার সাক্ষ্যগ্রহণের জন্য দিন ধার্য ছিল। পরীমনির পক্ষে তার আইনজীবী হাজিরা দেন। মামলায় জামিনে থাকা অন্য দুই আসামি আশরাফুল ইসলাম দিপু ও কবির হোসেন আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

এরপর মামলার বাদী মজিবুর রহমানকে পুনরায় জেরা করেন আসামিপক্ষের আইনজীবীরা। তার জেরা শেষ হওয়ায় আগামী ১৩ অক্টোবর মামলার সাক্ষ্যগ্রহণের জন্য দিন ধার্য হয়েছে।

এদিকে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী মাহাবুবুল হাসান আসামি পরীমনিকে হাজির করার জন্য আবেদন করেন।

তিনি আদালতকে বলেন, প্রেগন্যান্ট থাকায় পরীমনির পক্ষে তার আইনজীবী হাজিরা দিতেন। এখন তিনি মা হয়েছেন। তাই আমরা রাষ্ট্রপক্ষ থেকে ধার্য তারিখে তাকে সশরীরে আদালতে হাজির হওয়ার আবেদন করছি।

পরীমনির আইনজীবী নীলাঞ্জনা রিফাত (সুরভী) এর বিরোধিতা করেন। তিনি বলেন, মাসখানেক হলো পরীমনি সন্তানের জন্ম দিয়েছেন। তিনি এখনো পুরোপুরি সুস্থ নন। তাছাড়া সরকারিভাবেও মাতৃত্বকালীন ছুটি তো ছয় মাস। তিনি সুস্থ হলে আদালতে হাজিরা দেবেন। উভয়পক্ষের শুনানি শেষে আদালত আবেদনটি নথিভুক্ত করেন।

গত ১২ মে পরীমনির আইনজীবী ব্যক্তিগত হাজিরা মওকুফ চেয়ে আবেদন করেন। এরপর গত ২ জুন আদালত পরীমনির ব্যক্তিগত হাজিরা মওকুফ করেন।

২০২১ সালের ৪ আগস্ট বনানীর বাসা থেকে পরীমনিকে আটক করে র‍্যাব। অভিযানে নতুন মাদক এলএসডি, মদ ও আইস উদ্ধার করা হয়। তার ড্রয়িংরুমের কাভার্ড, শোকেস, ডাইনিংরুম, বেডরুমের সাইড টেবিল ও টয়লেট থেকে বিপুল মদের বোতলও উদ্ধার করা হয়।

ঘটনার পরদিন ৫ আগস্ট র‍্যাব বাদী হয়ে রাজধানীর বনানী থানায় পরীমনিসহ তিনজনের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলায় করেন ৷

তদন্ত শেষে ২০২১ সালের ৪ অক্টোবর তদন্তকারী কর্মকর্তা সিআইডির পরিদর্শক কাজী মোস্তফা কামাল পরীমনিসহ তিনজনের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন।

এরপর চলতি বছরের ৫ জানুয়ারি আদালত পরীমনিসহ তিন আসামির অব্যাহতির আবেদন খারিজ করে অভিযোগ গঠনের মাধ্যমে বিচার শুরুর আদেশ দেন।

বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।