Barta Kontho
নিবন্ধন নম্বর: ৪৬১শনিবার , ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২২
  1. 1st Lead
  2. 2nd Lead
  3. অপরাধ
  4. আইটি বিশ্ব
  5. আইন ও আদালত
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আবহাওয়া
  8. ইসলাম
  9. খেলাধুলা
  10. চাকুরি
  11. ছবি ঘর
  12. জাতীয়
  13. জেলার খবর
  14. ট্রাভেল
  15. নির্বাচন

‘যত দ্রুত সম্ভব’ ইউক্রেন যুদ্ধ শেষ করতে চান পুতিন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
সেপ্টেম্বর ১৭, ২০২২ ২:০৮ অপরাহ্ণ
Link Copied!

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেছেন যে- তিনি ইউক্রেনে যুদ্ধ সম্পর্কে নয়াদিল্লির উদ্বেগ বুঝতে পেরেছেন এবং এটি যত দ্রুত সম্ভব শেষ করতে চান।

উজবেকিস্তানে চলমান এসসিও আঞ্চলিক সম্মেলনের ফাঁকে শুক্রবার (১৬ সেপ্টেম্বর) এই দুই নেতা বৈঠক করেন। বৈঠকের পর ক্রেমলিনের পক্ষ থেকে দেওয়া বৈঠকের সারসংক্ষেপ থেকে এ তথ্য জানা যায়। খবর আল–জাজিরার।

বৈঠকে নরেন্দ্র মোদি ভ্লাদিমির পুতিনকে যুদ্ধ থামানোর আহ্বান জানিয়ে বলেন, ‘এটা যুদ্ধের সময় নয়’। জবাবে পুতিনও ‘যত দ্রুত সম্ভব’ এই যুদ্ধের অবসান টানার আশ্বাস দেন।

বৃহস্পতিবার (১৭ শনিবার) সন্ধ্যায় আট দেশীয় জোট সাংহাই কো-অপারেশন অর্গানাইজেশনের (এসসিও) সম্মেলনে যোগ দিতে সমরখন্দে পৌঁছান নরেন্দ্র মোদি। রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন, চীনের প্রেসিডেন্ট সি চিন পিং এবং অন্য সদস্যদেশের নেতাদের সঙ্গে দলবদ্ধ ছবি তোলার মধ্য দিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে তিনি সম্মেলনে যোগ দেন।

পুতিনকে মোদি বলেন, ‘আমি মনে করি এই সময়টা যুদ্ধের সময় নয়। এ বিষয়ে ফোনেও আপনার সঙ্গে আমার কথা হয়েছে।’ তিনি আরও বলেন, গণতন্ত্র, কূটনীতি ও আলোচনার মধ্য দিয়ে পুরো বিশ্ব একত্রিত হয়ে থাকতে পারে।

এর জবাবে পুতিন বলেন, কিয়েভ আলোচনাকে প্রত্যাখ্যান করেছে এবং যুদ্ধে নিজেদের উদ্দেশ্য অর্জনের জন্য প্রস্তুত রয়েছে।

পুতিন আরও বলেন, ‘ইউক্রেন যুদ্ধ নিয়ে আমি আপনার (মোদি) অবস্থান জানি। আপনার উদ্বেগও জানি, যা আপনি প্রতিনিয়ত প্রকাশ করেছেন।’

পুতিন বলেন, ‘আমরা যত তাড়াতাড়ি সম্ভব এটি (যুদ্ধ) বন্ধ করার জন্য সবকিছু করব। কিন্তু দুর্ভাগ্যজনকভাবে বিরোধী পক্ষ, ইউক্রেনের নেতৃত্ব আলোচনার প্রক্রিয়াকে প্রত্যাখান করেছে এবং বলেছে সামরিক উপায়ে তারা লক্ষ্য অর্জন করতে চায়।’

স্নায়ুযুদ্ধের সময় থেকে ভারত-রাশিয়ার দীর্ঘদিনের সম্পর্ক রয়েছে। রাশিয়া এখনো পর্যন্ত ভারতের সবচেয়ে বড় অস্ত্র সরবরাহকারী দেশ।

গত ফেব্রুয়াতিতে রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর থেকে বর্তমানে ইউক্রেনের প্রায় পঞ্চমাংশ নিয়ন্ত্রণ এখন রাশিয়ার হাতে।

বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।