Barta Kontho
নিবন্ধন নম্বর: ৪৬১মঙ্গলবার , ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২
  1. 1st Lead
  2. 2nd Lead
  3. অপরাধ
  4. আইটি বিশ্ব
  5. আইন ও আদালত
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আবহাওয়া
  8. ইসলাম
  9. খেলাধুলা
  10. চাকুরি
  11. ছবি ঘর
  12. জাতীয়
  13. জেলার খবর
  14. ট্রাভেল
  15. নির্বাচন

ঝিকরগাছায় যেন মোটরসাইকেল চুরির মহোৎসব! 

আশরাফুজ্জামান বাবু, ঝিকরগাছা প্রতিনিধি
সেপ্টেম্বর ২৭, ২০২২ ১০:৩৫ অপরাহ্ণ
Link Copied!

যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলায় মোটরসাইকেল চুরি আশঙ্কাজনক হারে বেড়েছে। সংঘবদ্ধ চোরদের দৌরাত্ম্যে অসহায় হয়ে পড়েছেন মোটরসাইকেলের মালিকেরা। একের পর এক মোটরসাইকেল চুরির ঘটনা ঘটছে। প্রতিটি চুরির ঘটনায় থানায় জিডি বা অভিযোগ হলেও চোরেরা থেকে যাচ্ছে ধরা ছোঁয়ার বাইরে। শখের মোটরসাইকেল হারিয়ে মালিকেরা দিশেহারা হয়ে বিভিন্ন জায়গায় খোঁজ করেও কোনো হদিস বের করতে না পেরে হতাশ হয়ে পড়েছেন।এবং তাদের চুরি যাওয়া মোটরসাইকেল ফেরত পাওয়ার আশা ছেড়ে দিয়েছেন। এ পর্যন্ত চুরি যাওয়া একটি মোটরসাইকেলও আইনশৃঙ্খলা বাহিনী উদ্ধার করতে পারেনি।
জানা গেছে, চলতি সেপ্টেম্বর মাসেই ঝিকরগাছা থেকে ৩টি মোটরসাইকেল চুরি হয়েছে। গত রবিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) রাতে শ্রীরামপুর গ্রামের সবুজের বাড়ির কলাপসিবল গেটের তালা ভেঙে ঘরের দরজা খুলে একটি হিরো স্প্লেন্ডার মটরসাইকেল চুরি করে নিয়ে গেছে। ভুক্তভোগী সবুজ হোসেন, গতকাল সোমবার (২৬ সেপ্টেম্বর) এ বিষয়ে থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।
গত ৯ সেপ্টেম্বর ঝিকরগাছা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে কাশিপুর গ্রামের এক ব্যক্তির মোটরসাইকেল চোরেরা চুরি করে নিয়ে গেছে। সিসিটিভি ফুটেজ থাকলেও এখনও পর্যন্ত চোর সনাক্ত বা গাড়ি খুঁজে পাওয়া যায়নি। এরমধ্যে ঝিকরগাছা মাছ বাজার থেকে ব্যবসায়ী রবিউল ইসলামের একটি ডিসকভার মোটরসাইকেল চুরি হয়ে গিয়েছে। কয়েক বছর আগে একই জায়গা থেকে সাবেক জেলা পরিষদ সদস্য ইকবাল আহমেদ রবির ডিসকভার ১৩৫ সিসির গাড়ি চোরেরা নিয়ে যায়। কৃষ্ণনগর ৩নং ওয়ার্ডের তরিকুল ইসলাম লিটনের একটি এবং পানিসারা কুলিয়া গ্রামের সোহেলের একটি পালসার মোটরসাইকেল জানাজার নামাজ আদায়ের সময় চুরি হয়ে যায়। লক্ষীপুর গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য এবং শিক্ষক ইসমাইল হোসেনের একটি, লুৎফর রহমানের ছেলে সোহাগের একটি, শিক্ষক মনিরুজ্জামান মিঠুর একটি নতুন পালসার, লাউজানি হাইস্কুলের শিক্ষক আশরাফুল আলমের একটি, কাশিপুর হাইস্কুলের শিক্ষক সরোয়ার আলমের একটি, কৃষ্ণনগরের শাওন রেজা খোকার একটি পালসার এবং (তার আপন চাচা) মোর্তজা রেজা মনির নতুুন ইয়ামাহা এফ জেড, ঝিকরগাছা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সাবেক আবাসিক মেডিকেল অফিসার রাজিবুল ইসলামের একটি, ঝিকরগাছা মহিলা কলেজের প্রভাষক মিলনের একটি সহ এরকম আরও অনেকেরই মোটরসাইকেল চুরি হয়েছে। এরমধ্যে অধিকাংশ গাড়িই দিনের আলোতে চোরেরা চুরি করে নিয়ে গেছে।
চোরের উৎপাতে মোটরসাইকেল মালিকদের মাঝে সবসময় আতংক বিরাজ করছে…কখন না জানি কার সখের মোটরসাইকেলটি চুরি হয়ে যায়। বিভিন্ন সময়ে আন্তঃজেলা মোটরসাইকেল চোর চক্রের অনেক সদস্য গ্রেপ্তার হলেও ঝিকরগাছা থেকে চুরি যাওয়া এসব গাড়ির কোনো সন্ধান পাওয়া যায়নি।
এবিষয়ে জানতে চাইলে ঝিকরগাছা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুমন ভক্ত বলেন, মোটরসাইকেল উদ্ধার তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে। ইতিমধ্যে গঙ্গানন্দপুর একটি চোরাই মোটরসাইকেল উদ্ধার করা হয়েছে এবং ওই সময় একজন চোরকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। তবে ভুক্তভোগীগন এ বিষয়ে পুলিশের আরও বেশী ভুমিকা রাখার দাবি জানিয়েছেন।
বার্তা/এন

বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।
%d bloggers like this: