রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২৩ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

খুলনা জেলা পরিষদ নির্বাচনে আচরণবিধি লংঘনের অভিযোগ

খুলনা জেলা পরিষদ নির্বাচনে আচরণবিধি লংঘন ও প্রভাব খাটিয়ে কেন্দ্র পরিবর্তনের অভিযোগ এনেছেন স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী এস এম মোর্ত্তজা রশিদী দারা। তিনি খুলনার সিটি মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেকের বিরুদ্ধে আওয়ামী লীগ প্রার্থী শেখ হারুনুর রশিদের পক্ষে ভোটারদের হুমকি ও ভোট প্রদানের অভিযোগ করেন।
বৃহস্পতিবার (০৬ অক্টোবর) দুপুরে খুলনার রির্টানিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক বরাবর প্রার্থী দারা এ অভিযোগ দেন। স্থানীয় সরকারের উপপরিচালক মো. ইউসুফ আলী এ আবেদন গ্রহণ করেন।
লিখিত অভিযোগে মোর্তুজা রশিদী দারা বলেন, ‘গত ৩ অক্টোবর খুলনা ক্লাবে জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান প্রার্থী শেখ হারুনুর রশিদের (মটর সাইকেল মার্কা) সভাপতিত্বে একটি সভা অনুষ্ঠিত হয়। সেই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন প্রতিমন্ত্রী পদমর্যাদার খুলনা সিটি করপোরেশনের মেয়র তালুকদার আবদুল খালেক। তিনি জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান প্রার্থীর (মটর সাইকেল মার্কা) পক্ষে ভোট চান। তিনি ভোটারদের কাছ থেকে ভোট বুঝে নেওয়ারও দেন। যা অবাধ ও সুষ্ঠ নির্বাচন আয়োজনের পথকে রুদ্ধ করেছে।
অপর এক অভিযোগে দারা আরো বলেন, খুলনা জেলা পরিষদ নির্বাচনের জন্য ৯ টি ওয়ার্ডে ৯টি ভোট কেন্দ্রের বিষয় জানানো হলেও সিটি করপোরেশন ও রূপসা উপজেলার ভোটারদের জন্য আলাদা কেন্দ্রসহ ১০ কেন্দ্র করা হয়েছে। সিটি মেয়রের ভোট বুঝে নেওয়ার হুমকি অনুযায়ী কর্পোরেশনের ৪২ টি ভোটের জন্য আলাদা কেন্দ্র স্থাপন করা হচ্ছে। এটি ভোট বুঝে নেয়ার একটি কৌশলগত দিক। তাই আমরা পূর্বের ৯টি কেন্দ্র বহালের দাবি জানাচ্ছি।
বার্তা/এন

দীর্ঘ ২৪ বছর পর একই মঞ্চে লতিফ সিদ্দিকী ও কাদের সিদ্দিকী

রাহুল-আথিয়া সাত পাকে বাঁধা পড়লেন

জাপার চেয়ারম্যান হিসেবে জি এম কাদেরের দায়িত্ব পালনে বাধা নেই

খুলনা জেলা পরিষদ নির্বাচনে আচরণবিধি লংঘনের অভিযোগ

প্রকাশের সময় : ০৮:১৬:৫২ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৭ অক্টোবর ২০২২
খুলনা জেলা পরিষদ নির্বাচনে আচরণবিধি লংঘন ও প্রভাব খাটিয়ে কেন্দ্র পরিবর্তনের অভিযোগ এনেছেন স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী এস এম মোর্ত্তজা রশিদী দারা। তিনি খুলনার সিটি মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেকের বিরুদ্ধে আওয়ামী লীগ প্রার্থী শেখ হারুনুর রশিদের পক্ষে ভোটারদের হুমকি ও ভোট প্রদানের অভিযোগ করেন।
বৃহস্পতিবার (০৬ অক্টোবর) দুপুরে খুলনার রির্টানিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক বরাবর প্রার্থী দারা এ অভিযোগ দেন। স্থানীয় সরকারের উপপরিচালক মো. ইউসুফ আলী এ আবেদন গ্রহণ করেন।
লিখিত অভিযোগে মোর্তুজা রশিদী দারা বলেন, ‘গত ৩ অক্টোবর খুলনা ক্লাবে জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান প্রার্থী শেখ হারুনুর রশিদের (মটর সাইকেল মার্কা) সভাপতিত্বে একটি সভা অনুষ্ঠিত হয়। সেই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন প্রতিমন্ত্রী পদমর্যাদার খুলনা সিটি করপোরেশনের মেয়র তালুকদার আবদুল খালেক। তিনি জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান প্রার্থীর (মটর সাইকেল মার্কা) পক্ষে ভোট চান। তিনি ভোটারদের কাছ থেকে ভোট বুঝে নেওয়ারও দেন। যা অবাধ ও সুষ্ঠ নির্বাচন আয়োজনের পথকে রুদ্ধ করেছে।
অপর এক অভিযোগে দারা আরো বলেন, খুলনা জেলা পরিষদ নির্বাচনের জন্য ৯ টি ওয়ার্ডে ৯টি ভোট কেন্দ্রের বিষয় জানানো হলেও সিটি করপোরেশন ও রূপসা উপজেলার ভোটারদের জন্য আলাদা কেন্দ্রসহ ১০ কেন্দ্র করা হয়েছে। সিটি মেয়রের ভোট বুঝে নেওয়ার হুমকি অনুযায়ী কর্পোরেশনের ৪২ টি ভোটের জন্য আলাদা কেন্দ্র স্থাপন করা হচ্ছে। এটি ভোট বুঝে নেয়ার একটি কৌশলগত দিক। তাই আমরা পূর্বের ৯টি কেন্দ্র বহালের দাবি জানাচ্ছি।
বার্তা/এন