রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২৩ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

যশোরে ডিবি পুলিশের অভিযানে ১০ ডাকাত আটক অলংকারসহ লুণ্ডিত মালামাল উদ্ধার

যশোরের বাঘারপাড়া উপজেলায় কয়েকটি ডাকাতির ঘটনায় জড়িত সংঘবদ্ধ ডাকাত দলের সক্রিয় ১০ সদস্যকে আটক করেছে যশোর ডিবি পুলিশের সদস্যরা। ২৯ ও ৩০ নভেম্বর ভোর পর্যন্ত গোপালগঞ্জ নড়াইল ও খুলনা এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়। এসময় লুুণ্ঠিত মালামালের মধ্যে ৪ ভরি ১১ আনা স্বর্ণালংকার, মোবাইল ফোন, ২২ হাজার টাকা, রাম দা গাছি দা খেলনা পিস্তল, মাস্টার চাবি উদ্ধার করা হয়। ডাকাতদল বাঘারপাড়ার করিমপুরসহ ওই এলাকায় ৪টি ডাকাতির ঘটনা ঘটিয়েছে। ডাকাত দলের সদস্যরা যশোর শহরের বিভিন্ন এলাকায় বসবাস করে ডাকাতি করার প্রস্তুতি ও তথ্য সংগ্রহ করে। গত সোমবার যশোর শহরতলী আরবপুর ইউনিয়নে পতেঙ্গালি গ্রামে ও এর আগে তপসীডাঙ্গা গ্রামে ডাকাতি সংঘটিত হয়।
বুধবার সকালে যশোর ডিবির অফিসার ইনচার্জ রুপম কুমার সরকার এক প্রেস ব্রিফিং এসব তথ্য জানান। তিনি জানান, আইটি এক্সপার্ট টিমের তদন্ত ও অভিযানে বিভিন্ন এলাকা থেকে ডিবি পুলিশের অভিযানে আটককৃত ডাকাতরা হচ্ছে গোপালগঞ্জের তরিকুল ইসলাম, সবুজ আলী, বোরহান সরদার, নড়াইলের আরজ আলী, নাদিম মাহমুদ, রুবেল সরদার, শাহ আলী বাবু, খুলনার ওহিদ মোল্লা, আফরোজা ও সুনাম বিশ্বাস।
যশোর ডিবির অফিসার ইনচার্জ রুপম কুমার সরকার আরো বলেন,যশোর জেলার বাঘারপাড়া করিমপুরের ডাকাতি ঘটনায় আরাফাত হোসেনের করা মামলায় আটকৃতদের আদালতে চালান দেয়া হবে। আটককৃত ডাকাত দলের বিরুদ্ধে একাধিক হত্যা, ডাকাতি, চুরি মামলা তদন্ত ও বিচারাধীন রয়েছে বিভিন্ন থানা ও আদালতে।

দীর্ঘ ২৪ বছর পর একই মঞ্চে লতিফ সিদ্দিকী ও কাদের সিদ্দিকী

রাহুল-আথিয়া সাত পাকে বাঁধা পড়লেন

গ্রন্থাগার দিবসের প্রতিপাদ্য ‘স্মার্ট গ্রন্থাগার, স্মার্ট বাংলাদেশ : মতিয়া চৌধুরী

যশোরে ডিবি পুলিশের অভিযানে ১০ ডাকাত আটক অলংকারসহ লুণ্ডিত মালামাল উদ্ধার

প্রকাশের সময় : ০৩:১৭:৩৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২
যশোরের বাঘারপাড়া উপজেলায় কয়েকটি ডাকাতির ঘটনায় জড়িত সংঘবদ্ধ ডাকাত দলের সক্রিয় ১০ সদস্যকে আটক করেছে যশোর ডিবি পুলিশের সদস্যরা। ২৯ ও ৩০ নভেম্বর ভোর পর্যন্ত গোপালগঞ্জ নড়াইল ও খুলনা এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়। এসময় লুুণ্ঠিত মালামালের মধ্যে ৪ ভরি ১১ আনা স্বর্ণালংকার, মোবাইল ফোন, ২২ হাজার টাকা, রাম দা গাছি দা খেলনা পিস্তল, মাস্টার চাবি উদ্ধার করা হয়। ডাকাতদল বাঘারপাড়ার করিমপুরসহ ওই এলাকায় ৪টি ডাকাতির ঘটনা ঘটিয়েছে। ডাকাত দলের সদস্যরা যশোর শহরের বিভিন্ন এলাকায় বসবাস করে ডাকাতি করার প্রস্তুতি ও তথ্য সংগ্রহ করে। গত সোমবার যশোর শহরতলী আরবপুর ইউনিয়নে পতেঙ্গালি গ্রামে ও এর আগে তপসীডাঙ্গা গ্রামে ডাকাতি সংঘটিত হয়।
বুধবার সকালে যশোর ডিবির অফিসার ইনচার্জ রুপম কুমার সরকার এক প্রেস ব্রিফিং এসব তথ্য জানান। তিনি জানান, আইটি এক্সপার্ট টিমের তদন্ত ও অভিযানে বিভিন্ন এলাকা থেকে ডিবি পুলিশের অভিযানে আটককৃত ডাকাতরা হচ্ছে গোপালগঞ্জের তরিকুল ইসলাম, সবুজ আলী, বোরহান সরদার, নড়াইলের আরজ আলী, নাদিম মাহমুদ, রুবেল সরদার, শাহ আলী বাবু, খুলনার ওহিদ মোল্লা, আফরোজা ও সুনাম বিশ্বাস।
যশোর ডিবির অফিসার ইনচার্জ রুপম কুমার সরকার আরো বলেন,যশোর জেলার বাঘারপাড়া করিমপুরের ডাকাতি ঘটনায় আরাফাত হোসেনের করা মামলায় আটকৃতদের আদালতে চালান দেয়া হবে। আটককৃত ডাকাত দলের বিরুদ্ধে একাধিক হত্যা, ডাকাতি, চুরি মামলা তদন্ত ও বিচারাধীন রয়েছে বিভিন্ন থানা ও আদালতে।