রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৩ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

‘পশ্চিমাদের সিদ্ধান্তহীনতার কারণে ইউক্রেনের মানুষ মরছে‌‌’

ইউক্রেনে লেপার্ড ট্যাংক পাঠানোর ব্যাপারে সিদ্ধান্তহীনতায় ভুগছে জার্মানি। একইভাবে রাশিয়ার ভয়ে ইউরোপীয় এবং পশ্চিমারা ইউক্রেনকে বিভিন্ন সাহায্য পাঠানোর ব্যাপারে প্রায়ই সিদ্ধান্তহীনতায় থাকে। আর এ কারণে দিন দিন ইউক্রেনের আরও মানুষ মারা যাচ্ছে। এমন দাবি ইউক্রেনের। খবর আলজাজিরার

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্টের উপদেষ্টা মিখাইলো পোডোলিয়াক গতকাল শনিবার টুইট করেছেন, ‘আজকের সিদ্ধান্তহীনতা আমাদের আরও বেশি লোককে হত্যা করছে। যত দেরি হবে, তত বাড়বে ইউক্রেনীয়দের মৃত্যু। দ্রুত চিন্তা করুন।’

গত শুক্রবার প্রায় ৫০টি দেশ ইউক্রেনকে কয়েক’শ কোটি ডলার মূল্যের ভারী সামরিক অস্ত্র সরবরাহ করতে সম্মত হয়েছে। এর মধ্যে আছে সাঁজোয়া যান এবং যুদ্ধাস্ত্র। কিয়েভকে রুশ বাহিনীর আক্রমণের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে সহায়তা করতেই এ সহায়তা দেওয়া হচ্ছে।

রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধে ট্যাংক সরবরাহ করার জন্য যথেষ্ট চাপের মধ্যে রয়েছে জার্মানি। জার্মানির প্রতিরক্ষামন্ত্রী বরিস পিস্টোরিয়াস বলেছেন, ‘আমরা এখনো বলতে পারি না, কখন সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে এবং সিদ্ধান্ত কী হবে। লেপার্ড ট্যাংকের কথা ওঠার পর এ প্রশ্ন দেখা দিয়েছে।’

গতকাল লাটভিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী এডগারস রিংকেভিক্স তিনটি বাল্টিক রাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের একটি যৌথ বিবৃতি টুইট করেছেন। সেখানে তারা ‘এখনই ইউক্রেনকে লেপার্ড ট্যাংক সরবরাহ করার’ জন্য জার্মানিকে আহ্বান জানিয়েছেন।

আমার লিডার ইমরান খান, অন্য কেউ না : পিটিআই নেতা

‘পশ্চিমাদের সিদ্ধান্তহীনতার কারণে ইউক্রেনের মানুষ মরছে‌‌’

প্রকাশের সময় : ০১:১৯:৫৬ অপরাহ্ন, রবিবার, ২২ জানুয়ারী ২০২৩

ইউক্রেনে লেপার্ড ট্যাংক পাঠানোর ব্যাপারে সিদ্ধান্তহীনতায় ভুগছে জার্মানি। একইভাবে রাশিয়ার ভয়ে ইউরোপীয় এবং পশ্চিমারা ইউক্রেনকে বিভিন্ন সাহায্য পাঠানোর ব্যাপারে প্রায়ই সিদ্ধান্তহীনতায় থাকে। আর এ কারণে দিন দিন ইউক্রেনের আরও মানুষ মারা যাচ্ছে। এমন দাবি ইউক্রেনের। খবর আলজাজিরার

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্টের উপদেষ্টা মিখাইলো পোডোলিয়াক গতকাল শনিবার টুইট করেছেন, ‘আজকের সিদ্ধান্তহীনতা আমাদের আরও বেশি লোককে হত্যা করছে। যত দেরি হবে, তত বাড়বে ইউক্রেনীয়দের মৃত্যু। দ্রুত চিন্তা করুন।’

গত শুক্রবার প্রায় ৫০টি দেশ ইউক্রেনকে কয়েক’শ কোটি ডলার মূল্যের ভারী সামরিক অস্ত্র সরবরাহ করতে সম্মত হয়েছে। এর মধ্যে আছে সাঁজোয়া যান এবং যুদ্ধাস্ত্র। কিয়েভকে রুশ বাহিনীর আক্রমণের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে সহায়তা করতেই এ সহায়তা দেওয়া হচ্ছে।

রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধে ট্যাংক সরবরাহ করার জন্য যথেষ্ট চাপের মধ্যে রয়েছে জার্মানি। জার্মানির প্রতিরক্ষামন্ত্রী বরিস পিস্টোরিয়াস বলেছেন, ‘আমরা এখনো বলতে পারি না, কখন সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে এবং সিদ্ধান্ত কী হবে। লেপার্ড ট্যাংকের কথা ওঠার পর এ প্রশ্ন দেখা দিয়েছে।’

গতকাল লাটভিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী এডগারস রিংকেভিক্স তিনটি বাল্টিক রাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের একটি যৌথ বিবৃতি টুইট করেছেন। সেখানে তারা ‘এখনই ইউক্রেনকে লেপার্ড ট্যাংক সরবরাহ করার’ জন্য জার্মানিকে আহ্বান জানিয়েছেন।