বৃহস্পতিবার, ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

মাতৃভাষার জন্য জীবন দেয়া পৃথিবীর মধ্যে অনন্য উদাহরণ : সেনাবাহিনী প্রধান

বাংলাদেশ সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল এসএম শফি উদ্দিন আহমেদ বলেছেন, ‘আজ আমরা মাতৃভাষায় কথা বলছি। পৃথিবীর মধ্যে এটি একটি অনন্য উদাহরণ যে, মাতৃভাষার জন্য আন্দোলন করে মানুষ প্রাণ দিয়েছেন এবং মাতৃভাষাকে প্রতিষ্ঠিত করে গেছেন। আমরা এখানে আসতাম না, যদি না বাংলাদেশ স্বাধীন হতো। তাই আজকের দিনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানসহ সেইসব ভাষা শহীদ ও মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের গভীর শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করছি।’
শুক্রবার (০৩ ফেব্রুয়ারী) সকালে পাবনা ক্যাডেট কলেজের প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের ৮ম পূর্ণমিলনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।
সেনাপ্রধান আরও বলেন, পূর্বের চেয়ে বর্তমানে অভূতপূর্ব উন্নয়ন হয়েছে ক্যাডেট কলেজগুলোতে। তন্মধ্যে পাবনাও অন্যতম। অনেক আগে একবার পাবনা ক্যাডেট কলেজ এসেছিলাম। তখন থেকে এখন অনেক পরিবর্তন হয়েছে। ইতিবাচক অনেক উন্নয়ন হয়েছে।
তিনি বলেন, বর্তমান ক্যাডেট ও সাবেক ক্যাডেটদের মধ্যে পারস্পারিক সম্পর্কের মেলবন্ধন হলো পূর্ণমিলনী। আর পূর্ণমিলনী অনুষ্ঠানের প্রধান আকর্ষণ সমন্বিত পূর্ণমিলনী প্যারেড। বিভিন্ন স্থান থেকে আসা সাবেক ক্যাডেটদের সাথে বর্তমান ক্যাডেটদের এক সুন্দর ও গুরুত্বপূর্ণ স্মৃতিবহণ করে এবং এক অভিন্ন মেলবন্ধনে আবদ্ধ হয়।
পাবনা ক্যাডেট কলেজ ক্যাম্পাস প্রাঙ্গণে  দিনব্যাপী পূর্ণমিলনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ক্যাডেটদের জন্য নবনির্মিত তিনটি বাসভবনের উদ্বোধন করেন। পুনর্মিলনীতে আগত প্রাক্তন ছাত্রদের সাথে মতবিনিময় ছাড়াও পুনর্মিলনী উপলক্ষে আয়োজিত রিইউনিয়ন কুচকাওয়াজ প্রদর্শন, বৃক্ষরোপনসহ নানা অনুষ্ঠানমালাতে অংশগ্রহণ করেন সেনাপ্রধান।
এ সময় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, ডিজিএফআইয়ের মহাপরিচালক মেজর জেনারেল টি এম জোবায়ের, বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর এ্যাডজুটেন্ট জেনারেল মেজর জেনারেল নজরুল ইসলামসহ আরও অনেকে।
এছাড়াও অনুষ্ঠানে পাবনা ক্যাডেট কলেজের প্রাক্তন ছাত্রগণ, স্থানীয় ফরমেশনের ঊর্ধ্বতন সামরিক কর্মকর্তাবৃন্দ, স্থানীয় বেসামরিক প্রশাসনের কর্মকর্তা, পাবনা ক্যাডেট কলেজের অধ্যক্ষ, শিক্ষকগণ, গণমাধ্যম ব্যক্তিবর্গ, বেসামরিক ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

অবশেষে জল্পনা সত্যি! মা হচ্ছেন দীপিকা

মাতৃভাষার জন্য জীবন দেয়া পৃথিবীর মধ্যে অনন্য উদাহরণ : সেনাবাহিনী প্রধান

প্রকাশের সময় : ০৯:০৬:১৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৩

বাংলাদেশ সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল এসএম শফি উদ্দিন আহমেদ বলেছেন, ‘আজ আমরা মাতৃভাষায় কথা বলছি। পৃথিবীর মধ্যে এটি একটি অনন্য উদাহরণ যে, মাতৃভাষার জন্য আন্দোলন করে মানুষ প্রাণ দিয়েছেন এবং মাতৃভাষাকে প্রতিষ্ঠিত করে গেছেন। আমরা এখানে আসতাম না, যদি না বাংলাদেশ স্বাধীন হতো। তাই আজকের দিনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানসহ সেইসব ভাষা শহীদ ও মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের গভীর শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করছি।’
শুক্রবার (০৩ ফেব্রুয়ারী) সকালে পাবনা ক্যাডেট কলেজের প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের ৮ম পূর্ণমিলনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।
সেনাপ্রধান আরও বলেন, পূর্বের চেয়ে বর্তমানে অভূতপূর্ব উন্নয়ন হয়েছে ক্যাডেট কলেজগুলোতে। তন্মধ্যে পাবনাও অন্যতম। অনেক আগে একবার পাবনা ক্যাডেট কলেজ এসেছিলাম। তখন থেকে এখন অনেক পরিবর্তন হয়েছে। ইতিবাচক অনেক উন্নয়ন হয়েছে।
তিনি বলেন, বর্তমান ক্যাডেট ও সাবেক ক্যাডেটদের মধ্যে পারস্পারিক সম্পর্কের মেলবন্ধন হলো পূর্ণমিলনী। আর পূর্ণমিলনী অনুষ্ঠানের প্রধান আকর্ষণ সমন্বিত পূর্ণমিলনী প্যারেড। বিভিন্ন স্থান থেকে আসা সাবেক ক্যাডেটদের সাথে বর্তমান ক্যাডেটদের এক সুন্দর ও গুরুত্বপূর্ণ স্মৃতিবহণ করে এবং এক অভিন্ন মেলবন্ধনে আবদ্ধ হয়।
পাবনা ক্যাডেট কলেজ ক্যাম্পাস প্রাঙ্গণে  দিনব্যাপী পূর্ণমিলনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ক্যাডেটদের জন্য নবনির্মিত তিনটি বাসভবনের উদ্বোধন করেন। পুনর্মিলনীতে আগত প্রাক্তন ছাত্রদের সাথে মতবিনিময় ছাড়াও পুনর্মিলনী উপলক্ষে আয়োজিত রিইউনিয়ন কুচকাওয়াজ প্রদর্শন, বৃক্ষরোপনসহ নানা অনুষ্ঠানমালাতে অংশগ্রহণ করেন সেনাপ্রধান।
এ সময় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, ডিজিএফআইয়ের মহাপরিচালক মেজর জেনারেল টি এম জোবায়ের, বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর এ্যাডজুটেন্ট জেনারেল মেজর জেনারেল নজরুল ইসলামসহ আরও অনেকে।
এছাড়াও অনুষ্ঠানে পাবনা ক্যাডেট কলেজের প্রাক্তন ছাত্রগণ, স্থানীয় ফরমেশনের ঊর্ধ্বতন সামরিক কর্মকর্তাবৃন্দ, স্থানীয় বেসামরিক প্রশাসনের কর্মকর্তা, পাবনা ক্যাডেট কলেজের অধ্যক্ষ, শিক্ষকগণ, গণমাধ্যম ব্যক্তিবর্গ, বেসামরিক ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।