বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আজ শুক্রবার রাত ১২টা থেকে মোটরসাইকেল চলাচল বন্ধ

  • ঢাকা ব্যুরো।।
  • প্রকাশের সময় : ১০:৩৬:১৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৫ জানুয়ারী ২০২৪
  • ১৮

 আসন্ন ভোটে নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে শুক্রবার (৫ জানুয়ারি) রাত ১২টা থেকে মোটরসাইকেল চলাচল বন্ধ হয়ে যাবে। শনিবার রাত থেকে বন্ধ হবে ট্যাক্সি, মাইক্রোবাস, ট্রাকসহ আরো কিছু যানবাহন।

আগামী রবিবার (৭ জানুয়ারি) অনুষ্ঠিত হবে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন। ভোট গ্রহণে সুষ্ঠু পরিবেশ নিশ্চিত করতে এর আগে যানবাহন চলাচলের ওপর বেশকিছু নির্দেশনা দিয়ে পরিপত্র জারি করে স্বরাষ্ট্র স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

পরিপত্রে বলা হয়, শুক্রবার রাত ১২টা থেকে সোমবার রাত ১২টা পর্যন্ত অর্থাৎ ৭২ ঘণ্টা নির্বাচনী এলাকায় মোটরসাইকেল চলাচলের ওপর নিষেধাজ্ঞা থাকবে।

তবে রিটার্নিং কর্মকর্তার অনুমতি নিয়ে সাংবাদিক, পর্যবেক্ষক বা জরুরি কাজে ব্যবহৃত মোটরসাইকেল চলাচল করতে পারবে।

এদিকে শনিবার রাত ১২টা থেকে রোববার রাত ১২টা পর্যন্ত অর্থাৎ ২৪ ঘণ্টা বন্ধ থাকবে আরো কিছু যানবাহন। এসবের মধ্যে রয়েছে, ট্যাক্সিক্যাব, মাইক্রোবাস, পিকআপ, ট্রাক, লঞ্চ, ইঞ্জিনচালিত বোটসহ (নির্দিষ্ট রুটে চলাচলকারী ব্যতীত) অন্যান্য যানবাহন।

এবার ভোটের দিন প্রাইভেটকার, সিএনজিচালিত অটোরিকশা ও গণপরিবহন চলাচল করতে পারবে।

প্রার্থী, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী, সশস্ত্র বাহিনী, প্রশাসন ও অনুমতিপ্রাপ্ত পর্যবেক্ষক এবং নির্বাচনী এজেন্টরা যানবাহন ব্যবহার করতে পারবেন।

তবে পর্যবেক্ষক ও পোলিং এজেন্টদের যানবাহনে নির্বাচন কমিশনের স্টিকার ব্যবহার করতে হবে। জাতীয় মহাসড়কগুলোর ক্ষেত্রে এই নিষেধাজ্ঞা প্রযোজ্য হবে না।

আজ শুক্রবার রাত ১২টা থেকে মোটরসাইকেল চলাচল বন্ধ

প্রকাশের সময় : ১০:৩৬:১৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৫ জানুয়ারী ২০২৪

 আসন্ন ভোটে নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে শুক্রবার (৫ জানুয়ারি) রাত ১২টা থেকে মোটরসাইকেল চলাচল বন্ধ হয়ে যাবে। শনিবার রাত থেকে বন্ধ হবে ট্যাক্সি, মাইক্রোবাস, ট্রাকসহ আরো কিছু যানবাহন।

আগামী রবিবার (৭ জানুয়ারি) অনুষ্ঠিত হবে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন। ভোট গ্রহণে সুষ্ঠু পরিবেশ নিশ্চিত করতে এর আগে যানবাহন চলাচলের ওপর বেশকিছু নির্দেশনা দিয়ে পরিপত্র জারি করে স্বরাষ্ট্র স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

পরিপত্রে বলা হয়, শুক্রবার রাত ১২টা থেকে সোমবার রাত ১২টা পর্যন্ত অর্থাৎ ৭২ ঘণ্টা নির্বাচনী এলাকায় মোটরসাইকেল চলাচলের ওপর নিষেধাজ্ঞা থাকবে।

তবে রিটার্নিং কর্মকর্তার অনুমতি নিয়ে সাংবাদিক, পর্যবেক্ষক বা জরুরি কাজে ব্যবহৃত মোটরসাইকেল চলাচল করতে পারবে।

এদিকে শনিবার রাত ১২টা থেকে রোববার রাত ১২টা পর্যন্ত অর্থাৎ ২৪ ঘণ্টা বন্ধ থাকবে আরো কিছু যানবাহন। এসবের মধ্যে রয়েছে, ট্যাক্সিক্যাব, মাইক্রোবাস, পিকআপ, ট্রাক, লঞ্চ, ইঞ্জিনচালিত বোটসহ (নির্দিষ্ট রুটে চলাচলকারী ব্যতীত) অন্যান্য যানবাহন।

এবার ভোটের দিন প্রাইভেটকার, সিএনজিচালিত অটোরিকশা ও গণপরিবহন চলাচল করতে পারবে।

প্রার্থী, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী, সশস্ত্র বাহিনী, প্রশাসন ও অনুমতিপ্রাপ্ত পর্যবেক্ষক এবং নির্বাচনী এজেন্টরা যানবাহন ব্যবহার করতে পারবেন।

তবে পর্যবেক্ষক ও পোলিং এজেন্টদের যানবাহনে নির্বাচন কমিশনের স্টিকার ব্যবহার করতে হবে। জাতীয় মহাসড়কগুলোর ক্ষেত্রে এই নিষেধাজ্ঞা প্রযোজ্য হবে না।