বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

যশোর-১ আসনে ৪ বারের নির্বাচিত এমপি শেখ আফিল উদ্দিনকে মন্ত্রী করার দাবি জনগনের

যশোর-১ (শার্শা) আসন থেকে টানা ৪ বারের নির্বাচিত সংসদ সদস্য আকিজ গ্রুপের পরিচালক, আফিল গ্রুপের মালিক আলহাজ্ব শেখ আফিল উদ্দিনকে মন্ত্রী হিসেবে দেখতে চায় তার নির্বাচনী এলাকার জনগণ। নির্বাচনে বিজয়ী হওয়ার পর বিভিন্ন সংবর্ধনায় তাকে মন্ত্রী করার দাবি ক্রমেই জোরালো হয়ে উঠেছে।

স্বাধীনতার পর থেকে যশোর-১ আসনটি ছিল আওয়ামী লীগের দখলে। মাঝে চলে যায় জামায়াত-বিএনপির দখলে।

২০০৮ সালে আওয়ামী লীগের শেখ আফিল উদ্দিন সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। এরপর ২০১৪ সালে শেখ আফিল উদ্দিন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন। এবারের নির্বাচনে তিনি বিপুল ভোটে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। দলমত নির্বিশেষে সকলের কাছে গ্রহণযোগ্য হওয়ায় গত ৪টি নির্বাচনেই তিনি জয়ের ধারা বজায় রাখতে সক্ষম হয়েছেন।
তার এই বিজয়ে স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা উজ্জীবিত, উদ্দীপ্ত।শার্শা উপজেলা চেয়ারম্যন ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সিরাজুল হক মঞ্জু বলেন, এবার জাতীয় নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী আলহাজ্ব শেখ আফিল উদ্দিনকে  ১ লাখ ৫ হাজার ৪৬৬ ভোটে বিজয়ী করেছি। আমরা শার্শা উপজেলাবাসী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে জোর দাবি জানাচ্ছি তিনি যেন শেখ আফিল উদ্দিনকে মন্ত্রীর আসন দিয়ে সর্বস্তরের মানুষের আশা পূরণ করেন।তিনি আরও বলেন সবার প্রত্যাশা রাজনীতিতে পরীক্ষিত, সৎ ও ক্লিন ইমেজের অধিকারী শেখ আফিল উদ্দিনকে এবার মন্ত্রী করবেন শেখ হাসিনা।
যশোর-১ আসনে পর পর ৪ বারের বিজয়ী   সাংসদ, আমাদের শার্শাবাসীর প্রাণপ্রিয় নেতা আলহাজ্ব শেখ আফিল উদ্দিনের নাম মন্ত্রী পরিষদের তালিকায় আনার প্রস্তাব শার্শাবাসী অবশ্যই দাবি জানাতে পারে।

যশোর-১ আসনে ৪ বারের নির্বাচিত এমপি শেখ আফিল উদ্দিনকে মন্ত্রী করার দাবি জনগনের

প্রকাশের সময় : ১০:১১:২৫ অপরাহ্ন, রবিবার, ৭ জানুয়ারী ২০২৪

যশোর-১ (শার্শা) আসন থেকে টানা ৪ বারের নির্বাচিত সংসদ সদস্য আকিজ গ্রুপের পরিচালক, আফিল গ্রুপের মালিক আলহাজ্ব শেখ আফিল উদ্দিনকে মন্ত্রী হিসেবে দেখতে চায় তার নির্বাচনী এলাকার জনগণ। নির্বাচনে বিজয়ী হওয়ার পর বিভিন্ন সংবর্ধনায় তাকে মন্ত্রী করার দাবি ক্রমেই জোরালো হয়ে উঠেছে।

স্বাধীনতার পর থেকে যশোর-১ আসনটি ছিল আওয়ামী লীগের দখলে। মাঝে চলে যায় জামায়াত-বিএনপির দখলে।

২০০৮ সালে আওয়ামী লীগের শেখ আফিল উদ্দিন সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। এরপর ২০১৪ সালে শেখ আফিল উদ্দিন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন। এবারের নির্বাচনে তিনি বিপুল ভোটে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। দলমত নির্বিশেষে সকলের কাছে গ্রহণযোগ্য হওয়ায় গত ৪টি নির্বাচনেই তিনি জয়ের ধারা বজায় রাখতে সক্ষম হয়েছেন।
তার এই বিজয়ে স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা উজ্জীবিত, উদ্দীপ্ত।শার্শা উপজেলা চেয়ারম্যন ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সিরাজুল হক মঞ্জু বলেন, এবার জাতীয় নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী আলহাজ্ব শেখ আফিল উদ্দিনকে  ১ লাখ ৫ হাজার ৪৬৬ ভোটে বিজয়ী করেছি। আমরা শার্শা উপজেলাবাসী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে জোর দাবি জানাচ্ছি তিনি যেন শেখ আফিল উদ্দিনকে মন্ত্রীর আসন দিয়ে সর্বস্তরের মানুষের আশা পূরণ করেন।তিনি আরও বলেন সবার প্রত্যাশা রাজনীতিতে পরীক্ষিত, সৎ ও ক্লিন ইমেজের অধিকারী শেখ আফিল উদ্দিনকে এবার মন্ত্রী করবেন শেখ হাসিনা।
যশোর-১ আসনে পর পর ৪ বারের বিজয়ী   সাংসদ, আমাদের শার্শাবাসীর প্রাণপ্রিয় নেতা আলহাজ্ব শেখ আফিল উদ্দিনের নাম মন্ত্রী পরিষদের তালিকায় আনার প্রস্তাব শার্শাবাসী অবশ্যই দাবি জানাতে পারে।