সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মহালছড়িতে ইউপিডিএফ সদস্যকে হত্যার প্রতিবাদে পানছড়িতে বিক্ষোভ

মহালছড়িতে সেনা মদদপুষ্ট ঠ্যাঙাড়ে নব্যমুখোশ-সংস্কারবাদী জেএসএস কর্তৃক রবি কুমার চাকমা ও বিমল চাকমাকে হত্যার প্রতিবাদে পানছড়িতে তাৎক্ষণিকভাবে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাাবেশ করেছে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ, গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম, হিল উইমেন্স ফেডারেশন ও পার্বত্য চট্টগ্রাম নারী সংঘ পানছড়ি উপজেলা শাখা।
আজ বুধবার (২৪ জানুয়ারি ২০২৪, বিকাল ৩টায় পানছড়ির মুনিপুর থেকে একটি মিছিল বের করা হয়। মিছিলটি বড়কলক ঘুরে মুনিপুর বাজারে প্রতিবাদ সমাবেশের মধ্য দিয়ে শেষ হয়।
সমাবেশে বক্তব্য রাখেন ইউপিডিএফ সংগঠক সুবোধ চাকমা, পার্বত্য চট্টগ্রাম নারী সংঘের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক পরিণীতা চাকমা, হিল উইমেন্স ফেডারেশনের খাগড়াছড়ি জেলা আহ্বায়ক এন্টি চাকমা, গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের পানছড়ি উপজেলা শাখার সভাপতি রিপন চাকমা ও পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের নেতা সুনীল ময় চাকমা।
বক্তারা মহালছড়িতে দুই ইউপিডিএফ সদস্যকে হত্যার ঘটনা রাষ্ট্রীয় বাহিনীর ধারাবাহিক পরিকল্পনারই অংশ মন্তব্য করে এ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানান।
বক্তারা বলেন, রাষ্ট্রীয় বাহিনীর কায়েমী স্বার্থবাদী অংশটি তাদের সৃষ্ট ঠ্যাঙাড়ে নব্যমুখোশ-সংস্কারবাদী সন্ত্রাসীদের লেলিয়ে দিয়ে ইউপিডিএফ নেতা-কর্মীদের ওপর হত্যাকাণ্ড চালাচ্ছে। গত ১১ ডিসেম্বর পানছড়িতে বিপুল চাকমাসহ চার যুব নেতাকে হত্যার রেশ কাটতে না কাটতে আজ আবারো মহালছড়িতে হত্যাকাণ্ড সংঘটিত করা হয়েছে।
বক্তারা অবিলম্বে মহালছড়িতে রবি কুমার ও বিমল চাকমার হত্যাকারীসহ বিপুল-সুনীল-লিটন-রুহিনের হত্যাকারীদের গ্রেফতারপূর্বক বিচার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি এবং ঠ্যাঙাড়ে বাহিনী ভেঙে দিয়ে সকল ঠ্যাঙাাড়েদের আইনের আ্ওতায় আনার দাবি জানান

বিএনপির নেতাকর্মীদের কারাগারে প্রেরণ সরকারের প্রধান কর্মসূচি -মির্জা ফখরুল

মহালছড়িতে ইউপিডিএফ সদস্যকে হত্যার প্রতিবাদে পানছড়িতে বিক্ষোভ

প্রকাশের সময় : ০৬:৪৩:৫০ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৪ জানুয়ারী ২০২৪
মহালছড়িতে সেনা মদদপুষ্ট ঠ্যাঙাড়ে নব্যমুখোশ-সংস্কারবাদী জেএসএস কর্তৃক রবি কুমার চাকমা ও বিমল চাকমাকে হত্যার প্রতিবাদে পানছড়িতে তাৎক্ষণিকভাবে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাাবেশ করেছে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ, গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম, হিল উইমেন্স ফেডারেশন ও পার্বত্য চট্টগ্রাম নারী সংঘ পানছড়ি উপজেলা শাখা।
আজ বুধবার (২৪ জানুয়ারি ২০২৪, বিকাল ৩টায় পানছড়ির মুনিপুর থেকে একটি মিছিল বের করা হয়। মিছিলটি বড়কলক ঘুরে মুনিপুর বাজারে প্রতিবাদ সমাবেশের মধ্য দিয়ে শেষ হয়।
সমাবেশে বক্তব্য রাখেন ইউপিডিএফ সংগঠক সুবোধ চাকমা, পার্বত্য চট্টগ্রাম নারী সংঘের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক পরিণীতা চাকমা, হিল উইমেন্স ফেডারেশনের খাগড়াছড়ি জেলা আহ্বায়ক এন্টি চাকমা, গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের পানছড়ি উপজেলা শাখার সভাপতি রিপন চাকমা ও পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের নেতা সুনীল ময় চাকমা।
বক্তারা মহালছড়িতে দুই ইউপিডিএফ সদস্যকে হত্যার ঘটনা রাষ্ট্রীয় বাহিনীর ধারাবাহিক পরিকল্পনারই অংশ মন্তব্য করে এ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানান।
বক্তারা বলেন, রাষ্ট্রীয় বাহিনীর কায়েমী স্বার্থবাদী অংশটি তাদের সৃষ্ট ঠ্যাঙাড়ে নব্যমুখোশ-সংস্কারবাদী সন্ত্রাসীদের লেলিয়ে দিয়ে ইউপিডিএফ নেতা-কর্মীদের ওপর হত্যাকাণ্ড চালাচ্ছে। গত ১১ ডিসেম্বর পানছড়িতে বিপুল চাকমাসহ চার যুব নেতাকে হত্যার রেশ কাটতে না কাটতে আজ আবারো মহালছড়িতে হত্যাকাণ্ড সংঘটিত করা হয়েছে।
বক্তারা অবিলম্বে মহালছড়িতে রবি কুমার ও বিমল চাকমার হত্যাকারীসহ বিপুল-সুনীল-লিটন-রুহিনের হত্যাকারীদের গ্রেফতারপূর্বক বিচার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি এবং ঠ্যাঙাড়ে বাহিনী ভেঙে দিয়ে সকল ঠ্যাঙাাড়েদের আইনের আ্ওতায় আনার দাবি জানান