বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ইউক্রেনকে ১১ কোটি মার্কিন ডলার সহায়তা দেবে জাপান

আগামী ১৯ ফেব্রুয়ারি টোকিওতে অনুষ্ঠিতব্য একটি সম্মেলনে জাপান ইউক্রেনকে ১৫.৮ বিলিয়ন ইয়েন (প্রায় ১১ কোটি মার্কিন ডলার) সাহায্যের প্রতিশ্রুতি দেবে। বিশেষ সূত্রের বরাত দিয়ে জাপানি সংবাদ সংস্থা কিয়োডো নিউজ আজ রোববার এ তথ্য জানিয়েছে।

কিয়োডো জানিয়েছে, কৃষি ও ধ্বংসস্তূপ নিষ্পত্তিসহ সাতটি ক্ষেত্রে পুনর্গঠনের জন্য ইউক্রেনকে এই অর্থ সহযোগিতা দেবে জাপান।

দেশটির জাতীয় টিভি চ্যানেল এনএইচকে জানিয়েছে, জাপানের প্রধানমন্ত্রী ফুমিও কিশিদা ও ইউক্রেনের প্রধানমন্ত্রী ডেনিস শ্যামিহাল, উভয় দেশের সরকারি ও শিল্প প্রতিনিধিদের সাথে সম্মেলনে যোগ দিতে প্রস্তুত।

রয়টার্সের খবরে বলা হয়েছে, গত বছরের ডিসেম্বরে জাপান তাদের অস্ত্র রপ্তানি আইন সংশোধন করার পরে বলেছিল, তারা যুক্তরাষ্ট্রে প্যাট্রিয়ট এয়ার ডিফেন্স মিসাইল সরবরাহের প্রস্তুতি নেবে।

জাপান তাদের আইন অনুযায়ী, যুদ্ধরত দেশগুলোতে অস্ত্র সরবরাহ করে না। তবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে এ ধরনের চালান কিয়েভকে সামরিক সহায়তা দেওয়ার জন্য ওয়াশিংটনের ক্ষমতা বাড়িয়ে ইউক্রেনকে পরোক্ষভাবে উপকৃত করতে পারে।

মৌলভীবাজারে প্রতিপক্ষের হামলার শিকার শিশু মিনহাজ বাদ পড়েনি 

ইউক্রেনকে ১১ কোটি মার্কিন ডলার সহায়তা দেবে জাপান

প্রকাশের সময় : ০৩:৫৪:২৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ১১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

আগামী ১৯ ফেব্রুয়ারি টোকিওতে অনুষ্ঠিতব্য একটি সম্মেলনে জাপান ইউক্রেনকে ১৫.৮ বিলিয়ন ইয়েন (প্রায় ১১ কোটি মার্কিন ডলার) সাহায্যের প্রতিশ্রুতি দেবে। বিশেষ সূত্রের বরাত দিয়ে জাপানি সংবাদ সংস্থা কিয়োডো নিউজ আজ রোববার এ তথ্য জানিয়েছে।

কিয়োডো জানিয়েছে, কৃষি ও ধ্বংসস্তূপ নিষ্পত্তিসহ সাতটি ক্ষেত্রে পুনর্গঠনের জন্য ইউক্রেনকে এই অর্থ সহযোগিতা দেবে জাপান।

দেশটির জাতীয় টিভি চ্যানেল এনএইচকে জানিয়েছে, জাপানের প্রধানমন্ত্রী ফুমিও কিশিদা ও ইউক্রেনের প্রধানমন্ত্রী ডেনিস শ্যামিহাল, উভয় দেশের সরকারি ও শিল্প প্রতিনিধিদের সাথে সম্মেলনে যোগ দিতে প্রস্তুত।

রয়টার্সের খবরে বলা হয়েছে, গত বছরের ডিসেম্বরে জাপান তাদের অস্ত্র রপ্তানি আইন সংশোধন করার পরে বলেছিল, তারা যুক্তরাষ্ট্রে প্যাট্রিয়ট এয়ার ডিফেন্স মিসাইল সরবরাহের প্রস্তুতি নেবে।

জাপান তাদের আইন অনুযায়ী, যুদ্ধরত দেশগুলোতে অস্ত্র সরবরাহ করে না। তবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে এ ধরনের চালান কিয়েভকে সামরিক সহায়তা দেওয়ার জন্য ওয়াশিংটনের ক্ষমতা বাড়িয়ে ইউক্রেনকে পরোক্ষভাবে উপকৃত করতে পারে।