মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ইউনাইটেডকে হারিয়ে শীর্ষে আর্সেনাল

ছবি-সংগৃহীত

ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের (ইপিএল) শিরোপা লড়াইয়ে টিকে থাকার গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডকে ১-০ গোলে হারিয়েছে আর্সেনাল। দলটির হয়ে একমাত্র গোলটি করেন লিয়ান্দ্রো ট্রসার্ড। এ জয়ে পয়েন্ট তালিকার শীর্ষেও উঠে আসলো মিকেল আর্টেটার দল। ৩৭ ম্যাচ শেষে আর্সেনালের পয়েন্ট ৮৬। এক ম্যাচ কম খেলে সিটির পয়েন্ট ৮৫।

গতকাল রবিবার (১২ মে) ওল্ড ট্রাফোর্ডে দুই দলের ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হয়।

ম্যাচের শুরুটা বেশ আত্মবিশ্বাসী করে আর্সেনাল। গত সপ্তাহে ক্রিস্টাল প্যালেসের মাঠে ৪-০ গোলে বিধ্বস্ত হওয়া ইউনাইটেডও প্রথম ১০ মিনিটে ভালো একটা সুযোগ তৈরি করে কিন্তু গাসমুস হয়লুন শট নেওয়ার আগমুহূর্তে পিছলে যাওয়ায় সেটা কাজে লাগাতে পারেননি। দারুণ ছন্দে থাকা ট্রোসার্ডের গোলে ২০তম মিনিটে এগিয়ে যায় আর্সেনাল। মাঝমাঠ থেকে সতীর্থের উঁচু করে বাড়ানো বল ধরে কিছুটা এগিয়ে বাইলাইন থেকে গোলমুখে পাস দেন কাই হাভার্টজ এবং ছুটে এসে ছোট্ট টোকায় বাকি কাজ সারেন বেলজিয়ান ফরোয়ার্ড।

বিরতির আগে ৪৩তম মিনিটে বাঁ দিক থেকে ডি-বক্সে ঢুকে আলেহান্দ্রো গারনাচো বাইলাইন থেকে কাটব্যাক করেন কিন্তু বল তার কোনো সতীর্থের কাছে পৌঁছানোর আগেই ঝাঁপিয়ে রুখে দেন গোলরক্ষক দাভিদ রায়া। প্রথমার্ধে বল দখলে এগিয়ে থাকার পাশাপাশি প্রতিপক্ষের চেয়ে গোলের জন্য বেশি শটও নেয় ইউনাইটেড, কিন্তু আট শটের একটিও লক্ষ্যে রাখতে পারেনি তারা।

দ্বিতীয়ার্ধে প্রায় সমানতালে চলতে থাকে আক্রমণ-পাল্টা আক্রমণ। কেউই অবশ্য প্রতিপক্ষকে খুব কঠিন পরীক্ষায় ফেলতে পারছিলো না। ৭৮তম মিনিটে গোল পাওয়ার কাছাকাছি যায় ইউনাইটেড; কিন্তু পাশের জালে মেরে হতাশ করেন গারনাচো।

খেলার ৭৯তম মিনিটে একক নৈপুণ্যে ব্যবধান দ্বিগুণ করার দারুণ সুযোগ তৈরি করেন গাব্রিয়েল মার্তিনেল্লি। বাঁ দিক দিয়ে বল পায়ে বক্সে ঢুকে প্রতিপক্ষের একাধিক খেলোয়াড়ের বাধা এড়িয়ে শট নেন ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড; তবে ঝাঁপিয়ে রুখে দেন গোলরক্ষক আন্দ্রে ওনানা। একটু পর আরেকটি দারুণ সেভ করে দলকে লড়াইয়ে রাখেন ওনানা। বক্সের বাইরে থেকে ডেকলান রাইসের জোরাল শট ঝাঁপিয়ে কর্নারের বিনিময়ে রুখে দেন ক্যামেরুনের গোলরক্ষক। কিন্তু প্রতিপক্ষের জালে বল পাঠাতে পারেনি তারা। ফলে টানা দ্বিতীয় এবং আসরে মোট চতুর্দশ হার নিয়ে মাঠ ছাড়ে দলটি।

আগামী সপ্তাহে শেষ রাউন্ডে ঘরের মাঠে এভারটনের মুখোমুখি হবে ২০ বছর আগে সবশেষ লিগ শিরোপা জেতা আর্সেনাল। আর সিটি তাদের বাকি দুই ম্যাচে খেলবে টটেনহ্যাম হটস্পার ও ওয়েস্ট হ্যাম ইউনাইটেডের বিপক্ষে।

ইউনাইটেডকে হারিয়ে শীর্ষে আর্সেনাল

প্রকাশের সময় : ১০:৩৪:১৯ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৩ মে ২০২৪

ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের (ইপিএল) শিরোপা লড়াইয়ে টিকে থাকার গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডকে ১-০ গোলে হারিয়েছে আর্সেনাল। দলটির হয়ে একমাত্র গোলটি করেন লিয়ান্দ্রো ট্রসার্ড। এ জয়ে পয়েন্ট তালিকার শীর্ষেও উঠে আসলো মিকেল আর্টেটার দল। ৩৭ ম্যাচ শেষে আর্সেনালের পয়েন্ট ৮৬। এক ম্যাচ কম খেলে সিটির পয়েন্ট ৮৫।

গতকাল রবিবার (১২ মে) ওল্ড ট্রাফোর্ডে দুই দলের ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হয়।

ম্যাচের শুরুটা বেশ আত্মবিশ্বাসী করে আর্সেনাল। গত সপ্তাহে ক্রিস্টাল প্যালেসের মাঠে ৪-০ গোলে বিধ্বস্ত হওয়া ইউনাইটেডও প্রথম ১০ মিনিটে ভালো একটা সুযোগ তৈরি করে কিন্তু গাসমুস হয়লুন শট নেওয়ার আগমুহূর্তে পিছলে যাওয়ায় সেটা কাজে লাগাতে পারেননি। দারুণ ছন্দে থাকা ট্রোসার্ডের গোলে ২০তম মিনিটে এগিয়ে যায় আর্সেনাল। মাঝমাঠ থেকে সতীর্থের উঁচু করে বাড়ানো বল ধরে কিছুটা এগিয়ে বাইলাইন থেকে গোলমুখে পাস দেন কাই হাভার্টজ এবং ছুটে এসে ছোট্ট টোকায় বাকি কাজ সারেন বেলজিয়ান ফরোয়ার্ড।

বিরতির আগে ৪৩তম মিনিটে বাঁ দিক থেকে ডি-বক্সে ঢুকে আলেহান্দ্রো গারনাচো বাইলাইন থেকে কাটব্যাক করেন কিন্তু বল তার কোনো সতীর্থের কাছে পৌঁছানোর আগেই ঝাঁপিয়ে রুখে দেন গোলরক্ষক দাভিদ রায়া। প্রথমার্ধে বল দখলে এগিয়ে থাকার পাশাপাশি প্রতিপক্ষের চেয়ে গোলের জন্য বেশি শটও নেয় ইউনাইটেড, কিন্তু আট শটের একটিও লক্ষ্যে রাখতে পারেনি তারা।

দ্বিতীয়ার্ধে প্রায় সমানতালে চলতে থাকে আক্রমণ-পাল্টা আক্রমণ। কেউই অবশ্য প্রতিপক্ষকে খুব কঠিন পরীক্ষায় ফেলতে পারছিলো না। ৭৮তম মিনিটে গোল পাওয়ার কাছাকাছি যায় ইউনাইটেড; কিন্তু পাশের জালে মেরে হতাশ করেন গারনাচো।

খেলার ৭৯তম মিনিটে একক নৈপুণ্যে ব্যবধান দ্বিগুণ করার দারুণ সুযোগ তৈরি করেন গাব্রিয়েল মার্তিনেল্লি। বাঁ দিক দিয়ে বল পায়ে বক্সে ঢুকে প্রতিপক্ষের একাধিক খেলোয়াড়ের বাধা এড়িয়ে শট নেন ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড; তবে ঝাঁপিয়ে রুখে দেন গোলরক্ষক আন্দ্রে ওনানা। একটু পর আরেকটি দারুণ সেভ করে দলকে লড়াইয়ে রাখেন ওনানা। বক্সের বাইরে থেকে ডেকলান রাইসের জোরাল শট ঝাঁপিয়ে কর্নারের বিনিময়ে রুখে দেন ক্যামেরুনের গোলরক্ষক। কিন্তু প্রতিপক্ষের জালে বল পাঠাতে পারেনি তারা। ফলে টানা দ্বিতীয় এবং আসরে মোট চতুর্দশ হার নিয়ে মাঠ ছাড়ে দলটি।

আগামী সপ্তাহে শেষ রাউন্ডে ঘরের মাঠে এভারটনের মুখোমুখি হবে ২০ বছর আগে সবশেষ লিগ শিরোপা জেতা আর্সেনাল। আর সিটি তাদের বাকি দুই ম্যাচে খেলবে টটেনহ্যাম হটস্পার ও ওয়েস্ট হ্যাম ইউনাইটেডের বিপক্ষে।