বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০২৪, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ইসলামের মূল ইতিহাস থেকে মুসলমানরা বিকৃত হচ্ছে : বক্তারা

১৮ই জিলহজ্ব দিনটি হলো মুসলমানদের একটা ঐতিহাসিক দিন। ইসলামের ইতিহাস ও হাদিস কোরআন আলোকে পুরো জিলহজ্ব মাসটিকে তাৎপর্যপূর্ণ মাস হিসেবে গণ্য করা হয়েছে। হযরত মোহাম্মদ (সাঃ) বিদায় হজ্জের দিনে “গাদিরে খুম্ম” খুতবা পাঠের মাধ্যমে হযরত মাওলা আলী (রাঃ) কে স্থলাভিষিক্ত হিসেবে ঘোষণা দেন। পরবর্তী সময়ে সেটা ঈদুল গাদিরে হিসেবে পালন করা হয় বলে বক্তরা অভিমত পেশ করেন। ২৮ জুন (শুক্রবার) বিকালে চট্টগ্রাম নগরীর স্টেশন রোডস্থ এশিয়ান এস আর হোটেলের হলরুমে বিশ্ব মুসলিম উম্মাহ্ আয়োজনে মাওলা আলী (রাঃ) গাদিরে খুম্ম অভিষেক অনুষ্ঠানে বক্তরা এ কথা বলেন। বক্তরা আরও বলেন ইসলামের সঠিক ইতিহাস থেকে মুসলমানরা বিকৃত হচ্ছে ও ইউরোপ দেশের দালালী করার জন্য একদল দালাল সিন্ডিকেট স্কলারশিপ ভুল তথ্য দিয়ে একটা বিভ্রান্ত সৃষ্টি করে যাচ্ছে। যেমন মহরম মাস হচ্ছে ইসলামের জাগ্রত মাস। মুসলমানদের ইসলাম প্রচারের ঐতিহাসিক একটা ভূমিকা তৈরি করে, তেমনি মাওলা আলীর এই স্থলাভিষিক্ত ঘোষণার মধ্য দিয়ে ইসলামের অভিষেক ঘটে। বিশ্ব মুসলিম উম্মাহ্’র আহ্বায়ক জাহেদুল ইসলাম এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ভূগোল ও পরিবেশ বিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক হিমু হামিদ, বিশেষ অতিথি হিসেবে ছিলেন ওমর গণি কলেজের প্রাণীবিদ্যা বিভাগের সাবেক প্রধান অধ্যাপক নোমান সিদ্দিকী, দৈনিক আমাদের নতুন সময় পত্রিকার চট্টগ্রাম ব্যুরো প্রধান কামাল পারভেজ ও হুজ্জাতুল ইসলাম মাওলানা মোঃ আমজাদ হোসেন। অনুষ্ঠানে আরও আলোচনা বক্তব্য রাখেন শাহজাহান আলী মাইজভান্ডারী, আব্দুল হাকিম ও মনজুরুল আলম। অনুষ্ঠানটি ইকবাল বিন মালেকের সঞ্চালনায় মাওলানা মিজানুর রহমান এর কোরআন তেলওয়াত মাধ্যমে শুরু হয় এবং অনুষ্ঠানের বক্তব্যের ফাঁকে ফাঁকে ইসলামিক নাত ও কবিতা আবৃত্তি করা হয়।
ইসমাইল ইমন চট্টগ্রাম

ইসলামের মূল ইতিহাস থেকে মুসলমানরা বিকৃত হচ্ছে : বক্তারা

প্রকাশের সময় : ১০:৫৪:৫৫ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৯ জুন ২০২৪
১৮ই জিলহজ্ব দিনটি হলো মুসলমানদের একটা ঐতিহাসিক দিন। ইসলামের ইতিহাস ও হাদিস কোরআন আলোকে পুরো জিলহজ্ব মাসটিকে তাৎপর্যপূর্ণ মাস হিসেবে গণ্য করা হয়েছে। হযরত মোহাম্মদ (সাঃ) বিদায় হজ্জের দিনে “গাদিরে খুম্ম” খুতবা পাঠের মাধ্যমে হযরত মাওলা আলী (রাঃ) কে স্থলাভিষিক্ত হিসেবে ঘোষণা দেন। পরবর্তী সময়ে সেটা ঈদুল গাদিরে হিসেবে পালন করা হয় বলে বক্তরা অভিমত পেশ করেন। ২৮ জুন (শুক্রবার) বিকালে চট্টগ্রাম নগরীর স্টেশন রোডস্থ এশিয়ান এস আর হোটেলের হলরুমে বিশ্ব মুসলিম উম্মাহ্ আয়োজনে মাওলা আলী (রাঃ) গাদিরে খুম্ম অভিষেক অনুষ্ঠানে বক্তরা এ কথা বলেন। বক্তরা আরও বলেন ইসলামের সঠিক ইতিহাস থেকে মুসলমানরা বিকৃত হচ্ছে ও ইউরোপ দেশের দালালী করার জন্য একদল দালাল সিন্ডিকেট স্কলারশিপ ভুল তথ্য দিয়ে একটা বিভ্রান্ত সৃষ্টি করে যাচ্ছে। যেমন মহরম মাস হচ্ছে ইসলামের জাগ্রত মাস। মুসলমানদের ইসলাম প্রচারের ঐতিহাসিক একটা ভূমিকা তৈরি করে, তেমনি মাওলা আলীর এই স্থলাভিষিক্ত ঘোষণার মধ্য দিয়ে ইসলামের অভিষেক ঘটে। বিশ্ব মুসলিম উম্মাহ্’র আহ্বায়ক জাহেদুল ইসলাম এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ভূগোল ও পরিবেশ বিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক হিমু হামিদ, বিশেষ অতিথি হিসেবে ছিলেন ওমর গণি কলেজের প্রাণীবিদ্যা বিভাগের সাবেক প্রধান অধ্যাপক নোমান সিদ্দিকী, দৈনিক আমাদের নতুন সময় পত্রিকার চট্টগ্রাম ব্যুরো প্রধান কামাল পারভেজ ও হুজ্জাতুল ইসলাম মাওলানা মোঃ আমজাদ হোসেন। অনুষ্ঠানে আরও আলোচনা বক্তব্য রাখেন শাহজাহান আলী মাইজভান্ডারী, আব্দুল হাকিম ও মনজুরুল আলম। অনুষ্ঠানটি ইকবাল বিন মালেকের সঞ্চালনায় মাওলানা মিজানুর রহমান এর কোরআন তেলওয়াত মাধ্যমে শুরু হয় এবং অনুষ্ঠানের বক্তব্যের ফাঁকে ফাঁকে ইসলামিক নাত ও কবিতা আবৃত্তি করা হয়।
ইসমাইল ইমন চট্টগ্রাম