মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ৪ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কুলাউড়ায় রেমালের প্রভাবে ৩৮ হাজার গ্ৰাহক বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় রেমালের প্রভাবে মৌলভীবাজারের কুলাউড়ায় দু’দিন থেকে ঝড়ো হাওয়া ও ভারী বৃষ্টি হচ্ছে। এতে গাছপালা পড়ে বিদ্যুতের তার ও খুঁটি ভেঙে পুরো উপজেলায় বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ হয়ে গেছে। বিদ্যুৎ সরবরাহ দ্রুত চালু করতে কাজ করছেন বিদ্যুৎ কর্মীরা।
কুলাউড়া বিদ্যুৎ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. শাহাদাত হোসেন জানান, ঘূর্ণিঝড় রেমালের প্রভাবে ভারী বৃষ্টি ও ঝড়ো বাতাসের কারণে বিভিন্ন এলাকায় গাছপালা-বিদ্যুতের খুঁটি ভেঙে গেছে। এ কারণে বিদ্যুতের ৭টি ফিডার গতরাত থেকে বন্ধ রয়েছে।
তিনি আরও জানান, বর্তমানে বিদ্যুতের প্রায় ৩৮ হাজার গ্রাহকের বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ রয়েছে। এটি দ্রুত চালু করতে বিদ্যুৎ কর্মীরা কাজ করছে।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. মহিউদ্দিন বলেন, দু’দিন থেকে ঝড়ো হাওয়া ও ভারী বৃষ্টি শুরু হওয়ার পর প্রশাসনের পক্ষ থেকে উপজেলার সব এলাকার জনপ্রতিনিধিরা সার্বক্ষণিক পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছেন। তবে ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে ঝড়ো বাতাসে কী পরিমাণ ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে, তা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে বিস্তারিত জানা যাবে।

কুলাউড়ায় রেমালের প্রভাবে ৩৮ হাজার গ্ৰাহক বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন

প্রকাশের সময় : ০৮:২৩:৪৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪
বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় রেমালের প্রভাবে মৌলভীবাজারের কুলাউড়ায় দু’দিন থেকে ঝড়ো হাওয়া ও ভারী বৃষ্টি হচ্ছে। এতে গাছপালা পড়ে বিদ্যুতের তার ও খুঁটি ভেঙে পুরো উপজেলায় বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ হয়ে গেছে। বিদ্যুৎ সরবরাহ দ্রুত চালু করতে কাজ করছেন বিদ্যুৎ কর্মীরা।
কুলাউড়া বিদ্যুৎ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. শাহাদাত হোসেন জানান, ঘূর্ণিঝড় রেমালের প্রভাবে ভারী বৃষ্টি ও ঝড়ো বাতাসের কারণে বিভিন্ন এলাকায় গাছপালা-বিদ্যুতের খুঁটি ভেঙে গেছে। এ কারণে বিদ্যুতের ৭টি ফিডার গতরাত থেকে বন্ধ রয়েছে।
তিনি আরও জানান, বর্তমানে বিদ্যুতের প্রায় ৩৮ হাজার গ্রাহকের বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ রয়েছে। এটি দ্রুত চালু করতে বিদ্যুৎ কর্মীরা কাজ করছে।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. মহিউদ্দিন বলেন, দু’দিন থেকে ঝড়ো হাওয়া ও ভারী বৃষ্টি শুরু হওয়ার পর প্রশাসনের পক্ষ থেকে উপজেলার সব এলাকার জনপ্রতিনিধিরা সার্বক্ষণিক পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছেন। তবে ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে ঝড়ো বাতাসে কী পরিমাণ ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে, তা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে বিস্তারিত জানা যাবে।